corona virus btn
corona virus btn
Loading

লকডাউনের নিয়ম ভেঙেছেন!‌ নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রী দোষ স্বীকার করে পদত্যাগ করলেন

লকডাউনের নিয়ম ভেঙেছেন!‌ নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রী দোষ স্বীকার করে পদত্যাগ করলেন

নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, তাঁর কাছে স্বাস্থ্যমন্ত্রী নিজে দোষ স্বীকার করেছেন।

  • Share this:

#‌ওয়েলিংটন:‌ কড়া লকডাউনের নিয়ম ভেঙেছিলেন নিউজিল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডেভিড ক্লার্ক। তাই নিয়ে প্রবল সমালোচনার মুখে পড়তে হয় তাঁকে। আর সেই কারণেই শেষ পর্যন্ত পদত্যাগ করলেন তিনি। প্রাথমিকভাবে করোনা সংক্রমণ রুখতে ব্যর্থতাকে কারণ হিসাবে তুলে ধরলেও পরে জানা যায় সে দেশে লকডাউন চলার সময়েই গাড়িতে নিজের পরিবার নিয়ে ২০ কিলোমিটার পথ গিয়েছিলেন তিনি। আর সেই কারণেই তাঁর পদত্যাগ।

কয়েকদিন আগেই নিউজিল্যান্ড করোনা মুক্ত দেশ হিসাবে নিজেকে ঘোষণা করে। কিন্তু তার কিছুদিনের মধ্যেই ফের সে দেশে করোনার সংক্রমণ ধরা পড়ে। বাইরে থেকে দেশে ফেরা বাসিন্দাদের মধ্যে ছড়ায় সংক্রমণ। তার মধ্যেই স্বাস্থ্যমন্ত্রীর লকডাউন ভাঙার খবর চাউর হয়ে যায়। ঘটনাটি এপ্রিল মাসে ঘটলেও পরে বিস্তারিত জানতে পারেন সাধারণ মানুষ। তারপর থেকেই সাধারণ মানুষের মধ্যে দাবি ওঠে, যে দেশে প্রশাসনের মাথা সরকারি নিয়ম মানছেন না, সে দেশ কী করে করোনা সংক্রমণ রুখবে?‌ আর তাতেই শেষ পর্যন্ত দোষ স্বীকার করে পদত্যাগ করেন ডেভিড ক্লার্ক।

নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, তাঁর কাছে স্বাস্থ্যমন্ত্রী নিজে দোষ স্বীকার করেছেন। দেশের মানুষের স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে নেতৃত্ব স্থানীয় মানুষদের প্রতি আস্থা থাকা একান্ত দরকার। সেটা এই ঘটনায় আহত হয়েছে। সেই কারণেই নিজের দোষ স্বীকার করে সরে গিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী। সামনের সেপ্টেম্বরেই নিউজিল্যান্ডে নির্বাচন হওয়ার কথা। তার আগে কোনওভাবেই বর্তমান সরকার তার ভাবমূর্তি খারাপ করতে চাইছে না। রাজনৈতিক মহল মনে করছে, কিছুটা সেই চাপেও সরে যেতে বাধ্য হয়েছেন ডেভিড ক্লার্ক।

Published by: Uddalak Bhattacharya
First published: July 2, 2020, 3:59 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर