Sujoy Prosad Chatterjee : ‘ তা হলে দেখবেন না!’ ফেসবুকে সমালোচক নেটিজেনকে চটজলদি জবাব শিল্পীর

সুজয়প্রসাদ চট্টোপাধ্যায় , ছবি-ফেসবুক

তিনি কমেন্ট বক্সে লেখেন, ‘এই পরিবেশ পরিস্থিতিতে এই ছবি পোস্টগুলো আর ভাল লাগছে না ’৷ সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে যোগ্য উত্তরও দেন শিল্পী ৷ তিনি লেখেন, ‘তা হলে দেখবেন না’৷

  • Share this:
    কলকাতা : সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজের নতুন ছবি দিয়ে ট্রোলড সুজয়প্রসাদ চট্টোপাধ্যায় ৷ ফেসবুকে তাঁর ডিপি বা ডিসপ্লে পিকচার পাল্টানোর সঙ্গে সঙ্গে ভেসে আসে অসংখ্য মন্তব্য ৷ বেশিরভাগ নেটিজেনই শুভেচ্ছা জানান অভিনেতাকে৷ কিন্তু তার মাঝেই সুর কাটল জনৈক ফেসবুক ব্যবহারকারীর মন্তব্যে ৷ তিনি কমেন্ট বক্সে লেখেন, ‘এই পরিবেশ পরিস্থিতিতে এই ছবি পোস্টগুলো আর ভাল লাগছে না ’৷ সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে যোগ্য উত্তরও দেন শিল্পী ৷ তিনি লেখেন, ‘তা হলে দেখবেন না’৷ তাঁর এই চটজলদি উত্তর পছন্দ হয় নেটিজেনদের ৷ তাঁরা বাহবা জানান শিল্পীকে ৷ সুজয়প্রসাদের ছবি যাঁর অপছন্দ হয়েছিল, অনেকেই প্রশ্ন করেন তাঁকে৷ জানতে চান, তা হলে এই পরিস্থিতিতে কী ধরনের ছবি দেখতে ভাল লাগবে ? এক জন মন্তব্য করেন, এই পরিস্থিতিতে সারা ক্ষণ আইসিইউ শয্যায় রোগী, দাহ করার ছবি দেখতে দেখতে আর ভাল লাগছে না ৷ তাই মনকে অন্যদিকে নিয়ে যাওয়ার জন্য কেউ যদি নিজের ছবি পরিবর্তন করেন, তাতে সমস্যা কোথায়? এই ধূসর অতিমারিতে পজিটিভ, উজ্জ্বল বার্তা দেওয়ার জন্য প্রায় সকলেই ধন্যবাদ জানান শিল্পীকে ৷ তবে সোশ্যাল মিডিয়ার সাম্প্রতিক ধারা ধরা পড়েছে এখানেও ৷ চেনাপরিচিতের মধ্যে কেউ, বিশেষ করে খ্যাতনামী তারকারা নিজেদের ছবি দিলেই মন্তব্যের জায়গায় চলে আসছে ‘কাকলি ফার্নিচার’ অবধারিতভাবে৷ সুজয়প্রসাদের ছবির নীচেও চোখে পড়েছে সেই ধরনের মন্তব্য ৷

    এটাই শিল্পীর নতুন ফেসবুক ডিপি

    তবে সব বক্রোক্তি ছাপিয়ে তাঁকে মন্দ কথায় কান না দিতে অনুরোধ করেছেন শুভার্থীরা ৷ বলেছেন, সুজয়প্রসাদের ছবি, কথা, লেখা, গান দমবন্ধ পরিস্থিতি থেকে মুক্তি এনে দেয়৷ তাই তিনি যেন প্রতিদিনই নানা ছবি ও কথা শেয়ার করেন ৷

    ছবি-ফেসবুক

    বর্ণময় এই শিল্পী সোশ্যাল মিডিয়ায় খুবই সক্রিয় ৷ সামাজিক বিভিন্ন বিষয়ে সরব হয়েছেন তিনি ৷ অতিমারিতে বলেছেন বিভিন্ন প্রাসঙ্গিক প্রশ্নে ৷ দিন কয়েক আগে তিনি নিজের প্রোফাইলে আবেদন করেন সকল সংবাদকর্মীর কাছে৷ বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমের কর্মীদের কাছে শিল্পীর আবেদন, তাঁরা যেন যত দ্রুত সম্ভব কোভিড টিকা গ্রহণ করেন ৷ তাঁর এই আবেদন প্রশংসিত হয় নেটিজেন দরবারে ৷
    Published by:Arpita Roy Chowdhury
    First published: