বিনোদন

corona virus btn
corona virus btn
Loading

গলায় ভাঙা সুর ! এ কি দশা তাঁর ! লাকি আলির ভাইরাল ভিডিও দেখে চোখে জল নেটিজেনদের !

গলায় ভাঙা সুর ! এ কি দশা তাঁর ! লাকি আলির ভাইরাল ভিডিও দেখে চোখে জল নেটিজেনদের !

একটা সময় বলিউডের সিনেমায় তাঁর গান মানেই জনপ্রিয়তা ছিল তুঙ্গে। এভাবে কেন হারিয়ে গেলেন তিনি?

  • Share this:

#মুম্বই: লাকি আলি। সুরের জগতের এক উজ্জ্বল তারকা তিনি। লাকি আলির প্রথম অ্যালবাম ছিলো, 'সুনো'। এই অ্যালবামের জন্য শ্রেষ্ঠ পপ গায়ক পুরস্কার পান ১৯৯৬ সালে। এই সময় থেকে ২০০৩ সাল পর্যন্ত যুব সমাজ মেতে ছিল লাকি আলির পপ গানে। তারপর হঠাৎ পাঁচ বছরের জন্য গায়েব হয়ে যান তিনি। এর পর ২০০৯-তে আবার ফিরে এসেছিলেন নিজের নতুন গানের অ্যালবাম 'জুয়ি' নিয়ে। তারপর কোথায় গেলেন তিনি? সব কিছু অনায়াসে ছেড়ে দিয়ে নিজের গিটারকে সঙ্গে নিয়ে চলে গিয়েছিলেন নিউজিল্যান্ড। সেখানে চাষবাস আর মাঝে মধ্যে টুং টাং করেই দিন কাটাতে থাকেন। অনেক অনুরোধেও তাঁকে আর কোনও শো করতে বা মিউজিক অ্যালবাম বার করতে দেখা যায়নি। অথচ একটা সময় বলিউডের সিনেমায় তাঁর গান মানেই জনপ্রিয়তা ছিল তুঙ্গে। এভাবে কেন হারিয়ে গেলেন তিনি?

সম্প্রতি ট্যুইটারে একটি ভিডিও শেয়ার হয়েছে। সেখানে মাথায় সাদা টুপি, পরনে পাঠান পোশাক ও হাতে গিটার। তিনি গাইছেন তাঁর জনপ্রিয় গান, 'ও সনম'। তাল কেটে যাচ্ছে তাঁর। টানতে পারছেন না গলা। নিজেই হেসে ফেলছেন। বয়সের ভারে ক্লান্ত তিনি। নাকি অভাবে? এই ভিডিও দেখা মাত্রই সকলে শেয়ার করতে শুরু করেছেন। ট্যুইটারে মানুষ লাকি আলির জন্য চিন্তাও দেখিয়েছেন। তাঁর ফ্যানেরা আজও যে তাঁকে কতটা ভালোবাসে এই ট্যুইট ঝড় দেখলেই তা বোঝা যায়।

নিজের নাম, যশ, খ্যাতি সব কিছু একেবারে অবহেলায় ভাসিয়ে দিয়েছেন তিনি। বোধহয় শিল্পী মনের মানুষরা এমনটাই হয়। লাকি আলির আসল নাম মকসুদ। বিখ্যাত কমেডিয়ান মেহমুদের ছেলে তিনি। তবে ছোট থেকেই লাকি আলির পছন্দ ছিল গান। অভিনয় নয়। অভিনেতা মেহমুদ এত ব্যস্ত থাকতেন, পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাতে পারতেন না । তার উপর ছোট থেকেই ছেলে মকসুদের পড়াশোনা মুসৌরির বোর্ডিং স্কুলে। ফলে বাবা-ছেলের সম্পর্ক সে ভাবে গড়েই ওঠেনি। সে কথা পরে স্বীকার করেছেন দু’জনেই। অনেকেই জানেন না মেহমুদের আট জন সন্তানের মধ্যে দ্বিতীয় সন্তান, লাকি আলি।গানের আগেও লাকি আলির সিনেমায় আগমন অভিনয়ে। তাঁর প্রথম ছবি ১৯৬২ সালে, মেহমুদের পরিচালনায় ‘ছোটে নবাব’। সাত ও আটের দশকে ‘ইয়ে হ্যায় জিন্দগি’, ‘হমারে তুমহারে’ এবং ‘ত্রিকাল’-এর মতো কিছু ছবিতে দেখা গিয়েছে তাঁকে। শ্যাম বেনেগাল পরিচালিত টিভি সিরিজ ‘ভারত এক খোঁজ’-এও অভিনয় করেছেন লাকি। দীর্ঘদিন পর ২০০২ সালে তিনি অভিনয় করেন ‘কাঁটে’ এবং ‘সুর’ ছবিতে। ১৯৭৬ সালে মেহমুদের ছবি ‘এক বাপ ছয় বেটে’ ছবিতে প্রথম গান করেন লাকি।

কাজ করতে গিয়েই লাকির আলাপ মেগান জেন ম্যাক ক্লিয়ারি-র সঙ্গে। নিউজিল্যান্ডের এই মডেল লাকির মিউজিক ভিডিও ‘ও সনম’-এ অভিনয় করেছিলেন। ১৯৯৬ সালে বিয়ে করেন দু’জনে।  তাঁদের দু’জন সন্তান, তাওয়ুজ এবং তসমিনা। লাকি আলি তিনবার বিয়ে করেছেন সংবাদমাধ্যমের কাছেও লুকোননি তাঁর বহু সম্পর্ক। ২০০২ সালে লাকির দ্বিতীয় বিয়ে। এ বার তাঁর অর্ধাঙ্গিনী অনাহিতা। লাকিকে বিয়ে করবেন বলে এই পার্সি নারী ধর্মান্তরিত হন। তাঁর নতুন নাম হয় ইনায়া। লাকি-ইনায়ার দুই সন্তান, রাইয়ান এবং সারা। ২০০৯ সালে তৃতীয় বিয়ে প্রাক্তন মিস ইংল্যান্ড কেট এলিজাবেথ হ্যাল্লামকে। ধর্মান্তরিত কেটের নতুন নাম হয় আয়েষা। তাঁদের ছেলে ডানির জন্ম ২০১১-এ। ২০১৮ সালে বিচ্ছেদ হয়ে গিয়েছে দু’জনের।

এতগুলো সন্তান, প্রাক্তন স্ত্রী থাকা সত্ত্বেও একেবারেই একা লাকি আলি। ৬২ বছরের গায়কের জীবন কাটছে একেবারে একা। এই বয়সে গানও আর তাঁকে সঙ্গ দিচ্ছে না। নিজেই বুঝতে পারছেন সে কথা লাকি আলি। তাঁর এই করুণ ভিডিও সকলের চোখে জল এনেছে। এভাবেও হারিয়ে যাওয়া যায়। লাকি আলি কি সত্যিই স্বেচ্ছায় নির্বাসিত, নাকি তাঁর সঙ্গেও হয়েছে বলিউডি চক্রান্ত ! তবে অনেকেই মনে করেন নিজের খাম খেয়ালি জীবনই তাঁকে সব কিছু থেকে দূরে সরিয়ে নিয়ে গেছে।

Published by: Piya Banerjee
First published: November 14, 2020, 1:17 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर