বিদেশ

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

স্যানিটাইজার মারাত্মক!‌ অত্যাধিক স্যানিটাইজার হাতে, আগুন লেগে পুড়ে গেলেন মহিলা

স্যানিটাইজার মারাত্মক!‌ অত্যাধিক স্যানিটাইজার হাতে, আগুন লেগে পুড়ে গেলেন মহিলা
Image: FoxNews/David Gonzalez

সামান্য সুস্থ হওয়ার পর কেট জানিয়েছেন, প্রথম আগুনের ফুলকি তিনি শরীরে দেখতে পান হাতে। অর্থাৎ যেখানে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করেছিলেন।

  • Share this:

#টেক্সাস:‌ কোনও কিছুই অতিরিক্ত ভাল নয়। জিনিসের সঠিক প্রয়োগ যদি না জানে মানুষ, তাহলে তার ফল হতে পারে উল্টো। তেমনই এখন করোনা ভাইরাসের প্রকোপের কারণে হ্যান্ড স্যানিটাইজারের বাড়বাড়ন্ত হয়েছে। সকলকেই মাস্ক পরতে হচ্ছে। কিন্তু কিছুদিন আগেই খবর এসেছিল, মাস্ক পরে জগিং করতে গিয়ে দমবন্ধ হয়ে মৃত্যু হয়েছে এক ব্যক্তির। তিনি এটা খেয়াল রাখেননি যে দৌড়ানোর সময় অন্তত মাস্ক খুলে রাখা উচিত। তেমনই ঘটেছে স্যানিটাইজার ব্যবহারের ক্ষেত্রেও। এক্ষেত্রে অ্যালকহল যুক্তি স্যানিটাইজার হাতে মেখে আগুনের কাজ শুরু করায় শরীরের একটা বড় অংশ পুড়ে গিয়েছে এক মহিলার। তাঁর অবস্থা দেখলে রীতিমতো শিউরে উঠতে হয়। স্বাস্থ্য রক্ষার জিনিসে যে এমন হাল হতে পারে শরীরের, তা না দেখলে কেউ বিশ্বাস করবে না।

মহিলার নাম কেট ওয়াইস। তিনি স্যানিটাইজর দিয়ে পরিস্কার হয়ে গিয়েছিলেন নিজের সন্তানের বিছানার পাশে মোমবাতি জ্বালাতে। কিন্তু সেই মোমবাতির আগুন ধরে গিয়েছিল তাঁর হাতে। ভয়ের চোটে টেক্সাসের বাসিন্দা এই মহিলা হঠাৎ লাফিয়ে ওঠেন। তাতে উল্টে যায় একটি মদের বোতল। আর তাতেও আছে অ্যালকোহল। আগুন লেগে বিস্ফোরণের মতো হয়। এর মধ্যে উঠে পড়ে সন্তানেরা। এক সন্তানের সাহায্যে নিজের শরীর থেকে জামাকাপড় খুলে ফেলতে শুরু করেন তিনি যাতে আগুনের তাপ কম লাগে। এক সন্তান পাশের বাড়িতে দৌড়ে যায় সাহায্যের আর্তি নিয়ে। ঘটনাস্থলে জরুরি পরিষেবার কর্মীরা দ্রুত এসে উপস্থিত হয়ে কেটকে নিয়ে যান স্থানীয় হাসপাতালে। চিকিৎসকরা পরীক্ষা করে বলেন, কেটের থার্ড অথবা সেকেন্ড ডিগ্রি বার্ন হয়েছে। অর্থাৎ, সারা শরীরেই কোথাও না কোথাও পুড়েছে।

সামান্য সুস্থ হওয়ার পর কেট জানিয়েছেন, প্রথম আগুনের ফুলকি তিনি শরীরে দেখতে পান হাতে। অর্থাৎ যেখানে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করেছিলেন। নিজে ও সন্তানেরা করোনা আক্রান্ত হয়ে তারপর সুস্থ হওয়ার পর সেটি কিনে এনেছিলেন কেট। যদিও দমকলের তরফ থেকে এখনও আগুন লাগার কারণ নিশ্চিত করে বলা হয়নি। কিন্তু কেট এখনও আতঙ্কগ্রস্থ। তাই তিনি বারবার সাধারণ মানুষকে বলছেন, সাবধানে অ্যালকোহল নির্ভর হ্যান্ড জেল ব্যবহার করতে, যাতে তাঁর মতো দুর্ঘটনা না ঘটে। এর থেকে বাড়িতে থাকলে সাবান ব্যবহার করা অনেক বুদ্ধিমানের কাজ বলে মনে করছেন কেট। তাতে জীবানুও মরে, আবার কোনও ঝুঁকিও থাকে না।

Published by: Uddalak Bhattacharya
First published: September 5, 2020, 10:34 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर