বিয়ে করতে হবু স্বামীকে নিয়ে তুরস্কে রওনা দিলেন নুসরত, দেখুন এক্সক্লুসিভ ছবি

Amrit Halder | News18 Bangla
Updated:Jun 16, 2019 10:21 AM IST
বিয়ে করতে হবু স্বামীকে নিয়ে তুরস্কে রওনা দিলেন নুসরত, দেখুন এক্সক্লুসিভ ছবি
কলকাতা বিমানবন্দরে নুসরত জাহান। ছবি-সৌরভ সাহা।
Amrit Halder | News18 Bangla
Updated:Jun 16, 2019 10:21 AM IST

#কলকাতা: হাতে মাত্র আর তিনদিন। আর তিনদিনের মাথায় বিয়ে সারতে চলেছেন টলিউডের ডাকসাইটে নায়িকা তথা সদ্য নির্বাচিত সাংসদ নুসরত জাহান। বস্ত্র ব্যবসায়ী নিখিল জৈনের সঙ্গে আগামী ১৯জন সাত পাকে বাঁধা পড়তে চলেছেন নুসরত। টলিউডে এখন বিয়ের মরসুম। গত এপ্রিলে বিয়ে সেরেছিলেন আরেক টলি নায়িকা শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়। এ বার নুসরতের পালা। তবে এ দেশে নয়, বিয়ের জন্য বিদেশের মাটিকেই বেছে নিয়েছেন নুসরত। আসলে ডেস্টিনেশন ওয়েডিং এখন ট্রেন্ড ইন। ভোটের কারণে বিয়ের জোগাড়ের দিকটা নজর করেননি এক্কেবারেই। তবে ভোট মিটতেই ড্রিম ওয়েডিং য়ের পারফেক্ট প্ল্যানটাকলকাতা হাতে মাত্র আর তিনদিন। আর তিনদিনের মাথায় বিয়ে সারতে চলেছেন টলিউডের ডাকসাইটে নায়িকা তথা সদ্য নির্বাচিত সাংসদ নুসরত জাহান।

বস্ত্র ব্যবসায়ী নিখিল জৈনের সঙ্গে আগামী ১৯জন সাত পাকে বাঁধা পড়তে চলেছেন নুসরত। টলিউডে এখন বিয়ের মরসুম। গত এপ্রিলে বিয়ে সেরেছিলেন আরেক টলি নায়িকা শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়। এ বার নুসরতের পালা। তবে এ দেশে নয়, বিয়ের জন্য বিদেশের মাটিকেই বেছে নিয়েছেন নুসরত। আসলে ডেস্টিনেশন ওয়েডিং এখন ট্রেন্ড ইন।

IMG_1982111

ভোটের কারণে বিয়ের জোগাড়ের দিকটা নজর করেননি এক্কেবারেই। তবে ভোট মিটতেই ড্রিম ওয়েডিং য়ের পারফেক্ট প্ল্যানটা ছঁকে ফেলেছিলেন নুসরত ও তাঁর হবু বর নিখিল। আর সেই মতোই এগলো সব কিছু। দেখতে দেখতে সময়টা চলেই এল। তুরস্কে উদ্দেশে আজ শনিবার রাত ১২টা নাগাদ কলকাতা বিমানবন্দর থেকে বিমান ধরলেন নুসরত। আর সেই মেহূর্তের ছবিই ধরা পড়ল নিউজ এইটিন বাংলা ডট কমের ক্যামেরায়।

IMG_19751111

বিয়ে করতে উড়ে যাচ্ছেন নায়িকা। ছঁকে ফেলেছিলেন নুসরত ও তাঁর হবু বর নিখিল। আর সেই মতোই এগলো সব কিছু। দেখতে দেখতে সময়টা চলেই এল। তুরস্কে উদ্দেশে আজ শনিবার রাত ১২টা নাগাদ কলকাতা বিমানবন্দর থেকে বিমান ধরলেন নুসরত। আর সেই মেহূর্তের ছবিই ধরা পড়ল নিউজ এইটিন বাংলা ডট কমের ক্যামেরায়। নুসরত নিজেও সেই মুহূর্তেরখবর পোস্ট করেছেন নিজের ট্যুইটার হ্যান্ডেলে।

ছবি-সৌরভ সাহা।

First published: 01:13:42 AM Jun 16, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर