জিন্স ও জ্যাকেটের মধ্যেই থাকবে সুরক্ষা ব্যবস্থা! বাইক চালানো হয়ে উঠবে আরও সুরক্ষিত

Airbag Jeans for Bikers

এক্ষেত্রে নতুন দিশা দিতে পারে এয়ারব্যাগ জিন্স আর হাইটেক জ্যাকেট। যা বাইক চালানো আরও নিরাপদ ও সুরক্ষিত করে তুলতে পারে।

  • Share this:

#স্টকহোম: বাইক দুর্ঘটনা নতুন কিছু নয়। প্রায়শই পৃথিবীর নানা প্রান্তে বাইক দুর্ঘটনার খবর মেলে। রোজ বহু মানুষের মৃত্যু হয়। আর বাইক সেফটি নিয়েও নিরন্তর গবেষণা চলছে। নানা সময়ে নানা রকমের সেফটি ইক্যুইপমেন্টও বাজারে এসেছে। এক্ষেত্রে নতুন দিশা দিতে পারে এয়ারব্যাগ জিন্স আর হাইটেক জ্যাকেট। যা বাইক চালানো আরও নিরাপদ ও সুরক্ষিত করে তুলতে পারে। আসুন জেনে নেওয়া যাক বিশদে।

এর নেপথ্যে রয়েছে ফ্রান্সের টেকফার্ম In&motion। ২০১১ সাল থেকে যাত্রা শুরু। সেই সময়ে ওয়্যারেবল এয়ারব্যাগ ডিজাইন শুরু করে সংশ্লিষ্ট সংস্থা। পরের দিকে বাইক রাইডারদের জন্য কাজ শুরু করে এই সংস্থা। GPS, গায়রোস্কোপ (Gyroscope), অ্যাক্সেলেরোমিটার ( Accelerometer)-সহ একাধিক প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে একটি স্মার্ট বক্স তৈরি করা হয়। যা সহজেই জ্যাকেট বা প্যান্টের মধ্যে সহজেই বসানো যেতে পারে।

কিন্তু কী ভাবে কাজ করে এটি? এক্ষেত্রে একটি সেন্সর রয়েছে। এর জেরে যে কোনও ধরনের দুর্ঘটনাকে চিহ্নিত করতে পারে ওই ডিভাইজের অ্যালগরিদম। প্রতি সেকেন্ডে বাইক আরোহীর পজিশনকে প্রায় ১০০০ বারের কাছাকাছি মনিটর করতে পারে এই স্মার্ট বক্স। কোনও রকম ভারসাম্যহীনতা দেখলেই সজাগ হয়ে যায় পুরো সিস্টেম। আর এই পুরো কাজ হতে সময় লাগে শুধুমাত্র ৬০ মিলি সেকেন্ড। এমনই জানাচ্ছেন In&motion-এর কমিউনিকেশন ম্যানেজার অ্যানে-লোরে হোগেলি।

এ বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেছেন Motorcycle News-এর ডেপুটি এডিটর এমা ফ্র্যাঙ্কলিন। তাঁর কথায়, বাজারের অন্যান্য ইলেকট্রনিক ব্যাগের মতো স্বাভাবিক ভাবে কাজ করতে পারে এই এয়ারব্যাগ ডিভাইজ। তবে এর কিছু বাড়তি পাওনা রয়েছে। আর এই বাড়তি পাওনা হল এর স্মার্ট ডিজাইন ও অত্যাধুনিক প্রযুক্তি। এক্ষেত্রে In&motion-এর একটি সাবস্ক্রিপশন সার্ভিসও রয়েছে। বাইক আরোহীরা ৪০০ ডলার দিয়ে ডিভাইজের পুরো বাক্সটি কিনতে পারেন। কিংবা In&motion থেকে ১২০ ডলার দিয়ে এক বছরের জন্য ভাড়াও নেওয়া যেতে পারে। এক্ষেত্রে ঘাড়, বুক ও পিছনের অংশকে রক্ষা করতে জ্যাকেটের মধ্যেই রাখা যেতে পারে এই Motorcycle Airbag Vest।

আরও পড়ুন ২০০০ বছরের পুরনো কবর থেকে মিলল সোনার জিভ বসানো মমি!

একই রকম প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়েছে জিন্সের মধ্যেও। আজ থেকে ১৬ বছর আগে মোজেস শাহরিয়ার নামে এক ব্যক্তি Harley-Davidson-এর সঙ্গে গাঁটছড়া বেঁধে মোটরসাইকেলের জন্য একটি প্রোটেক্টর জিন্স তৈরি করেছিলেন। বর্তমানে তাঁর সংস্থা একটি প্রোটোটাইপ সুপার স্ট্রং জিন্স তৈরি করেছে। যা বাইক-আরোহীর দু'টো পা-কে সম্পূর্ণ সুরক্ষা দিতে পারে।

এ বিষয়ে ব্রিটেনের লাফবরো ইউনিভার্সিটির ভেহিকেল সেফটি বিভাগের সিনিয়র লেকচারার রিচার্ড ফ্র্যাম্পটন জানিয়েছেন যে, বিষয়টি অপেক্ষাকৃত নতুন। এ নিয়ে এখনও পর্যন্ত সে ভাবে কোনও গবেষণা করা হয়নি। তবে এ নিয়ে ফ্রান্সের নানা সংস্থা ও ইনস্টিটিউট অফ সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজির গবেষণা যুগান্তকারী। এক্ষেত্রে ঘণ্টায় ৩০-৪০ কিমি বা তার কম গতিবেগে বাইক চললে দারুণ সুরক্ষা দেয় এই এয়ারব্যাগ ভেস্ট। তাঁর কথায়, বাইক-আরোহীদের জন্য আগামী দিনে একটি গুরুত্বপূর্ণ ডিভাইজ হয়ে উঠবে এটি। এর পিছনে যথেষ্ট কারণও রয়েছে। বাইক চালানোর সময় বুক, ঘাড় ও স্পাইনাল এরিয়া অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ। এখানে চোট লাগলে মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে। আর এই জায়গাগুলি বাঁচাতে সাহায্য করবে এই অত্যাধুনিক ডিভাইজ!

Published by:Pooja Basu
First published: