• Home
  • »
  • News
  • »
  • entertainment
  • »
  • ২০০০ সালে রাকেশ রোশনকে হত্যার প্রচেষ্টায় অভিযুক্ত শার্পশ্যুটার গ্রেফতার

২০০০ সালে রাকেশ রোশনকে হত্যার প্রচেষ্টায় অভিযুক্ত শার্পশ্যুটার গ্রেফতার

প্যারোলের পরে ফের আত্মসমর্পণ না করায় গ্রেফতার করা হয়েছে অভিযুক্তকে

প্যারোলের পরে ফের আত্মসমর্পণ না করায় গ্রেফতার করা হয়েছে অভিযুক্তকে

প্যারোলের পরে ফের আত্মসমর্পণ না করায় গ্রেফতার করা হয়েছে অভিযুক্তকে

  • Share this:

    #মুম্বই: বলিউডের সুপারহিট পরিচালক তথা হৃতিক রোশনের বাবা রাকেশ রোশনের উপরে ২০০০ সালে হওয়া হামলায় অভিযুক্তকে ফের গ্রেফতার করেছে পুলিশ ৷ অভিযুক্তকে ২৮ দিনের প্যারোলে জেল থেকে মুক্তি দিলেও নির্দিষ্ট সময়ে জেলে না ফিরলে তিনমাস পরে তাঁকে গ্রেফতার করা হয়েছে ৷ এক বিশিষ্ট আধিকারিক শনিবার জানিয়েছেন, ৫২ বছর বয়সী সুনীল বি গায়কোয়াড়কে শুক্রবার ফের গ্রেফতার করেছে পুলিশ ৷ কেন্দ্রীয় অপরাধ দমন শাখার দায়িত্ব প্রাপ্ত আধিকারিক অনিল হোনরাও জানিয়েছেন গায়কোয়াড় পারসিক সার্কেল এলাকায় গোপনে বসবাস করছিলেন ৷

    খবর পেয়েই পুলিশ গোপনে জাল বিছিয়ে ছিল ৷ সেই জালে ধরা দিয়েছে অপরাধী ৷ জানা গিয়েছে, অভিযুক্তের বিরুদ্ধে ১১টি হত্যার মামলা ও ৭টি আত্মহত্যার প্রচেষ্টার মামলা আছে এখনও পর্যন্ত ৷ তারই মধ্যে অন্যতম মামলা ২০০০ সালে পরিচালক রাকেশ রোশনকে হত্যার চেষ্টা করা হয়েছিল ৷ ২০০০ সালে রাকেশ রোশনকে মুম্বইয়ের সান্তাক্রুজ অফিসের বাইরে হামলাকারী ৬টি গুলি করেছিল যার মধ্যে ২টি গুলি রাকেশ রোশনের লেগেছিল ৷

    পুলিশ সূত্রে জানতে পাওয়া গিয়েছে আত্মহত্যার প্রচেষ্টার জন্য আজীবন কারাদণ্ডের নির্দেশ দিয়েছিল আদালত ৷ এরপরে নাসিকের কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারে রাখা হয়েছিল তাঁকে ৷ ২৮ দিন প্যারোলে এই বছর বাইরে বেরিয়েছিলেন ৷ কিন্তু জেলে না ফেরায় গতকাল ফের গ্রেফতার করা হয়েছে সুনীল বি গায়কোয়াড়কে ৷

    প্যারোলের সময়সীমা শেষ হতেও ফেরেনি, এতদিন ফেরার ছিল ৷ এক আধিকারিক জানিয়েছেন অভিযুক্ত ১৯৯৯ থেকে ২০০০ সাল পর্যন্ত সক্রিয় ছিল এবং বেশ কয়েকটি অপরাধমূলক কাজ করেছিল ৷ এরপরে আলি বুদেশ ও সুভাষ সিং ঠাকুরের অপরাধ মূলক দলে নাম লেখায় এরপরে নাসিকে হওয়া এক ডাকাতিতে সক্রিয় ভাবে যোগ পাওয়া যায় ৷ পুলিশের উপরে হামলা করেও গুলি চালায় ৷ পুলিশের এক আধিকারিক জানিয়েছেন গায়কোয়াড়কে পন্থনগর পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে ৷ সেখানেই ফেরার হওয়ার মামলাও রুজু করা হয়েছে ৷

    Published by:Arjun Neogi
    First published: