• Home
  • »
  • News
  • »
  • entertainment
  • »
  • WRITER TASLIMA NASRIN SHARES HER EXPERIENCE OF MAKING POSTO BORA FOR THE FIRST TIME SWD

Taslima Nasrin: কিছুতেই ঘুম আসছে না তসলিমার? শেষপর্যন্ত কী ভাবে সমাধান খুঁজছেন লেখিকা, দেখুন

তসলিমা

চেষ্টা করেও নিজের মাথা বালিশ অবধি নিয়ে যেতে পারছেন না লেখিকা। নিজেই সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টের মাধ্যমে এই কথা জানিয়েছেন তিনি।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: কিছুতেই ঘুম আসছে না তসলিমা নাসরিনের। চেষ্টা করেও নিজের মাথা বালিশ অবধি নিয়ে যেতে পারছেন না লেখিকা। নিজেই সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টের মাধ্যমে এই কথা জানিয়েছেন তিনি। আর পাশাপাশি কীভাবে এই সমস্যা থেকে ছাড় পাওয়ার চেষ্টা করছেন তাও জানিয়েছেন তসলিমা। অনিদ্রা কাটানোর জন্য তিনি নাকি পোস্তর বড়ার দ্বারস্থ হয়েছেন। হ্যাঁ ঠিকই শুনছেন। পোস্তর বড়া খেয়েই ঘুমোনোর চেষ্টা করছেন।

    নিজে হাতে প্রথম বার পোস্তর বড়া রান্না করেছেন তসলিমা। তা নিয়ে একটি পোস্টও করেছেন। তিনি লিখছেন, "আজ তবে কী দুঃখে পোস্ত বড়া বানাতে গেলাম? একটাই দুঃখে, দু'তিনদিন ঘুম ভালো হচ্ছে না। হচ্ছে না না বলে আসলে বলা উচিত নিজেকে আমি ঘুমোতে দিচ্ছি না। জীবনের সময় ফুরিয়ে আসছে বলে বালিশেই মাথা রাখছি না। বালিশে আমার মাথা মানেই দেড় মিনিটের মধ্যে গভীর ঘুমে চলে যাওয়া।দেখি পোস্ত আমার মাথাকে টেনে বালিশে নিতে পারে কিনা।"

    কিন্তু কেন পোস্তর বড়া? সেই ফিরিস্তিও দিয়েছেন লেখিকা। তিনি বলছেন, "অপিয়ামের বীজ। ভাবলেই গা কেঁপে ওঠে। যে অপিয়াম থেকে মরফিন আর হেরোইনের মতো ভয়াবহ জিনিস বেরোয়, সে অপিয়ামের বীজ মুঠো মুঠো খেয়ে নেবো আর তাতে নেশা ফেশা কিছুই হবে না, শুধু একটু মাথা আর বালিশ হলেও হতে পারে, ভাবাই যায় না।"

    তবে সবার আগেই প্রথম বার পোস্তর বড়া বানিয়ে কেমন লেগেছে তাও জানিয়েছেন তসলিমা। তিনি লিখছেন, "পোস্ত আমাদের পূর্ব বঙ্গের খাবার নয়। তারপরও আমি মাঝে মাঝে ঝিঙে পোস্ত রান্না করি। আজ প্রথম করলাম পোস্ত বড়া। যেহেতু ছোটবেলা থেকে পোস্ত বড়া খেয়ে অভ্যস্ত নই, তাই আমার ঘটি বন্ধুদের মতো নাচানাচি করিনি। খেয়েছি, ব্যস। নতুন একটা রান্না শিখলে যে আনন্দ, সেই আনন্দটুকুই শুধু হলো।"

    Published by:Swaralipi Dasgupta
    First published: