বাজিরাওয়ের আত্মাকে নিজের চোখে দেখেছিলেন রণবীর! জানালেন খোদ অভিনেতা!

২০১৫ সালে ডেকান ক্রনিকলের (Deccan Chronicle) সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে রণবীর বলেছিলেন সেই রোমহর্ষক অভিজ্ঞতার কথা।

২০১৫ সালে ডেকান ক্রনিকলের (Deccan Chronicle) সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে রণবীর বলেছিলেন সেই রোমহর্ষক অভিজ্ঞতার কথা।

  • Share this:

#মুম্বই: ভূত আছে কি নেই তা একেবারে লাখ টাকার প্রশ্ন! তবে ভূতের প্রসঙ্গে ভয় আমরা অনেকেই পাই, তা অস্বীকার করার জায়গা নেই। বলিউডে কত ভুতুড়ে ও ঐতিহাতিক সিনেমা হয়, যেগুলির শুটিং করবার জন্য আউটডোরে যেতে হয়। কিছু কিছু জায়গা এমন থাকে, যেখানে বছরের পর বছর কেউ আসা যাওয়া করে না। যেখানে বসবাস করে ভয়ের অনুভুতি। এমনই এক হাড় হিম করা অভিজ্ঞতা হয়েছিল অভিনেতা রণবীর সিং-এর (Ranveer Singh)। যখন তিনি সঞ্জয় লীলা বনশালির (Sanjay Leela Bhansali) পিরিয়ড ড্রামা বাজিরাও মস্তানি (Bajirao Mastani) ছবিতে বাজিরাওয়ের চরিত্রে অভিনয় করছিলেন। রণবীর নিজেই সেই অভিজ্ঞতার কথা বলেছেন, যে তিনি বাজিরাও মস্তানির সেটে স্বয়ং বাজিরাওয়ের ভূত দেখেছেন। এই ছবিতে রণবীরের বিপরীতে অভিনয় করেছেন তাঁর রিয়েল লাইফ পার্টনার দীপিকা পাডুকোন (Deepika Padukone) ও আরও এক বলিউডের নামী অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া জোনাস (Priyanka Chopra Jonas)। সিনেমায় মস্তানির ভূমিকায় অভিনয় করেন দীপিকা পাডুকোন এবং কাশীবাঈয়ের চরিত্রে অভিনয় করেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া জোনাস। ২০১৫ সালে মুক্তি পেয়েছিল এই সিনেমা। বিশ্ব জুড়ে প্রায় ৩০০ কোটি ডলারের ব্যবসা করেছিল এই ছবিটি।

২০১৫ সালে ডেকান ক্রনিকলের (Deccan Chronicle) সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারেরণবীর বলেছিলেন সেই রোমহর্ষক অভিজ্ঞতার কথা। তিনি বলেন “এটা একটা ট্রিপি অভিজ্ঞতা, শুটিং করার মুহূর্তে বারে বারে মনে হত কেউ একজন আমার চারপাশে রয়েছে। মনে হত সেটা পেশোয়ার বাজিরাওয়ের আত্মা। এর পর একদিন আমার সামনে এসে উপস্থিত হন তিনি, আমি স্পষ্ট দেখেছি ওঁকে। প্রথমে বুঝতে পারিনি, পরে ঘটনার কথা মনে করে চিনতে পেরেছি। একেবারে হুবহু সাক্ষাৎ দাঁড়িয়ে ছিলেন; উজ্বল চোখ, টিকোল নাক, বাঁকানো মোচ, উন্নত বাহু ও পাগড়িওয়ালা পেশোয়াকে আমি চিনতে ভুল করিনি”। অভিনেতা এই কথাগুলো বলার সময় এটাও বলেছেন, যে এমন মনে হওয়াটা তার মনের ভুলও হতে পারে, তবে এটাও ঠিক, এই সকল বিষয়ে তাঁর সিক্স সেন্স খুব কাজ করে!

আগামী দিনে কবির খানের (Kabir Khan) পরিচালনায় স্পোটর্স ড্রামা ‘৮৩’(83) ছবিতে কপিল দেবের (Kapil Dev) চরিত্রে দেখা যাবে রণবীর সিংকে। এই ছবিতে তাঁর স্ত্রী দীপিকাকে রোমি দেবের (Romi Dev) চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যাবে। এই ছবিতে ১৯৮৩ সালে ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রথম বিশ্বকাপ জয়ের কাহিনির দৃশ্যপট তৈরি করা হয়েছে। করোনা পরিস্থিতির কারণে ছবির মুক্তি পিছিয়েছে। তবে খুব তাড়াতাড়ি পরিস্থিতি ঠিক হলে ছবি মুক্তির কাজ শুরু হয়ে যাবে।

Published by:Simli Raha
First published: