corona virus btn
corona virus btn
Loading

বিশ্ব মন্দা হয়তো গ্রাস করবে না ভারতকে, UN রিপোর্টে স্বস্তির পূর্বাভাস

বিশ্ব মন্দা হয়তো গ্রাস করবে না ভারতকে, UN রিপোর্টে স্বস্তির পূর্বাভাস
করোনার ধাক্কা হয়তো সামলে নেবে ভারত৷ PHOTO- FILE
  • Share this:

#নিউ ইয়র্ক: করোনা মহামারির ধাক্কায় বিশ্বজুড়ে আর্থিক মন্দার পূর্বাভাস আগেই দিয়েছে আএমএফ-এর মতো প্রতিষ্ঠান৷ মন্দার আঁচ যে কমবেশি সবদেশের উপরেই পড়তে চলেছে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না৷ এই কঠিন পরিস্থিতিতে রাষ্ট্রসঙ্ঘের বাণিজ্য শাখার রিপোর্টে যে দাবি করা হলো, তাতে কিছুটা হলেও স্বস্তি পেতে পারেন ভারতীয়রা৷ ওই রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে, করোনা ধাক্কার জেরে বিশ্বের অধিকাংশ উন্নয়নশীল দেশ মন্দার মুখোমুখি হলেও চিন এবং ভারতে তার প্রভাব তুলনামূলকভাবে অনেকটাই কম পড়বে৷

বিশ্ব জনসংখ্যার দুই-তৃতীয়াংশ মানুষই উন্নয়নশীল দেশগুলিতে বাস করেন৷ এই পরিস্থিতিতে উন্নয়নশীল দেশগুলিকে ভয়াবহ মন্দার গ্রাস থেকে বের করে আনতে ২.৫ ট্রিলিয়ন মার্কিন ডলারের প্যাকেজ ঘোষণা করার চেষ্টা করছে রাষ্ট্রসঙ্ঘের বাণিজ্য শাখা৷

কী রয়েছে রিপোর্টে?

রাষ্ট্রসঙ্ঘের বাণিজ্য এবং উন্নয়ন বিষয়ক সম্মেলন (ইউএনসিটিএডি)-র রিপোর্টে আশঙ্কা প্রকাশ করা হয়েছে, পণ্য রফতানি নির্ভর দেশগুলিতে আগামী দু' বছরে দুই থেকে তিন ট্রিলিয়ন মার্কিন ডলার বিদেশি বিনিয়োগ কমবে৷ সেই কারণে বিশ্বের দুই তৃতীয়াংশ জনসংখ্যা যে দেশগুলিতে বসবাস করে, তাঁদের এই মন্দার গ্রাস থেকে রক্ষা করতে যতখানি সম্ভব উদ্যোগ নিতে হবে৷

জি-২০ সদস্য দেশগুলি যেভাবে আর্থিক মন্দার সঙ্গে মোকাবিলা করার জন্য ৫ ট্রিলিয়ন মার্কিন ডলারের প্যাকেজ ঘোষণা করেছে, তারও প্রশংসা করা হয়েছে এই রিপোর্টে৷ একই সঙ্গে বলা হয়েছে, 'তা সত্ত্বেও গোটা বিশ্ব অর্থনীতিই এবার মন্দার কবলে পড়তে চলেছে৷ গোটা বিশ্ব অর্থনীতিতে আয়ের পরিমাণ কয়েক ট্রিলিয়ন ডলারে পৌঁছতে পারে৷ উন্নয়নশীল দেশগুলিতে এর মারাত্মক প্রভাব পড়বে৷ তবে চিন এই মন্দার প্রকোপের বাইরে থাকতে চলেছে, একই সম্ভাবনা রয়েছে ভারতেরও৷'

যদিও কীসের ভিত্তিতে আর্থিক মন্দার কবল থেকে চিন এবং ভারতের বাইরে থাকার সম্ভাবনার কথা বলা হয়েছে, ওই রিপোর্টে তার বিশদে কোনও ব্যাখ্যা নেই৷ চিনের বাইরে করোনা সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার পর থেকে গত দু' মাসে কীভাবে উন্নয়নশীল দেশগুলিতে মুদ্রার অবমূল্যায়ণ, পর্যটন রাজস্ব হ্রাস, মূলধন ঘাটতি, রফতানি কমে যাওয়ার মতো সমস্যা দেখা দিয়েছে, তাও উঠে এসেছে এই রিপোর্টে৷

 
Published by: Debamoy Ghosh
First published: April 1, 2020, 9:32 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर