• Home
  • »
  • News
  • »
  • entertainment
  • »
  • PORI MONI SAID THAT SHW WAS IN A RELATIONSHIP WITH A POLICE OFFICER WHO HAS BEEN TRANSFERED SWD

Pori Moni: তদন্ত করতে গিয়ে পরী মনির সঙ্গে গোয়েন্দা পুলিশ কর্তার প্রেম! জিজ্ঞাসাবাদেই উঠে এল চাঞ্চল্যকর তথ্য

একটি তদন্ত চলাকালীনই অভিনেত্রীর সঙ্গে আলাপ হয়েছিল এই পুলিশ কর্তার। আর তার পরেই নিয়মিত কথা বলতে বলতে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

একটি তদন্ত চলাকালীনই অভিনেত্রীর সঙ্গে আলাপ হয়েছিল এই পুলিশ কর্তার। আর তার পরেই নিয়মিত কথা বলতে বলতে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

  • Share this:

    #ঢাকা: মাদক যোগের অভিযোগে আটক হয়েছেন বাংলাদেশের অভিনেত্রী পরী মনি (Pori Moni)। দফায় দফায় জিজ্ঞাসাবাদ চলছে তাঁকে। আর সেখান থেকেই এবার উঠে এল আরও এক চাঞ্চল্যকর তথ্য। নাম জড়ালো এক গোয়েন্দা পুলিশের কর্মকর্তার। একটি তদন্ত চলাকালীনই অভিনেত্রীর সঙ্গে আলাপ হয়েছিল এই পুলিশ কর্তার। আর তার পরেই নিয়মিত কথা বলতে বলতে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

    গত ১৩ জুন পরী মণি অভিযোগ করেন, তাঁকে ঢাকা বোট ক্লাবে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে গ্রেফতার করা হয় ব্যবসায়ী নাসির ইউ মাহমুদকে। এই ঘটনার তদন্তের সূত্রেই গোয়েন্দা পুলিশ কর্তা গোলাম সাকলায়েন-এর সঙ্গে পরিচয় হয় পরী মণির। তার পর থেকেই নিয়মিত কথা বার্তা শুরু হয় দুজনের মধ্যে। একস‌ঙ্গে গাড়ি নিয়ে ঘুরতেও বেরোতেন তাঁরা। পরী মণির বাড়িতে যাতায়াত ছিল সেই পুলিশ কর্তার। আটক হয়ে এই সমস্ত তথ্য পরী মণি নিজেই জানিয়েছেন। বাংলাদেশের এক সংবাদমাধ্যম থেকে এমনই জানা যাচ্ছে।

    পুলিশ কর্তা গোলাম সাকলায়েন বিবাহিত হলেও, নিজেকে অবিবাহিত বলেই পরিচয় দেন পরী মনির কাছে। সিসিটিভি ফুটেজ থেকেও জানা গিয়েছে, গত ১ অগাস্ট পুলিশ কর্তা বাড়িতে গিয়েছিলেন অভিনেত্রী। প্রথমে পরীমনিকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে সেখান থেকেই গোলাম সাকলায়েনের কথা জানা যায়। এর পরে তাঁর কথার সত্যতা যাচাই করতে গোলামের বাড়ির সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায় যে পরীমনি ১ অগাস্ট গোলামের বাড়ি গিয়েছিলেন। এমনকি গোলাম লিফ‌ট থেকে বেরিয়ে এসে তাঁকে রিসিভও করেন।

    তবে ওই পুলিশ কর্তা নাকি এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। প্রেম ও বিয়ের কথাও তিনি অস্বীকার করেছেন। তবে সিসিটিভি সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি কিছু বলতে পারেননি। ইতিমধ্যেই তাঁকে DMP-র পাবলিক অর্ডার ম্যানেজমেন্ট বিভাগে বদলি করা হয়।

    Published by:Swaralipi Dasgupta
    First published: