Pakistan : পাক পঞ্জাবে গণেশ মন্দিরে তাণ্ডব! ভেঙে দেওয়া মন্দির তৈরি করে দেবে সরকার : ইমরান খান

নিশানায় গণেশ মন্দির

Pakistan : ইমরানের ট্যুইটের আগে ভারতের বিদেশমন্ত্রকের তরফে মন্দির ভাঙার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়৷

  • Share this:

    #ইসলামাবাদ: ফের পাকিস্তানে আক্রান্ত সংখ্যালঘু হিন্দুরা৷ পঞ্জাব প্রদেশের একটি গণেশ মন্দিরে(Pakistan's Punjab Temple Attack) হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনা তার সাম্প্রতিক নিদর্শন৷ ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে ভারতের বিদেশমন্ত্রক৷ তলব করা হয়েছে পাক কূটনীতিককে৷ তার পরই ট্যুইট করে মন্দির ভাঙার ঘটনার নিন্দা করলেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান (Imran Khan)৷

    আস্থা ভোটে জিতে সরকার টিকিয়ে রাখলেও ইমরান খানের(Imran Khan) বিরুদ্ধে জনরোষ এখনও থিতিয়ে যায়নি৷ এমন সময় পঞ্জাব প্রদেশে হিন্দু মন্দির ভাঙার(Hindu Tmeple Attack) ঘটনা সামনে আসে৷ ওই মুহূর্তের ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায়। ফলে দ্রুত তীব্র রোষ ছড়িয়ে পড়ে ভারতেও৷ এতে পাক সরকারের অস্বস্তি আরও বেড়ে যায়৷ বৃহস্পতিবার ট্যুইট করে ইমরান খান লেখেন, ‘পঞ্জাব প্রদেশে গণেশ মন্দিরে হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা করছি৷ আইজি পঞ্জাবের সঙ্গে কথা হয়েছে৷ দোষীদের গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছি৷ পুলিশের তরফে কোনও গাফিলতি হলে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে বলেছি৷ সরকার মন্দিরটি আবার নির্মাণ করবে৷’

    ইমরানের ট্যুইটের আগে ভারতের বিদেশমন্ত্রকের তরফে মন্দির ভাঙার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়৷ গত বুধবার লাহোর থেকে ৫৭০ কিমি দূরে গণেশ মন্দিরে হামলা ও ভাঙচুর চালায় একদল উন্মত্ত জনতা৷ ভেঙে ফেলে গণেশ মূর্তি৷ আগুন লাগিয়ে দেওয়া হয় মন্দিরে৷ হামলা করা হয় মন্দির সংলগ্ন হিন্দুদের বাড়িতেও৷ দিল্লি এই হামলার তীব্র নিন্দা করে৷ সেই সঙ্গে ভারপ্রাপ্ত পাক কূটনীতিককে ডেকে পাঠানো হয়েছে৷

    পাশাপাশি পাকিস্তানের সুপ্রিম কোর্টের তরফেও প্রধান বিচারপতি গুলজার আহমেদের একটি বিবৃতি প্রকাশ করা হয়৷ যেখানে মন্দির ভাঙার ঘটনাকে প্রধান বিচারপতি ‘দুর্ভাগ্যজনক ঘটনা’ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন৷ আগামিকাল ৬ অগাস্ট আদালতে এই মামলার শুনানির দিন ধার্য করেন৷ শুনানির সময় পঞ্জাবের মুখ্যসচিব এবং আইজিকে উপস্থিত থাকার নির্দেশ দেন৷

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: