Nia Sharma:মেয়েদের চুমু খেয়ে মন ভরে না, জীবনের অভিজ্ঞতা নিয়ে ফের বিস্ফোরক নিয়া শর্মা!

Nia Sharma:মেয়েদের চুমু খেয়ে মন ভরে না, জীবনের অভিজ্ঞতা নিয়ে ফের বিস্ফোরক নিয়া শর্মা!

মেয়েদের চুম্বন করে মন ভরে না, জীবনের অভিজ্ঞতা নিয়ে ফের বিস্ফোরক নিয়া শর্মা!

শট দেওয়ার মধ্যেই তিনি বুঝতে পেরেছিলেন যে অন্তত তাঁর ক্ষেত্রে পুরুষদের চুম্বন করার অভিজ্ঞতাটাই অনেক বেশি মধুর!

  • Share this:

#মুম্বই: যৌনতা সব সময়ে ধরাবাঁধা গতে চলে না। আমাদের সমাজে এমন অনেকেই আছেন যাঁরা বিপরীত লিঙ্গের পাশাপাশি সমলিঙ্গের সঙ্গেও শারীরিক অন্তরঙ্গতা বেশ উপভোগ করে থাকেন। কিন্তু ছোটপর্দার লাস্যময়ী নায়িকা নিয়া শর্মার (Nia Sharma) ক্ষেত্রে ব্যাপারটা একটু অন্য! এই যে তিনি মেয়েদের চুম্বন করার অভিজ্ঞতা নিয়ে সম্প্রতি মুখ খুলেছেন YouTuber সিদ্ধার্থ কাননের (Siddharth Kannan) কাছে, তার সঙ্গে কিন্তু ব্যক্তিগত জীবন নয়, বরং জড়িয়ে রয়েছে পেশাদার জীবন!

এক হাজারোঁ মে মেরি বহেনা হ্যায় (Ek Hazaaron Mein Meri Behna Hai) ধারাবাহিকে সুশীল, সুন্দর এবং সংস্কারী গৃহবধূর চরিত্রে দর্শকদের মন জয় করে নিয়েছিলেন যে অভিনেত্রী, সেই তিনিই ২০১৭ সালে ওটিটি প্ল্যাটফর্মে দেখা দিয়েছিলেন একেবারে বিপরীত ভূমিকায়। সেই সময়ে শুরু হয়েছিল তুমুল চর্চিত এবং একই সঙ্গে বিতর্কিত ওয়েব সিরিজ ট্যুইস্টেড (Twisted)। যার মূল সম্পদ ছিল যৌনতা এবং থ্রিলার। এখানেই নিয়াকে দেখা গিয়েছিল যৌনকর্মী আলিয়া মুখোপাধ্যায় এবং সুপারমডেল সীমা খান্নার দ্বৈতচরিত্রে। এই সিরিজেই সহ-অভিনেত্রী ইশা শর্মাকে (Isha Sharma) ঠোঁটঠাসা চুম্বন করে বিতর্কের কাঠগড়ায় এসে দাঁড়িয়েছিলেন নিয়া।

আমি এমন একটা সময়ে ওয়েব সিরিজে অভিনয় করতে আসি, যখন এর যাত্রা ভারতীয় বিনোদনজগতে সবে শুরু হয়েছে। প্রাপ্তমনস্ক এই সিরিজে কাজ হাতে নিয়েছিলামও এই কারণেই- আমার আগের অভিজ্ঞতার তুলনায় এটা একেবারে আলাদা আর চ্যালেঞ্জিং ছিল। কিন্তু দেখলাম যে আমার অভিনয়ের চেয়েও অনেক বেশি জলঘোলা হচ্ছে একজন নারীর অন্যকে চুম্বন করার মতো বিষয় নিয়ে। যদিও আমার বাড়ি থেকে এই নিয়ে কিছু শুনতে হয়নি, মা একটুও বকেননি; সিদ্ধার্থকে জানিয়েছেন নিয়া।

আর তার পরেই সিদ্ধার্থ একটা বিতর্কিত মুহূর্তে মুখ খোলার সুযোগ করে দিয়েছেন অন্তরঙ্গ মহলে ঠোঁটকাটা বলে পরিচিত নিয়াকে। জানতে চেয়েছেন যে ইশাকে চুম্বন করে নিয়ার কেমন লেগেছিল! নায়িকা কিন্তু উত্তর দিতে গিয়ে একটুও অপ্রস্তুত বোধ করেননি। বরং, বেশ সুন্দর ভাবে মানসিক দিক থেকে বিশ্লেষণ করেছেন ব্যাপারটা! বলেছেন যে ইশাকে চুম্বন করতে গিয়ে তাঁর খুবই অস্বস্তি হয়েছিল! এবং চুম্বন করার সময়ে, শট দেওয়ার মধ্যেই তিনি বুঝতে পেরেছিলেন যে অন্তত তাঁর ক্ষেত্রে পুরুষদের চুম্বন করার অভিজ্ঞতাটাই অনেক বেশি মধুর!

যদি ভাবেন যে পুরুষদের চুম্বন করা নিয়ে মুখে কুলুপ এঁটেছেন নিয়া, তাহলে ভুল করছেন! ছোটপর্দায় তাঁর সহ-অভিনেতাদের প্রসঙ্গে মন্তব্য করতে গিয়ে তিনি জানিয়েছেন খোলাখুলি- রবি দুবের (Ravi Dubey) চেয়ে ভালো চুম্বন আর কেউ করতেই পারেন না! এই ব্যাপারে রবির দক্ষতা না কি তুলনাহীন, প্রশ্নাতীতও বটে!

Published by:Piya Banerjee
First published: