অনলাইন কনসার্ট করবেন অরিজিৎ সিং ! করোনাকালে গ্রামের মানুষের পাশে দাঁড়াতে গানই ভরসা গায়কের

তিনি এবার অনলাইন কনসার্ট করবেন। অনলাইনে গান গাইবেন, শো করবেন অরিজিৎ।

তিনি এবার অনলাইন কনসার্ট করবেন। অনলাইনে গান গাইবেন, শো করবেন অরিজিৎ।

  • Share this:

    #কলকাতা: অরিজিৎ সিং (Arijit Singh) । বলি থেকে টলির জনপ্রিয় গায়ক তিনি। মুর্শিদাবাদের ছেলে সম্প্রতি মাকে হারিয়েছেন। করোনা আক্রান্ত হয়েছিলেন তাঁর মা। সেরে যাওয়ার পরে ব্রেন স্ট্রোক, ভেন্টিলেশন, একমো সাপোর্ট তবুও পারেননি মাকে বাঁচাতে। মাকে হারানোর যন্ত্রণা বুকে নিয়েই মুর্শিদাবাদের মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন অরিজিৎ।

    করোনা মোকাবিলায় অক্সিজেনের ঘাটতি প্রায় সব জায়গাতেই দেখা যাচ্ছে। অক্সিজেন না পেয়ে বহু মানুষ মারা যাচ্ছেন। হাসপাতালে গিয়েও জুটছে না অক্সিজেন। করোনা রোগীদের কথা মাথায় রেখে এগিয়ে এসেছেন অরিজিৎ। মুর্শিদাবাদ জেলা স্বাস্থ্য দপ্তরকে পাঁচটি হাই ফ্লো নেজাল অক্সিজেন থেরাপি মেশিন দিয়ে সাহায্য করেছেন অরিজিৎ। কিন্তু জিয়াগঞ্জের মানুষের জন্য আরও কিছু করতে চান তিনি। কিন্তু গান ছাড়া যে কিছুই জানা নেই তাঁর। তাই গানকেই ভরসা করে মানুষের জন্য কাজ করতে চলেছেন অরিজিৎ।

    তিনি এবার অনলাইন কনসার্ট করবেন। অনলাইনে গান গাইবেন, শো করবেন অরিজিৎ। আর সেখান থেকে তোলা টাকা মানুষের কাজে লাগাবেন গায়ক। আজ তিনি ফেসবুকে নিজের সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেলে একটি ভিডিও আপলোড করে জানান, " করোনাকালে মানুষের অবস্থা খুব খারাপ। কিন্তু গ্রামের অবস্থা আরও খারাপ। এখানে সামান্য একটা টেস্ট করাতে গেলে যেতে হয় অনেকটা দূর। সেখানে কোভিড টেস্ট করানো খুব মুশকিল। এদিকে সংক্রমণ দিন দিন বেড়েই চলেছে। এই অবস্থায় গ্রামের হাসপাতালগুলোকে উন্নত করা দরকার। তাই আমি ভেবেছি আমি কিছু করবো। কিন্তু গান ছাড়া যে আমার কিছুই জানা নেই। তাই অনলাইন কনসার্ট করবো। সেখান থেকে টাকা তুলে হাসপাতালে অত্যাধুনিক অক্সিজেন থেকে সব ব্যবস্থা করা হবে। যাতে মানুষের সুরাহা হয় এই খারাপ সময়ে। আমাকে অনেকে কথা দিয়েছেন পাশে থাকবেন। আমি আবেদন করবো আপনারাও আমার পাশে থাকুন।"

    অরিজিতের এই পোস্ট দেখার পর ভক্তরা প্রশংসায় মেতেছেন। সত্যিই ভূমিপুত্র অরিজিৎ। এই সময়ে তিনি যা করছেন তার জন্য শুধু টাকা নয় একটা বড় মনের দরকার। আর তা আছে অরিজিতের। তাঁর গলায় আছে গানের জাদু। সেই জাদুতেই ভরসা করে এবার মানুষের পাশে অরিজিৎ।

    Published by:Piya Banerjee
    First published: