corona virus btn
corona virus btn
Loading

টলিউডের দুঃস্থ শিল্পীদের পাশে আর্টিস্টস ফোরাম, সাহায্যের হাত বাড়ালেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়

টলিউডের দুঃস্থ শিল্পীদের পাশে আর্টিস্টস ফোরাম, সাহায্যের হাত বাড়ালেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়

সাহায্যের হাত বাড়ালেন সৌরভ

  • Share this:

#কলকাতা: প্যাক আপ হয়েছে সেই কবে। অনেকেরই আশা ছিল প্রথম লকডাউন শেষে আবার গমগম করবে স্টুডিও পাড়া । কিন্তু কোথায় কী ! লাইট,সাউন্ড নেই , নেই ক্যামেরা। নো অ্যাকশন মোড  টলিপাড়ায়। কিছুদিন আগেই টেকনিশিয়ানদের অর্থ সাহায্য তুলে দেওয়া হয়েছে ফেডারেশনের পক্ষ থেকে। কিন্তু আর্টিস্টদের কি হবে ? সেই ভাবনা থেকেই লকডাউন ঘোষণার পরেই শিল্পীদের পাশে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নেয়  আর্টিস্ট ফোরাম।

শিল্পী মানেই যে শুধুমাত্র গ্ল্যামার, ফ্ল্যাশ বাল্বের ঝলসানি, অটোগ্রাফ শিকারিদের ভিড়, এমনটা নয়। শিল্পী মানেই  তারকাদের জীবন নয়। চেনা পরিচিত শিল্পীদের বাইরে এমন অনেকেই আছেন যাঁরা শুধুমাত্র অভিনয়ের নেশায় সামান্য কিছু টাকাতে  এই পেশায় পড়ে আছেন বছরের পর বছর। বিশেষত যাঁরা বিভিন্ন ছবি, সিরিয়াল, ওয়েব সিরিজে ছোটখাটো চরিত্রে নামমাত্র পারিশ্রমিকে অভিনয় করেন... তাঁদের তেমন কোনও আর্থিক সঞ্চয়ও নেই। তাঁরা এই মুহূর্তে চরম দারিদ্রের সঙ্গে লড়াই করছেন। সেইসব দুঃস্থ শিল্পীদের সাহায্যেই ওয়েস্টবেঙ্গল মোশন পিকচার আর্টিস্টস ফোরামের তরফে প্রাথমিক ভাবে ৫ লক্ষ টাকা দিয়ে একটি মানবিক তহবিল গঠন করা হয়েছিল। যেখানে এখনও পর্যন্ত ১৮ লক্ষ ৩৭ হাজার ১০৯ টাকা জমা পড়েছে। আর্টিস্টস ফোরামের এই উদ্যোগে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট ও প্রাক্তন ভারতীয় অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। অন্য পেশার সঙ্গে যুক্ত থেকেও এভাবে পাশে দাঁড়ানোয় কৃতজ্ঞতা জানাতে ভোলেনি আর্টিস্টস ফোরাম। শুধু তাই নয় সাহায্যের হাত বাড়িয়েছেন টেলিভিশন ও চলচ্চিত্র জগতের বিশিষ্ট ব্যক্তি সহ বিভিন্ন প্রযোজক , জিইসি চ্যানেল ও সমাজের সর্বস্তরের বেশ কিছু মানুষ।

আর্টিস্টস ফোরাম থেকে জানানো হয়েছে ' আমরা আপাতত এপ্রিল মে, জুন , ২০২০ এই তিন মাস দুঃস্থ শিল্পীদের জনপ্রতি মাসিক ২০০০ টাকা করে সাহায্য করার সংকল্প নিয়েছি। এই বিষয়ে সদস্যদের আবেদন করতে বলায় এখনও পর্যন্ত ৫১২ জন আবেদন করেছেন এবং প্রতিদিনই নতুন নতুন আবেদন আসছে।' এর মধ্যে ২০ এপ্রিল পর্যন্ত ৪০০  জনের অ্যাকাউন্টে ২০০০ টাকা করে জমা পড়েছে। ইতিমধ্যেই দুঃস্থ কলাকুশলীদের সাহায্যে ফেডারেশনকে ৩ লক্ষ টাকা  ও ১ লক্ষ টাকা থিয়েটারের দুঃস্থ নেপথ্য কর্মীদের জন্য দেওয়া হয়েছে। শুটিং কবে শুরু হবে তা জানা নেই কারও, শুরু হওয়ার পরও সবাই কাজ পাবেন কি না, তা নিয়েও রয়েছে প্রশ্ন চিহ্ন। কমপক্ষে ৪০ থেকে ৫০ লক্ষ টাকা তহবিলে জমা না পড়লে সমস্যা আরও বাড়বে। তাই প্রাথমিকভাবে সামাল দেওয়া হলেও কতদিন দুঃস্থ শিল্পীদের পাশে এভাবে  দাঁড়াতে পারবে আর্টিস্টস ফোরাম সেই প্রশ্নের উত্তর খুঁজছে টলিপাড়া। যদিও কোভিড ১৯ এর বিরুদ্ধে লড়াই জেতার ব্যাপারে আশাবাদী ওয়েস্টবেঙ্গল মোশন পিকচার আর্টিস্টস ফোরাম। তাদের কথায় ' আমরা জিতবই। শুধু সময়ের অপেক্ষা'।

DEBAPRIYA DUTTA MAJUMDAR

Published by: Rukmini Mazumder
First published: April 20, 2020, 8:03 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर