‘‘ অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতির হাতে বোর্ড, আশা করছি ভারতীয় ক্রিকেটের উন্নতি হবে ’’: অনুরাগ

নিজেদের খোঁড়া গর্তেই শেষ পর্যন্ত পড়তে হল বোর্ড প্রেসিডেন্ট অনুরাগ ঠাকুর এবং সচিব অজয় শিরকেকে।

Siddhartha Sarkar | News18 Bangla
Updated:Jan 02, 2017 07:44 PM IST
‘‘ অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতির হাতে বোর্ড, আশা করছি ভারতীয় ক্রিকেটের উন্নতি হবে ’’: অনুরাগ
Siddhartha Sarkar | News18 Bangla
Updated:Jan 02, 2017 07:44 PM IST

#নয়াদিল্লি :  বছরের শুরুটাই তেতো হয়ে গেল। নিজেদের খোঁড়া গর্তেই শেষ পর্যন্ত পড়তে হল বোর্ড প্রেসিডেন্ট অনুরাগ ঠাকুর এবং সচিব অজয় শিরকেকে। প্রধান বিচারপতির পদ থেকে অবসর নেওয়ার আগে ভারতীয় ক্রিকেট থেকে এই দুই গোঁয়ারকে উৎখাত করলেন তীর্থসিং ঠাকুর। গত দেড় বছর ধরে চলা টালবাহানার ইতি পড়ল সোমবার এক ঐতিহাসিক রায়ে।

লোধা সুপারিশ না মানার জেরে বোর্ড প্রেসিডেন্ট এবং সচিব পদ থেকে অপসারিত করা হয়েছে অনুরাগ ঠাকুর এবং অজয় শিরকেকে। আদালতে ভুল তথ্য দেওয়ার অভিযোগে শো-কজ নোটিস দেওয়াও হয়েছে অনুরাগের বিরুদ্ধে। শুধু প্রেসিডেন্ট-সচিব নন, সুপারিশ না মানলে পদ ছাড়তে হবে বোর্ড ও রাজ্য সংস্থার বাকি কর্তাদেরও।

রায় শোনার পর স্বভাবতই হতাশ অনুরাগ ঠাকুর ৷ তিনি বলেন, "বিশ্বের যে কোনও দেশের থেকে ভারতে ক্রিকেট পরিকাঠামো সবথেকে উন্নত।আমার কাছে এটা কোনও ব্যক্তিগত যুদ্ধ নয়। এটা দেশের ক্রীড়াজগতের যুদ্ধ। প্রত্যেক নাগরিকের মতো আমিও সর্বোচ্চ আদালতকে সম্মান করি। তাই ক্রিকেটের প্রতি সমান দায়বদ্ধতা থাকবে আমার। অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতির হাতে বোর্ড, আশা করছি ভারতীয় ক্রিকেটের উন্নতি হবে ৷ ’’

১৯ জানুয়ারি পর্যন্ত আপাতত বোর্ডের দায়িত্বে কোনও সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট। তাঁকে সাহায্য করবেন যুগ্মসচিব অনিরুদ্ধ চৌধুরি। এরমধ্যেই গোপাল সুব্রহ্মণ্যম এবং ফলি নরিম্যানের কমিটি ঠিক করে ফেলবেন লোধা সুপারিশের নতুন রূপরেখা। যা পেশ করা হবে নতুন প্রধান বিচারপতি জগদীশ সিং খেরের বেঞ্চে।

First published: 07:44:03 PM Jan 02, 2017
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर