• Home
  • »
  • News
  • »
  • international
  • »
  • শুক্রে প্রাণ আছে? বিজ্ঞানীদের নতুন আবিষ্কারে শোরগোল বিশ্বজুড়ে

শুক্রে প্রাণ আছে? বিজ্ঞানীদের নতুন আবিষ্কারে শোরগোল বিশ্বজুড়ে

শুক্রে প্রাণের সম্ভাবনা উস্কে দিল নতুন আবিষ্কার। ছবি-নাসা

শুক্রে প্রাণের সম্ভাবনা উস্কে দিল নতুন আবিষ্কার। ছবি-নাসা

সম্প্রতি হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জ এবং চিলির অ্যাটাকামা মরুভূমি থেকে শক্তিশালী টেলিস্কোপ ব্যবহার করে শুক্রের দিকে চোখ রাখা হয়েছিল। খতিয়ে দেখা হয় শুক্রের আপার ক্লউড ডেক।

  • Share this:

    এবার শুক্রেও প্রাণের সন্ধান! তেমনই ইঙ্গিত দিচ্ছেন বিজ্ঞানীরা সোমবারই এমন চাঞ্চল্যকর দাবি সামনে এসেছে। শুক্রে ফসফিন গ্যাসের সন্ধান পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা। আর তা থেকেই তাদের দাবি, পৃথিবীর সবচেয়ে কাছের গ্রহটিতে প্রাণ থাকার সম্ভাবনা রয়েছে।

    এমনিতে শুক্রের পরিবেশ সম্পর্কে চেনা মতটা সম্পূর্ণ উল্টো। বিজ্ঞানীরা বলেন, দিনের বেলায় শুক্রে তাপমাত্রা এত বেশি থাকে যে তা যে কোনো কঠিন পদার্থকে গলিয়ে দিতে পারে। আর এর দোসর হল কার্বন ডাই অক্সাইড। ফলে সব মিলে পরিবেশ থাকে প্রাণধারণের একেবারে প্রতিকূল।

    কিন্তু সম্প্রতি হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জ এবং চিলির অ্যাটাকামা মরুভূমি থেকে শক্তিশালী টেলিস্কোপ ব্যবহার করে শুক্রের দিকে চোখ রাখা হয়েছিল। খতিয়ে দেখা হয় শুক্রের আপার ক্লউড ডেক।

    সেখানেই দেখা যায়, শুক্রে মজুত রয়েছে ফসফিন। এই দাহ্য গ্যাস পৃথিবীতে জৈব জীবনের অনুকুল পরিস্থিতি তৈরি করে। তবে শুক্রের চারদিকে পুঞ্জীভূত হওয়া মেঘে অ্যাসিডের উপস্থিতি থাকায় তা ফসফিনকে ধ্বংস করতে থাকে, ফলে প্রাণ আছেই এমনটাও দাবি করতে পারছেন না বিজ্ঞানীরা।

    এই গবেষণার প্রধান মুখ,কার্ডিফ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্কুল অফ ফিজিক্স অ্যান্ড অ্যাস্ট্রোনমির গবেষক জানে গ্রেভিস বলছেন, ফসফরাসের উপস্থিতি মানেই প্রাণ রয়েছে এমন কথা বলা যায় না। হয়তো প্রাণের জন্য জরুরি অন্য অনেক পদার্থই নেই।

    তবে সুইনবার্ন বিশ্ববিদ্য়ালয়ের গবেষক অ্যালান ডাফি আবার উৎফুল্ল এই গবেষণা নিয়ে। তাঁর কথায়, "পৃথিবীর বাইরেও যে প্রাণ থাকতে পারে, তার সবচেয়ে আকর্ষণীয় প্রমাণ এবার পাওয়া গেল। আমাদের সবদিক গুলি খতিয়ে দেখার চেষ্টা করতে হবে।"

    Published by:Arka Deb
    First published: