বিদেশ

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

পৃথিবীতে টিঁকে থাকার যুদ্ধে হেরেছে অনেকেই, এবার একই কারণে বিপদে মানুষও, গবেষণায় প্রকাশ

পৃথিবীতে টিঁকে থাকার যুদ্ধে হেরেছে অনেকেই, এবার একই কারণে বিপদে মানুষও, গবেষণায় প্রকাশ

জীববিজ্ঞানীদের অনুমান, আধুনিক মানবজাতিকেও এই গবেষণা কোথাও যেন একটা অশনি সঙ্কেত দিচ্ছে।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: হোমা সেপিয়েন্স। আমাদের এই মানুষ প্রজাতির বিজ্ঞানসম্মত নাম। কিন্তু আমরা ছাড়াও এই গোত্রে বহু প্রজাতি রয়েছে। মানে, একদিন তারা ঘুরে-ফিরে বেড়াত পৃথিবীর বুকে। কিন্তু সভ্যতার ক্রমঅগ্রগতির পথ ধরে আর বিবর্তনের হাত ধরে বহু যুগ পেরিয়ে শুধু মানুষই টিঁকে রয়েছে। এই হোমো গোত্রের অন্যান্য সদস্যরা আজ বিলুপ্ত। কিন্তু কেন এই অবস্থা? সম্প্রতি এক গবেষণা অবশ্য তার ব্যাখ্যা দিয়েছে। সমীক্ষা বলছে অভিযোজন আর বিবর্তনে হোমা সেপিয়েন্স টিঁকে থাকতে পারলেও, বাকিরা পারেনি। তার অন্যতম কারণ হল জলবায়ুগত পরিবর্তন। কখনও খুব গরম, কখনও তীব্র শীত। প্রকৃতির এই খামখেয়ালিপনার সঙ্গে মানিয়ে নিতে পারেনি মানুষের অন্য প্রজাতির সদস্যরা।

১৫ অক্টোবর ওয়ান আর্থ জার্নালে এ নিয়ে একটি গবেষণাপত্র প্রকাশিত হয়। যেখানে গবেষকদের দল জানায়, বিলুপ্ত প্রজাতিগুলির জীবাশ্ম পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেও এই একই বিষয় উঠে এসেছে। দেখা গিয়েছে এক সময়ে পৃথিবীর বুকে যারা জীবনধারণ করত, জলবায়ুর সঙ্গে মানিয়ে নিতে না পেরে তারা ধীরে ধীরে হারিয়ে যায়। জলবায়ুগত পরিবর্তনের সঙ্গে কী ভাবে লড়াই করেছিল হোমো গোত্রের অন্য সদস্যরা, তা বিশদে গবেষণা করা হয়। বিগত পাঁচ মিলিয়ন বছর ধরে তাপমাত্রা, বৃষ্টিপাত, প্রাণীদের জীবাশ্ম এবং অন্যান্য তথ্য অধ্যয়ন করেন বিজ্ঞানীরা। দেখেন, হোমো প্রজাতির অর্থাৎ H হাবিলিস, H ইরগাস্টার, H ইরেক্টাস, H হাইডেলবার্জেনেসিস, H নিয়ান্ডারথ্যালসরা ধীরে ধীরে বিবর্তিত হয়েছে। কিন্ত শেষমেশ প্রকৃতির সঙ্গে মানিয়ে নিতে না পেরে, জলবায়ুর পরিবর্তন সহ্য করতে না পেরে হারিয়ে গিয়েছে।

এ বিষয়ে, ইতালির নাপোলি ফেদেরিকো বিশ্ববিদ্যালয়ের পাসকোয়েল রাইয়া জানিয়েছেন তাঁর অভিমত। বলেছেন যে পাথরে ঠোকা লাগিয়ে আগুন জ্বালানো আর পাথরের সরঞ্জামের ব্যবহারের যুগ থেকে বর্তমানের এই প্রযুক্তিনির্ভর যুগের যাত্রাপথ অনেকটাই দীর্ঘ। আর এই সুদীর্ঘ যাত্রাপথে বিবর্তন হতে হতে একে একে হারিয়ে গিয়েছে হোমোগোত্রের বাকি প্রজাতিরা। সাংস্কৃতিক, সামাজিক পরিবর্তনের সঙ্গে সঙ্গে জলবায়ুগত বৈচিত্র্য তাদের জীবনধারনের সংগ্রামকে দিন দিন আরও কঠিন করে দিয়েছে। প্রাচীন যুগ থেকে এই অভিযোজনকে মানিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করেছে তারা। ঠাণ্ডা লাগলে উষ্ণতার সন্ধানে অন্যত্র পাড়ি দিয়েছে। কিন্তু তাদের এই প্রচেষ্টা শেষমেশ সাফল্য পায়নি।

জীববিজ্ঞানীদের অনুমান, আধুনিক মানবজাতিকেও এই গবেষণা কোথাও যেন একটা অশনি সঙ্কেত দিচ্ছে। কারণ যদি জলবায়ুর পরিবর্তন অতীতে হোমোগোত্রের অন্য প্রজাতির বিলুপ্তির কারণ হতে পারে, তা হলে ক্রমবর্ধমান বিশ্ব উষ্ণায়ন, জলবায়ুর খামখেয়ালি পরিবর্তন এক সময়ে হোমা সেপিয়েন্স মানুষের বিলুপ্তির কারণও হতে পারে!

Published by: Dolon Chattopadhyay
First published: October 16, 2020, 7:44 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर