বড়পর্দা নয়, অনলাইন‌‌ই কি সিনেমার ভবিষ্যৎ বাজার?‌ সাক্ষাৎকারে মত দিলেন পরিচালক প্রকাশ ঝা

বড়পর্দা নয়, অনলাইন‌‌ই কি সিনেমার ভবিষ্যৎ বাজার?‌ সাক্ষাৎকারে মত দিলেন পরিচালক প্রকাশ ঝা

ছবি হল আর্ট আর কমার্সের মিশেল। আর্থিক দিকটাও মাথায় রাখতে হবে। এই মুহূর্তে ওটিটি ছাড়া আয় করার কোনও উপায় নেই, বললেন প্রকাশ।

ছবি হল আর্ট আর কমার্সের মিশেল। আর্থিক দিকটাও মাথায় রাখতে হবে। এই মুহূর্তে ওটিটি ছাড়া আয় করার কোনও উপায় নেই, বললেন প্রকাশ।

  • Share this:

ওটিটি প্ল্যাট‍্যফর্মে মুক্তি পেতে চলেছে ‘গুলাবো সিতাবো’। অমিতাভ বচ্চন, আয়ুষ্মাণ খুরানা অভিনীত এই ছবিকে ঘিরে দর্শকের মধ্যে রয়েছে বেশ আগ্রহ। সুজিত সরকার পরিচালিত এই ছবির হলে মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল ১৭ই এপ্রিল। লকডাউনের জেরে তা কোনও ভাবেই সম্ভব নয়। সিনে মহল যখন ওটিটি প্ল্যাটফর্মের দিকে হাঁটছে। সকলেই ভাবছেন ওয়েবেই কাজ হবে বেশি। এমন সময় সুজিত সরকার থিয়েট্রিকাল রিলিজের অপেক্ষায় না থেকে নিজের ছবি বিক্রি করে দিলেন অ্যামাজন প্রাইমকে। তবে কি এই পথেই হাঁটবেন বলিউউডের প্রযোজক, পরিচালকেরা। সেই নিয়েই আলোচনা করলেন পরিচালক প্রকাশ ঝা। হিন্দি ছবির ভবিষ্যত কী ও কীভাবে লাভের মুখ দেখা সম্ভব, মত জানালেন News18 ‌বাংলাকে।

মেগা স্টার অমিতাভ বচ্চনের ছবি ওটিটি-তে মুক্তি পাচ্ছে। দিন কয়েক আগেই ‘‌কৌন বনেগা ক্রোড়পতি’‌-র প্রোমো বাড়িতে বসে শ্যুট করেছেন তিনি। লকডাউনের জেরে রোজ ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে বিনোদন শিল্প। অর্থের প্রয়োজনে ডিজিটালেই ছবির মুক্তির কথা ভাবছেন ছবিওয়ালারা। বিখ্যাত পরিচালক প্রকাশ ঝা মনে করেন, এটাই কঠিন বাস্তব। 'গঙ্গাজল', 'রাজনীতি'–র মতো সফল ছবি করেছেন প্রকাশ। কনটেন্টের সঙ্গে আপোষ না করে লক্ষ্মীলাভের মন্ত্র তাঁর জানা। দর্শকের ‘‌পালস’‌ প্রকাশ বোঝেন। অমিতাভ বচ্চনের সঙ্গেও ছবি বানিয়েছেন তিনি। প্রকাশের কথায়, ‘গুলাবো সিতাবো’‌-র পথেই হয়তো হাঁটতে হবে আগামী দিনে। এটা দুর্ভাগ্যের বিষয়, তবে এটাই বাস্তব। ছবি হাতে নিয়ে বসে থাকার মতো আর্থিক জোর ক’‌জন প্রযোজকের রয়েছে। তবুও আমি বলবো, ছবি ৭০ এমএম পর্দার জন্য। আবার ছবি হল আর্ট আর কমার্সের মিশেল। আর্থিক দিকটাও মাথায় রাখতে হবে। এই মুহূর্তে ওটিটি ছাড়া আয় করার কোনও উপায় নেই। তবে আমি আশাবাদী। আমি প্রর্থনা করছি যে হল-এ গিয়ে ছবি দেখার উপায় খুব তাড়াতাড়ি আমরা খুঁজে বের করতে পারবো।’

ওটিটি-তে নতুন ছবি মুক্তি পেলে এক অংশ দর্শক ছবি দেখতে পাবেন ঠিকই। বিশেষ করে এই লকডাউনের সময়, যখন অনলাইন ভিউইং তুঙ্গে। তবে এটাও সত্যি একটি বয়সের মানুষ এখনও অনলাইনে সড়গড় নন, তাঁরা হলে গিয়ে কিংবা টিভিতেই ছবি দেখেন, এই সিদ্ধান্ত কতটা লাভজনক হয় সেটা সময় বলবে। অক্ষয় কুমার অভিমীত ‘লক্ষ্মী বম্ব’-ও অনলাইন বিক্রি হয়ে যেতে পারে, এমন কথাবার্তা চলছে। ARUNIMA DEY

Published by:Uddalak Bhattacharya
First published:

লেটেস্ট খবর