'সোশাল মিডিয়ায় অভিনয় আমার দ্বারা হবে না', কবীর সিং-খ্যাত সোহম মজুমদারের স্বীকারোক্তি

ছবি মুক্তির দু বছর পরেও একই রকম চাহিদা এই বঙ্গতনয়ের। না, এটা কোনও সোশাল মিডিয়ার কারসাজি নয়

ছবি মুক্তির দু বছর পরেও একই রকম চাহিদা এই বঙ্গতনয়ের। না, এটা কোনও সোশাল মিডিয়ার কারসাজি নয়

  • Share this:

    #মুম্বই: গল্ফগ্রিনের সেই বাড়িতে, কলকাতার আর পাাঁচটা ছেলের মতোই বড় হওয়া। নাটকের প্রতি পাগলের মতো ভালবাসা থেকেই অভিনয়। সেই সোহম মজুমদার এখনও বলিউডের সবচেয়ে কাম্য বন্ধু, ইংরেজিতে যাকে বলে মোস্ট সট-আফটার ফ্রেন্ড ! সবাই শিবার মতো বন্ধু পেতে উদগ্রীব।

    তার চেয়েও বড় কথা। এ ছবি মুক্তির দু বছর পরেও একই রকম চাহিদা এই বঙ্গতনয়ের। না, এটা কোনও সোশাল মিডিয়ার কারসাজি নয়।

    কেন এত কম ব্যবহার করেন সোশাল মিডিয়া? ফলোয়ার সংখ্যা হাজারের ঘরে, তবু জনপ্রিয়তায় ভাঁটা পড়েনি। কাণ্ড কী? অমায়িক হেসে উত্তর দিলেন, "জানি সংখ্যা কম আমার ফলোয়ারের। কিন্তু সংখ্যাই তো সবকিছু নয়। ফ্যান বেস চাই না। এমন মানুষ চাই যাঁরা জেনুইনলি আমার অভিনয় ভালবাসেন। আমি চাই শুধু তাঁরাই আসুন। আর সত্যি বলতে কি, নিত্য নতুন ভিডিও বানিয়ে পোস্ট করা আমার দ্বারা হবে না।"

    সোহম এখন প্রাণের শহর কলকাতায়। বন্ধু সৌম্যজিতের আগামী ছবি '#হোমকামিং' এ অভিনয় করছেন সায়নী গুপ্তর সঙ্গে। "আমার সব অভিনেত্রীর কাছ থেকেই অনেক কিছু শিখেছি। সায়নীর কত গভীর জ্ঞান। ঋতাভরীর কত উৎসুক যে কোনও বিষয়ে। এই সব আমায় প্রেরণা দেয়। আমি খুব মন দিয়ে ওদের কথা শুনি। আমার স্বচ্ছন্দ অভিনয়ের একটা বড় কারণ এটাও। কৌশিক গাঙ্গুলির মতো বিশ্বমানের পরিচালকের কাছ থেকে প্রথম ছবির ডাক পেয়েছি, আমার মতো ভাগ্যবান কজন আছে বলুন? উইন্ডোজ প্রোডাকশনের মতো হিটমেকার, নন্দিতাদি শিবপ্রসাদদা আমায় কাজ দিয়েছেন, ভাবলেও শিহরিত হই।" এক নিঃশ্বাসে বলে গেলেন সোহম, "আমার মতো সাধারণ একটা ছেলের জীবনে এত কিছু ঘটছে, এটাই যথেষ্ট!"

    আপনি একটু বেশিই বিনয়ী! "না না সত্যি বলছি। আমি শুধু থিয়েটার পারি আর একটু শাহরুখ খানের ভক্ত। নবীনায় টিকিট কেটে কত দেখেছি ছবি। শাহরুখের ফার্স্ট ডে ফার্স্ট শো। আসলে শাহরুখ তো কোনও অভিনেতার নাম নয়, শাহরুখ একটা মধ্যবিত্ত প্যাশনের নাম। একটা স্বপ্ন উড়ানের নাম। জানেন, আমরা একটা নাটক করতাম, যার নাম ছিল কোড নেম শাহরুখ। আমরা খোঁজ করে রেড চিলিজের নম্বর বের করে অফিসে যোগাযোগ করার অনেক চেষ্টা করেছিলাম। তার পর শাহ রুখজির সেক্রেটারির কাছ থেকে মেসেজ এসেছিল যে উনি এই নাটকের কথা জানেন। আমাদের সকলকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। আমরা তো আহ্লাদে আটখানা!"

    এখন তো আপনি অপরিচিত নন। বলিউডে শাহরুখের সঙ্গে সরাসরি দেখা করার রাস্তা তো জানেন। করেছেন চেষ্টা? "না। সেটা হয়ত মনমতো হবে না। সবচেয়ে ভাল হবে যদি শিল্পীর মতো তাঁর কাছে পৌঁছতে পারি। শাহরুখের সঙ্গে বসে কফি খেতে খেতে সেলফি তুলছি, এমন স্বপ্ন আমার নেই। শিল্পী হয়ে তাঁর একচিলতে যদি হতে পারি, সেটাই হবে শ্রেষ্ঠ। " বললেন সোহম।

    সোহমের স্বপ্ন উড়ান টেক-অফ করছে। আগামীতে অনেকগুলো বলিউড ছবিতে আবির্ভাব ঘটতে চলেছে তাঁর। ক্রমশ প্রকাশ্য।

    শর্মিলা মাইতি 

    Published by:Ananya Chakraborty
    First published: