গালের টোলে বাজিমাৎ, এথেন্সের বিমানবন্দরে বাঁধিয়ে রাখা হল দীপিকার হাসি

গালের টোলে বাজিমাৎ, এথেন্সের বিমানবন্দরে বাঁধিয়ে রাখা হল দীপিকার হাসি

এথেন্স বিমানবন্দরে গোটা বিশ্বের পর্টকদের পর্যটকদের শুভেচ্ছা জানাচ্ছে সেই ঈশ্বরপ্রদত্ত, মনভোলানো হাসি ।

এথেন্স বিমানবন্দরে গোটা বিশ্বের পর্টকদের পর্যটকদের শুভেচ্ছা জানাচ্ছে সেই ঈশ্বরপ্রদত্ত, মনভোলানো হাসি ।

  • Share this:

    #এথেন্স: তিনি দীপিকা পাড়ুকোন । তার হাসির এক চিলতে ঝলকে কাত হয়ে যায় পুরুষকূল । রাতের ঘুম উড়ে যায় মাখন নরম গালের ওই টোলের ভাঁজে । সেই হাসিতেই তিনি জয় করেছেন আসমুদ্র হিমাচল । কোটি কোটি ভক্তের স্বপ্নের নায়িকা হয়ে উঠেছেন তিনি । এ বার তাঁর হাসির খ্যাতি ছড়িয়ে পড়ল দেশের সীমা ছাড়িয়ে ।

    এর আগেও তিনি ভারতকে একাধিকবার বিশ্বের মানচিত্রে আলোকিত করেছেন। সম্প্রতি, জানা গিয়েছে, দীপিকা পাডুকোনের মোহময়ী হাসি এথেন্স আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে একটি প্রদর্শনীতে রাখা হয়েছে ৷ 'দ্য ওয়ার্ল্ড অফ দি ওয়ার্ল্ড অফ অথেনটিক স্মাইলস'-এ একটি আবেক্ষমূর্তিতে প্রদর্শিত হয়েছে তাঁর মিষ্টি হাসিটি । এথেন্স বিমানবন্দরে গোটা বিশ্বের পর্টকদের শুভেচ্ছা জানাচ্ছে সেই ঈশ্বরপ্রদত্ত, মনভোলানো হাসি ।

    ‘খাঁটি হাসি’ এর প্রদর্শনীর অংশ হিসাবে এথেন্স বিমানবন্দরে দীপসের একটি আবক্ষ মূর্তি রাখা হয়েছে। কালো পাথরের এই আবেক্ষ মূর্তির নীচে লেখা রয়েছে, ‘এটি ভারতীয় বলিউড অভিনেত্রীর হাসি’ । গ্রে মার্বেলে তৈরি ওই মূর্তিটি একটি বড় চোকার নেকলেস পরে রয়েছে । সেই নারীর চুলে একটি টাইট খোঁপা বাঁধা। প্রসঙ্গত, ফ্যাশন ডিজাইনার সব্যসাচী মুখোপাধ্যায়ের একটি লুকে এই একইরকম লুকে সেজেছিলেন দীপিকা পাড়ুকোন ৷ শুধু তাই নয়, মূর্তিটির মৃদু হাসির সঙ্গে হুবহু মিলে যায় দীপিকার হাসি ৷ এই আবেক্ষমূর্তির এই ছবি দীপিকার ফ্যানপেজ থেকে সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করা হয়েছে ।

    দীপিকার পাশেই একজন ‘গ্র্যামি-বিজয়ী আমেরিকান গায়ক’-এর আবক্ষ মূর্তি রাখা আছে। তিনি দেখতে কিছুটা বিলি এলিশের মতো হলেও তাঁর বিশেষতই হল নিয়ন সবুজ চুল। কিন্তু পাথরের মূর্তি তা বোঝার উপায় না থাকায় এই বিষয়ে নিশ্চিত হওয়া যাচ্ছে না ৷

    সম্প্রতি শাকুন বাত্রার পরিচালিত তাঁর আসন্ন ছবি নিয়ে বেজায় ব্যস্ত দীপিকা। ছবিতে অনন্যা পান্ডে এবং সিদ্ধান্ত চতুর্বেদীও অভিনয় করেছেন৷ শেষবার মেঘনা গুলজারের ‘ছপক’-এ দেখা গিয়েছিল দীপিকাকে৷ এটি দীপিকাকে অ্যাসিড আক্রান্ত হিসাবে দেখানো হয় এবং ন্যায়বিচারের সন্ধানে এক অ্যাসিড আক্রান্তের লড়াইকে তুলে ধরা হয়৷ তাঁর অভিনয় প্রশংসা কুড়িয়েছিল দর্শক মহলে৷

    Written by: Simli Dasgupta

    Published by:Simli Raha
    First published: