• Home
  • »
  • News
  • »
  • international
  • »
  • US MAN THOUGHT HIS DAY WAS RUINED AFTER HITTING DEER WITH CAR THEN HE WON 2 MILLION IN LOTTERY AC

অপয়া দিন বদলে গেল সৌভাগ্যে, বিকেল নামতেই নাম উঠল কোটিপতির তালিকায়

ঠিক যেমন তাঁর গাড়ির সঙ্গে ধাক্কা খেয়েছিল দু'টো হরিণ, তেমনই লটারির সেকেন্ড পুলিংয়ে প্রাইজ মানিটাও দ্বিগুণ হয়ে যায়

ঠিক যেমন তাঁর গাড়ির সঙ্গে ধাক্কা খেয়েছিল দু'টো হরিণ, তেমনই লটারির সেকেন্ড পুলিংয়ে প্রাইজ মানিটাও দ্বিগুণ হয়ে যায়

  • Share this:

#নর্থ ক্যারোলিনা: এই জন্যেই বোধ হয় মানুষের অভিধানে মিরাকল নামে একটা শব্দ ঠাঁই করে নিয়েছে। না কি ঘটনাকে স্রেফ কাকতালীয় বলাটাই ঠিক হবে?

অবশ্য নর্থ ক্যারোলিনার বাসিন্দা অ্যান্থনি ডোয়ির সঙ্গে যা ঘটেছে, তার মূলে তাঁর নিজেরও কিছু হাত ছিল। হাজার হোক, তিনি নিজে হাতেই কিনেছিলেন বেশ কয়েকটা লটারির টিকিট। ফলে, তার মধ্যে থেকে একটা পুরস্কার ডেকে আনা এমন কিছু অস্বাভাবিক ঘটনা নয়। মজাটা এখানেই, যে দিন এই ঘটনা ঘটল, তার শুরুটা হয়েছিল রীতিমতো অপয়া ভাবে!

খবর বলছে যে আর পাঁচটা দিনের মতোই নির্ধারিত সময়ে গাড়ি নিয়ে বাড়ি থেকে কাজে বেরিয়ে পড়েছিলেন অ্যান্থনি। কিন্তু পথে তাঁর গাড়ি দু'-দু'বার দু'টো হরিণকে ধাক্কা দেয়। এর পর আর কাজে যেতে সাহস পাননি তিনি। ভাগ্যকে মন্দ এবং দিনটাকে অপয়া ধরে নিয়ে বাড়ি ফিরে আসেন তিনি। গোমড়া মুখে ঘুমোতে চলে যান নিজের বিছানায়।

আমাদের দেশে যেমন বিড়ালের রাস্তা কাটাকে অশুভ বলে গণ্য করা হয়, নর্থ ক্যারোলিনায় কিন্তু সে ব্যাপারটা হরিণের ক্ষেত্রে হয় না। কিন্তু তার পরেও হরিণ গাড়ির সামনে এসে পড়লে একটা দুর্ঘটনার সম্ভাবনা থাকে। নিরীহ পশুটা আহত হতে পারে, তাকে বাঁচাতে গিয়ে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেললে ঘটতে পারে বড়সড় দুর্ঘটনা। তাই একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হওয়ায় আর কাজে যাওয়ার ঝুঁকি নেননি অ্যান্থনি।

খবর মোতাবেকে, এর পর তিনি বিকেলের দিকে ঘুম থেকে ওঠেন। কী মনে হতে কিনে আনা লটারির টিকিটগুলো নিয়ে নাড়াচাড়া শুরু করেন। অ্যান্থনি সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন যে তিনি চার নম্বর টিকিটটা বেছে নেন। এর পর নম্বর মিলিয়ে দেখতে গিয়ে চমকে ওঠেন তিনি। বুঝতে পারেন- তিনি ১ মিলিয়ন ডলার জিতে গিয়েছেন!

কিন্তু এখানে গায়ে কাঁটা দেওয়ার মতো একটা ঘটনা রয়েছে! ঠিক যেমন তাঁর গাড়ির সঙ্গে ধাক্কা খেয়েছিল দু'টো হরিণ, তেমনই লটারির সেকেন্ড পুলিংয়ে প্রাইজ মানিটাও দ্বিগুণ হয়ে যায়! মানে, এক লপ্তে ২ মিলিয়ন ডলার জিতে যান তিনি।

জানা গিয়েছে যে কর বাদে ১.৪ মিলিয়ন ডলার ঘরে নিয়ে এসেছেন অ্যান্থনি। জানিয়েছেন যে এর কিছুটা দিয়ে মা-বাবার বাড়ি, নিজের আর বোনের গাড়ি সারাবেন। বাকিটা তোলা থাকবে উপযুক্ত খাতে বিনিয়োগের জন্য।

Published by:Ananya Chakraborty
First published: