বৃহন্নলা বলে নাক সিঁটকোবেন না, 6 Pack Band ধামাল মাচাচ্ছে মঞ্চে

বৃহন্নলা বলে নাক সিঁটকোবেন না, 6 Pack Band ধামাল মাচাচ্ছে মঞ্চে
The 6 Pack Band has made five music videos featuring various celebrities like actor Hrithik Roshan and Arjun kapoor. (Credit: 6 Pack Band/Facebook)

কান গ্র্যান্ড প্রিক্স গ্লাস লায়নস অ্যাওয়ার্ড (Cannes Grand Prix Glass Lions Award), এমভিজ অ্যাওয়ার্ড-সহ একাধিক পুরস্কার জিতে নিয়েছে এই ব্যান্ড।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: সমাজের প্রতি পদে লাঞ্ছনার শিকার হতে হয় তাঁদের। পরিবার, পাড়া-প্রতিবেশীও খুব একটা ভালো চোখে দেখে না। যেন এঁরা কেউ মানুষ নন, কোনও অভিশপ্ত প্রাণী। সচরাচর রাস্তায় দাঁড়িয়ে হাততালি বাজানো এই মানুষগুলোই আজ আন্তর্জাতিক স্তরে নিজেদের তুলে ধরেছে। সৌজন্যে ভারতের প্রথম ট্রান্সগ্রুপ ব্যান্ড। নাম সিক্স প্যাক ব্যান্ড (6 Pack Band)।

২০১৬ থেকে পথচলা শুরু। তার পর আর ফিরে তাকাতে হয়নি। এই সিক্স প্যাক ব্যান্ডের সদস্যরা হলেন ফিদা খান (Fida Khan), রবিনা জগতপ (Ravina Jagtap), আশা জগতপ (Asha Jagtap), চাঁদনি সুবর্ণকর (Chandni Suvarnakar), কোমল জগতপ (Komal Jagtap) ও ভাবিকা পাটিল (Bhavika Patil) সমাজ যাঁদের আলাদা করেছে, গান-বাজনা তাঁদের মিলিয়ে দিয়েছে। দেশের প্রথম এই বৃহন্নলা ব্যান্ডের গানের প্রশংসা করেছেন রাহত ফতে আলি খান ( Rahat Fateh Ali Khan), হৃতিক রোশন (Hrithik Roshan), সোনু নিগম (Sonu Nigam), অর্জুন কাপুর (Arjun Kapoor) থেকে শুরু করে সকলে।

তবে এই লড়াই এতটাও সহজ ছিল না। ব্যান্ডের অন্যতম সদস্য কোমল জগতপ (Komal Jagtap) জানিয়েছেন যে প্রায় প্রতিটি পদক্ষেপেই পরিবার ও প্রতিবেশীদের কাছ থেকে নানা কথা শুনতে হয়েছে তাঁকে। এর জেরে মাত্র ১০ বছর বয়সেই ঘর ছাড়তে হয়। পুণের একটি ট্রান্স কমিউনিটিতে যোগ দেন তিনি। শুরু হয় নতুন জীবন। তাঁর কথায়, কেউই আমাদের সামাজিক নিরাপত্তা দেয় না। কাজের ক্ষেত্রেও কোনও সুযোগ পাওয়া যায় না। পরের দিকে ভূতনাথ রিটার্নস (Bhootnath Returns), সাবধান ইন্ডিয়া (Savdhan India)-সহ বেশ কয়েকটি সিনেমা ও টেলিসিরিয়ালে ছোট ছোট চরিত্রে অভিনয় শুরু করেন কোমল।


ব্যান্ডের প্রতিটি সদস্যেরই প্রায় একই গল্প। কেউই সমাজ থেকে কাঙ্ক্ষিত মর্যাদা পাননি। তবে পরিবারের সমর্থন, হার না মানার মানসিকতা তাঁদের আজ এই জায়গায় নিয়ে এসেছে। ব্যান্ডের এক সদস্য ভাবিকা পাটিল (Bhavika Patil ) অল্প বয়স থেকেই নিজে কাজ করে নিজের জন্য খাবার জোগাড় করেছেন। একটি ক্লিনিকে কাজ করতেন ভাবিকা। কিন্তু সেখানেও বঞ্চনা ও বৈষম্যের স্বীকার হন। তাই চাকরি ছেড়ে দেন। তবে মিউজিক তাঁর জীবন বদলে দেয়। সিক্স প্যাক ব্যান্ড-এর সঙ্গে যুক্ত হওয়ার পর থেকে আর ফিরে তাকাতে হয়নি। সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে চাঁদনি সুবর্ণকর (Chandni Suvarnakar) নামে আর এক ব্যান্ড সদস্য জানিয়েছেন, জীবনে নানা প্রতিবন্ধকতার সঙ্গে লড়তে হয়েছে তাঁকে। তবে সব সময়ে পাশে ছিল পরিবার।

গান-বাজনার প্রতি ভালোবাসাই তাঁদেরকে এক জায়গায় এনেছে। আর এই কারণেই ব্যান্ডটাও তৈরি হয়েছে। এমনই জানান ব্যান্ডের এক সদস্য। ইতিমধ্যেই আন্তর্জাতিক স্তরে খ্যাতি পেতে শুরু করেছে এই সিক্স প্যাক ব্যান্ড। ২০১৭ সালে কান ফেস্টিভ্যালে (Cannes festival) পারফর্ম করে ব্যান্ডটি। এর পাশাপাশি কান গ্র্যান্ড প্রিক্স গ্লাস লায়নস অ্যাওয়ার্ড (Cannes Grand Prix Glass Lions Award), এমভিজ অ্যাওয়ার্ড-সহ একাধিক পুরস্কার জিতে নিয়েছে এই ব্যান্ড। তবে এখনও অনেক পথচলা বাকি। বলিউড-সহ দেশের নানা প্রোগ্রামে আরও বেশি করে অংশগ্রহণ করার ইচ্ছে রয়েছে ব্যান্ডের শিল্পীদের। কারণ দেশে এখনও কাঙ্ক্ষিত সচেতনতা দেখা যায়নি।

Keywords:

Published by:Debalina Datta
First published: