Serial Kisser: চুমু খেতে খেতে ক্লান্ত Emraan Hashmi ! খুঁজছেন বেরিয়ে আসার পথ

Is Emraan Hashmi Really Out of His Serial Kisser Tag

প্রযোজক আর পরিচালকের দাবিতে নিজের রেকর্ড ভেঙে নতুন রেকর্ড গড়ায় ব্যস্ত থাকতে হত নায়ককে।

  • Share this:

#মুম্বই: যে কোনও ছবিতে নিজের সেরা পারফরম্যান্সটা দেওয়ার চেষ্টা করতে হবে, চরিত্রটার মধ্যে ঢুকতে হবে! সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে এই কথা জানিয়েছেন বলিউডের বিখ্যাত নায়ক ইমরান হাশমি (Emraan Hashmi)।

আর এই জায়গা থেকেই উঠে এসেছে চুম্বনের প্রসঙ্গ। একটা সময়ে সিরিয়াল কিসার, কিসিং কিং-এর মতো তকমা জুড়ে গিয়েছিল এই নায়কের গায়ে। কেরিয়ারের প্রথম দিকে যে ছবিগুলো করেছেন তিনি, তার সবক'টাতেই অবধারিত ছিল এই অন্তরঙ্গ দৃশ্য। মার্ডার (Murder), গ্যাংস্টার (Gangster), জহর (Zeher), জন্নত (Jannat), রাজ (Raaz)- প্রত্যেকটা ছবিতেই আগের চেয়ে বেশি করে অন্তরঙ্গ হত চুম্বনলীলা, প্রযোজক আর পরিচালকের দাবিতে নিজের রেকর্ড ভেঙে নতুন রেকর্ড গড়ায় ব্যস্ত থাকতে হত নায়ককে। কিন্তু তিনি যে সেই ব্যাপারটা খুব একটা পছন্দ করতেন না, জানা গেল এত দিনে এসে!

ইমরান জানিয়েছেন যে একটা সময়ে তাঁর কথা মাথায় রেখে চিত্রনাট্যে অভিনব চুম্বনের দৃশ্য তৈরি করা হত। কী ভাবে তার দৃশ্যায়নকে রোমাঞ্চকর করে তোলা যায়, পরিচালকরা সেই ব্যাপারে চিন্তাভাবনা করতেন। এই চুম্বনদৃশ্যই হয়ে উঠেছিল তাঁর ছবির সেলিং পয়েন্ট, জানিয়েছেন তিনি। একই সঙ্গে এটাও জানাতে ভোলেননি যে যখন থেকে তিনি অন্তরঙ্গ দৃশ্যে অভিনয় না করার সিদ্ধান্ত নিলেন, বলিউডে কাজ বন্ধ হয়ে যাওয়ার উপক্রম হল!

এটা ঠিক যে একটা নির্দিষ্ট সময়ের পর আর বলিউডের রুপোলি পর্দায় সে ভাবে দেখা যায়নি এই জনপ্রিয় নায়ককে। কিন্তু ফ্লপ ছবির রেকর্ড তাঁর নেই বললেই চলে! বর্তমানে বলিউডে যে বায়োপিক বানানোর ট্রেন্ড চলছে, সেখানেও নিজের দক্ষতা তিনি প্রশ্নাতীত ভাবে প্রমাণ করেছিলেন আজহার (Azhar) ছবিতে। কিন্তু প্রযোজক এবং পরিচালকেরা সহজে হাশমির অভিনেতা সত্ত্বার অন্য দিকটা নিয়ে মাথা ঘামাতে চাননি- এই কথা নিজের মুখে অত্যন্ত আক্ষেপের সঙ্গে জানিয়েছেন তিনি।

এখন অবশ্য ছবিটা অনেকটাই আলাদা! আজহার তো আছেই, পাশাপাশি বাদশাহো (Baadshaho), হমারি অধুরি কহানির (Hamari Adhuri Kahani) মতো ছবি দিয়ে ধীরে ধীরে এই কিসিং কিংয়ের তকমা থেকে বেরিয়ে আসার চেষ্টা করেন ইমরান। পুরোপুরি সফল যে হয়েছেন তিনি, এই কথা খুব সম্ভবত বলা যাবে না। তবে বলিউড ধীরে ধীরে বুঝছে যে ইমরান অন্য দিক থেকেও রুপোলি পর্দায় ঝড় তোলার ক্ষমতা ধরেন। Netflix-এর বার্ড অফ ব্লাড (Bard of Blood) ওয়েব সিরিজ, সদ্য মুক্তি পাওয়া মুম্বই সাগার (Mumbai Saga) সাফল্য তারই প্রমাণ দিচ্ছে!

Published by:Piya Banerjee
First published: