• Home
  • »
  • News
  • »
  • ipl
  • »
  • আইপিএল ২০২০: কোহলির নেতৃত্বের প্রশংসায় পঞ্চমুখ আরসিবি-র এ বি ডিভিলিয়ার্স

আইপিএল ২০২০: কোহলির নেতৃত্বের প্রশংসায় পঞ্চমুখ আরসিবি-র এ বি ডিভিলিয়ার্স

Photo- File

Photo- File

এই মরশুমে ঘুরে দাঁড়াতে হবেই বিরাটের আরসিবি-কে৷

  • Share this:

    #দুবাই: দক্ষিণ আফ্রিকার প্রাক্তন অধিনায়ক এবি ডি ভিলিয়ার্স বলেছেন, রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে তাদের দুর্ভাগ্য কাটিয়ে ওঠার জন্য বিরাট কোহলি নেতৃত্ব কোনো ত্রুটি রাখছেন না।

    এবি ডি ভিলিয়ার্স বলেছেন, শনিবার সংযুক্ত আরব আমিরশাহিতে আইপিএল শুরুর আগে ভারতের অধিনায়ক কোহলি খুব কঠোর পরিশ্রমের অনুপ্রেরণা জাগিয়েছেন গোটা টিম এর মধ্যে।

    সোমবার নিজের দলের ইউটিউব চ্যানেলে পোস্ট করা একটি সাক্ষাৎকারে ডি ভিলিয়ার্স বলেছিলেন, ‘আমি মনে করি সবাই এই কঠোর পরিশ্রমী পরিবেশে মানিয়ে নিয়েছে এবং তার জন্য বেশিরভাগ কৃতিত্ব বিরাটকেই দেওয়া উচিত।’

    তার নেতৃত্ব উদাহরণযোগ্য এবং সে নতুন মান নির্ধারণ করেছেন, অধিনায়ক যখন নেতৃত্বের পুরো ভার তা নেন তখন তাকে অনুসরণ করা খুবই সহজ। তার প্রভাব পুরো টিম এর উপরে দুর্দান্ত ছিল।

    গত তিনটি মরসুমের মধ্যে দুটিতে আটটি দলের মধ্যে শেষ স্থান অর্জন করে বেঙ্গালুরু। আগামী সোমবার দুবাইয়ে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিপক্ষে বেঙ্গালুরু খেলতে চলেছে এই মরশুম এর প্রথম ম্যাচ।

    ২০১৩ সালে ব্যাঙ্গালোর দলের অধিনায়ক হিসাবে দায়িত্ব গ্রহণকারী কোহলি বলেন যে তিনি কোন আইপিএল মরসুমের শুরুতে  এতটা শান্ত কখনও অনুভব করিনি।

    ডি ভিলিয়ার্স্ বলেছেন, ‘আমরা বলি যে প্রতি মরসুমে আমরা উন্নতি করব কিন্তুু গত তিন বছরে এমনটা ঘটেনি। যদিও সবাই কে আশ্বাস দিতে চাই যে এই বছর নতুন কিছু হতে চলেছে।’

    ‘আমি বলব না যে আমরা সর্বশ্রেষ্ঠ দল পেয়েছি। দলে আলাদা আলাদা ধারণা থাকলেও আমি সেটা ব্যাখ্যা করতে পারি না, তবে আমরা নতুন মরশুমের জন্যে প্রচণ্ড উৎসাহিত।’

    "টিমটাকে ভালো করে দেখলে বুঝবেন যে সব ক্ষেত্রেই আমাদের ব্যাক-আপ রয়েছে। বিরাটের সেরা একাদশ খেলার জন্যও বিকল্প রয়েছে আমাদের কাছে।  ব্যাটিং-বোলিং-ফিল্ডিং তিন ক্ষেত্রেই আমাদের কাছে বিকল্প তৈরি আছে।

    এই টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হচ্ছে সংযুক্ত আরব আমিরশাহিতে কারণ ভারতে করোনাভাইরাস মামলার পরিমাণ অনেক বেড়ে গেছে, যা আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রের পরে দ্বিতীয় সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্থ দেশ।

    Published by:Debalina Datta
    First published: