বিনোদন

corona virus btn
corona virus btn
Loading

'মাল হ্যায় কেয়া?', দেখে নিন ড্রাগ চ্যাটে ঠিক কি কি লিখেছিলেন দীপিকা ! বাড়িতেই মাদক-পার্টি করেছিলেন তিনি

'মাল হ্যায় কেয়া?', দেখে নিন ড্রাগ চ্যাটে ঠিক কি কি লিখেছিলেন দীপিকা ! বাড়িতেই মাদক-পার্টি করেছিলেন তিনি
photo source collected

প্যানিক অ্যাটাক হচ্ছে অভিনেত্রীর।

  • Share this:

#মুম্বই: বলিউডের এখন টালমাটাল অবস্থা। সুশান্ত সিং রাজপুতের আত্মহত্যার পর থেকে পুরো বলি পাড়ার চিত্রটাই বদলে গিয়েছে। সুশান্তের মৃত্যু রহস্যের তদন্ত সিবিআই শুরু করার পর থেকেই ঘটে চলেছে নানা ঘটনা। বলিউডের মাদকচক্র ও বলি স্টারদের মাদক-যোগের কথা সামনে চলে আসতে থাকে। এবার সেই সূত্র ধরেই দীপিকা পাড়ুকোনকে তলব করেছে এনসিবি। মাদকের সঙ্গে দীপিকার যোগ খতিয়ে দেখতেই দীর্ঘ প্রশ্ন করা হবে অভিনেত্রীকে। শনিবার এনসিবির মুখোমুখি হবেন দীপিকা।

দীপিকার একটি হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট ঘিরেই সন্দেহ দানা বাঁধে। তিনি মাদকচক্রের সঙ্গে যোগাযোগ রাখতেন, এমনটাই উঠে আসছে ওই চ্যাটে। দীপিকা এই চ্যাট ফাঁস হওয়ার জন্য নিজের ম্যানেজার করিশ্মাকে দোষারোপ করেছেন। এনসিবি তদন্তে উঠে এসেছে যে হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে মাদক নিয়ে কথা হত, সেই গ্রুপটি ২০১৭ সালে খোলা হয়েছিল। এই গ্রুপে করিশ্মা, দীপিকা ছাড়াও আরও বেশ কয়েকজন ছিলেন। এই গ্রুপের অ্যাডমিন ছিলেন দীপিকা পাড়ুকোন। তিনিই হোয়াটসঅ্যাপে এই গ্রুপটি তৈরি করেছিলেন। এই তথ্য সামনে আসতেই ফের চাঞ্চল্য তৈরি হয়।

তবে এর মাঝেই সামনে এসে গেল দীপিকা ও সেই ড্রাগ গ্রুপের কথোপকথোন। যে হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটটি পাওয়া গিয়েছে তার বিস্তারিত দেওয়া হল।

(২০১৭ সালের ২৮ অক্টোবর, বিকেল ৪টে ৩৬ মিনিটে ) করিশ্মা: সিওর আমি কথা বলে নেব।

করিশ্মা: দীপিকার ছবি পাঠালে কেন?

(এরপর ফের ২৮ অক্টোবর ২০১৭ সন্ধে ৭টা ৪৪)

দীপিকা: তোমরা দুজন কি প্রি ড্রিঙ্ক পার্টিতে আসছ?

জয়া: আরে দারুণ আমি রাত ১১টার সময় আসছি। অফিসের একটা পার্টি চলছে এটা শেষ করেই আসছি। কি সোশ্যাল জীবন আমাদের !

দীপিকা: ইয়াআআ ! কুল ! আমি খুশি হলাম তোমার আসার খবরে। জয়া: আজ আমি নতুন হেয়ার স্টাইল করেছি।

(ওই দিনই রাত দশটায় করিশ্মাকে দীপিকার হোয়াটসঅ্যাপ)

দীপিকা: তোমার কাছে মাল আছে ?

করিশ্মা: মাল তো আছে। কিন্তু বান্দ্রার বাড়িতে আছে।

করিশ্মা: তোমার মাল দরকার হলে আমি অমিতকে বলে দিতে পারি ?

দীপিকা: হ্যাঁ, প্লিজজজজজ।

করিশ্মা: অমিতের কাছে আছে ও আনছে।

দীপিকা: চরস তো? গাঁজা নয়তো?

করিশ্মা: হ্যাঁ চরস।

(ওই দিন রাত দশটা ১২তে)

করিশ্মা: হ্যাঁ হ্যাশ, তুমি কখন আসছো?

দীপিকা: সাড়ে ১১ থেকে ১২টার মধ্যে। শাল কতক্ষণ ওখানে থাকবে ?

(দীপিকার ২৯ তারিখের চ্যাট)

দীপিকা: আমি এই বুধবার ঘরে একটা প্ল্যান করছি।

দীপিকা: শুধু ইয়ংস্টার

জয়া শাহ: আরে দারুণ। আমি একটা ডিনার পার্টি ছিল ওটা ক্যানসেল করে চলে আসব। নতুন হেয়ারকাটে পার্টি করবো। আগের সপ্তাহে দুদিন রাত ৩টে পর্যন্ত পার্টি করেছি।

দীপিকা: আচ্ছা আমাকে ভাবতে দাও কতজন আসবে ! কিন্তু বুধবার রাতেই পার্টি করবো।

তবে শুধু দীপিকা নয় এর সঙ্গে জড়িয়ে থাকতে পারেন আরও অনেকে। দীপিকা পাড়ুকোনের বাড়ির সামনে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে বলেও জানা গিয়েছে। প্যানিক অ্যাটাক হচ্ছে অভিনেত্রীর। স্বামী রণবীর সিং এনসিবির জেরার সময় দীপিকার সঙ্গে থাকতে চেয়ে আবেদনও করেছেন। যদিও সে ব্যাপারে এনসিবি সিলমোহর দেয়নি। আগামিকাল দীর্ঘ জেরার মুখোমুখি হতে হবে দীপিকাকে।

Published by: Piya Banerjee
First published: September 26, 2020, 12:21 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर