corona virus btn
corona virus btn
Loading

মাত্র ৩ দিন আগেই শেষবারের মতো ফোন করেছিলেন বাবা’কে, কী বলেছিলেন সুশান্ত?

মাত্র ৩ দিন আগেই শেষবারের মতো ফোন করেছিলেন বাবা’কে, কী বলেছিলেন সুশান্ত?

তখন দুপুরে খেতে বসছেন অবসরপ্রাপ্ত সরকারিকর্মী কেকে সিং । ভাবলেন ছেলে ফোন করেছে হয়তো । কিন্তু না, ও প্রান্তে মুম্বই পুলিশ । এক ফোনেই সব শেষ ।

  • Share this:

#মুম্বই: এই সিদ্ধান্তের পিছনে কি অনেক গভীর কোনও কারণ রয়েছে? নাকি হঠাৎই তাৎক্ষণিক কোনও মানসিক স্থিতি থেকে এমন ভয়ঙ্কর পরিণতির পথ ধরলেন সুশান্ত সিং রাজপুত? সকাল দশটায় জুস খেয়ে বেডরুমে ঢুকেছিলেন । সবকিছুই অন্যান্য দিনের মতই স্বাভাবিকভাবে চলছিল । কিন্তু আচমকাই সব তাল কেটে গেল । কেন এরকম করলেন ৩৪ বছরের নায়ক? উত্তর নেই কোনও ।

মাত্র ৩ দিন আগেই ফোন করেছিলেন বাবা’কে । তখনও খুব স্বাভাবিকভাবেই কথা বলেছিলেন সুশান্ত । বাবা কেকে সিং থাকেন পটনায় । বেশিরভাগ দিনই ফোনে কথা হয় বাবা-ছেলের । তিন দিন আগে হয়েছিল শেষবারের মত কথা । পটনার বাড়িতে সুশান্তের বাবা’কে দেখাশোনা করেন লক্ষ্মী দেবী নামের এক মহিলা । সুশান্ত তাঁকেও নির্দেশ দেন, বাবার যত্ন নিতে । আর বাবা’কে বলেন এই করোনা সংক্রমণের সময় খুব সাবধানে থাকতে । বাইরে বেশি বেরতেও নিষেধ করেন তিনি । সেই শেষ, আর ফোন আসেনি একমাত্র ছেলের ।

হ্যাঁ ফোন এসেছিল, রবিবার । তখন দুপুরে খেতে বসছেন অবসরপ্রাপ্ত সরকারি কর্মী কেকে সিং । ভাবলেন ছেলে ফোন করেছে হয়তো । কিন্তু না, ও প্রান্তে মুম্বই পুলিশ । এক ফোনেই সব শেষ । বৃদ্ধকে জানিয়ে দেওয়া হল, সুশান্ত আর নেই । বারবার সংজ্ঞা হারাচ্ছেন বাবা । তরতাজা ছেলেটা এ ভাবে চলে যেতে পারে? মেনে নিতে পারছেন না তিনি । খবর ছড়িয়ে পড়তেই পটনার ছোট্ট বাড়িটার সামনে থিকথিক করছে মানুষ । ও দিকে বান্দ্রার ওই শখের ফ্ল্যাটটাও আজ লোকে লোকারণ্য । কিন্তু এত লোকের মধ্যে কোথাও নেই তিনি, কোথাও নেই তাঁর ওই সংক্রামক হাসিটা ।

Published by: Simli Raha
First published: June 15, 2020, 9:01 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर