Home /News /international /

ফিরে দেখা ২০১৭: শুনানি চলাকালীন আদালতেই আত্মহত্যা, এমন ঘটনায় স্তম্ভিত বিশ্ব

ফিরে দেখা ২০১৭: শুনানি চলাকালীন আদালতেই আত্মহত্যা, এমন ঘটনায় স্তম্ভিত বিশ্ব

Representative Image

Representative Image

শুনানি চলাকালীন আদালতেই আত্মহত্যা, এমন ঘটনায় স্তম্ভিত বিশ্ব

  • Share this:

    দ্য হেগের আন্তর্জাতিক আদালতে রায় পুর্নবিবেচনার আবেদনের শুনানি চলছিল। কিন্তু বিচারকের বক্তব্য শেষের আগেই এজলাসে তুলকালাম। বিষ খেয়েছেন। বোতল থেকে পান কিছু একটা পান করে আদালতেই ঘোষণা বসনিয়া গণহত্যায় অভিযুক্ত স্লবোদান প্রালজাকের। এরপরই লুটিয়ে পড়েন কাঠগড়ায়। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে প্রালজাককে মৃত ঘোষণা করা হয়। হতবাক আন্তর্জাতিক আদালতের বিচারক। আদালতে খাবার বা পানীয় নিয়ে ঢোকা নিষিদ্ধ। তারপরেও কীভাবে প্রালজাকের কাছে বিষ পৌঁছল? তদন্তের নির্দেশ রাষ্ট্রসংঘের।

    রায় পুর্নবিবেচনার আবেদনের শুনানি চলছিল হেগের আন্তর্জাতিক আদালতে। বিচারকের বক্তব্য শেষ হওয়ার আগেই এজলাসে তুলকালাম। বিষ খেয়েছেন ঘোষণা করে হইচই ফেলে দিলেন মূল আবেদনকারী। স্থগিত হয়ে গেল শুনানি। দ্রুত হাসপাতালে ভরতি করা হয় বসনিয়া গণহত্যায় অভিযুক্ত স্লাবোদান প্রালজাককে। এই ঘটনায় অনেকেই টেনে আনছেন নুরেমবার্গ ট্রায়ালে হারমন গোয়রিংয়ের আত্মহত্যার ঘটনা।

    War criminal- Slobodan Praljak  / AFP PHOTO / ANP AND POOL / Robin van Lonkhuijsen        (Photo credit should read ROBIN VAN LONKHUIJSEN/AFP/Getty Images War criminal- Slobodan Praljak
    / AFP PHOTO / ANP AND POOL / Robin van Lonkhuijsen (Photo credit should read ROBIN VAN LONKHUIJSEN/AFP/Getty Images)

    কয়েক হাজার নিরপরাধ মানুষের গণহত্যায় মদতের অভিযোগ তার বিরুদ্ধে। আন্তর্জাতিক আদালতের নির্দেশে ২০ বছর জেলও হয়েছে। বসনিয়ার মিলোসোভিচ সরকারের শীর্ষ আধিকারিক সেই স্লাবোদান প্রালজাক হইচই ফেলে দিলেন আন্তর্জাতিক আদালতে।

    বোতল থেকে কিছু পান করার পরই প্রালজাকের ঘোষণা, তিনি বিষ খেয়েছেন। কাঠগড়াতেই লুটিয়ে পড়েন প্রাক্তন স্লাব নেতা। যুদ্ধাপরাধীর ঘোষণায় হতবাক হয়ে যান আন্তর্জাতিক আদালতের বিচারকও। শুনানি বন্ধ করার ঘোষণা করলেও সঙ্গে সঙ্গে সার্ব নেতাকে বাইরে আনা যায়নি। পরে তাকে হাসপাতালে পাঠানোর নির্দেশ দেয় বিচারক।

    আন্তর্জাতিক আদালতে সাজা কমানোর আবেদন করেছিলেন প্রালজাক সহ শাস্তিপ্রাপ্ত ৬ নেতা। তবে শুনানিতে নাকচ হয়ে যায় সেই আবেদন। বিচারক বক্তব্য শেষ করার আগেই বিষ খাওয়ার ঘোষণা প্রালজাকের। সেই ঘোষণার আগে গ্লাসে রাখা কিছু পান করেছিলেন। সেই পানীয় পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে। আন্তর্জাতিক আদাবলে বাইরে থেকে খাবার বা পানীয় আনা নিষিদ্ধ। তারপরেও কীভাবে প্রালজাকের কাছে তা পৌঁছল, তা জানতে তদন্তের নির্দেশ রাষ্ট্রসংঘের।

    প্রালজাকের ঘটনায় নতুন করে আসছে নাৎসী নেতা হারমান গোয়রিংয়ের প্রসঙ্গ। নুরেমবার্গের বিচারে ফাঁসির আগের দিন বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করেছিলেন গোয়রিং।

    First published:

    Tags: Slobodan Praljak, Slobodan Praljak suicide, War criminal 'took cyanide' in Hague court, Year Ender 2017

    পরবর্তী খবর