ফেয়ারনেস ক্রিমের বিজ্ঞাপন করবেন না, কোটি টাকার অফার ছাড়লেন বলিউড নায়িকা

ফেয়ারনেস ক্রিমের বিজ্ঞাপন করবেন না, কোটি টাকার অফার ছাড়লেন বলিউড নায়িকা

এহেন বিজ্ঞাপন যে কত নারীকে ভুল বুঝিয়েছে, বিক্রির বাজারে পণ্য করেছে ইয়ত্তা নেই।

এহেন বিজ্ঞাপন যে কত নারীকে ভুল বুঝিয়েছে, বিক্রির বাজারে পণ্য করেছে ইয়ত্তা নেই।

  • Share this:

    শর্মিলা মাইতি

    #মুম্বই: ফর্সা হলেই আপনি হবেন আত্মবিশ্বাসী। ফর্সা হলেই বিয়ে। ফর্সা হলেই চাকরি পাকা। ফর্সা হতে পারলেই প্রেমিক, যে আপনাকে ফিরিয়ে দিয়েছিল, সেই আপনার প্রেম পাওয়ার জন্য কাকুতিমিনতি করবে। আর সব কালো রং ফর্সা করে দেবে অমুক ক্রিম!
    এহেন বিজ্ঞাপন যে কত নারীকে ভুল বুঝিয়েছে, বিক্রির বাজারে পণ্য করেছে ইয়ত্তা নেই। দক্ষিণী নায়িকা সাই পল্লবী এই প্রথম এক সপাটে চড় কষালেন ওই ধরনের বিজ্ঞাপনের উপর। অধুনা বলিউডেও তিনি মারাত্মক সফল। সাই সরাসরি অস্বীকার করেছেন ফর্সা হওয়ার ক্রিমের বিজ্ঞাপনের মডেল হতে। "দেড় কোটি টাকার অফার এক কথায় ছেড়ে দিয়েছি," এক সাক্ষাতকারে বলেছেন তিনি, "এক ঘৃণ্য শব্দগুলো উচ্চারণ করতে পারব না মানুষ হয়ে, নারী হয়ে। আমার বোনকে দেখেছিলাম কষ্ট পেতে। অসহ্য। অমানবিক।"
    কী হয়েছিল আপনার বোনের? "ফর্সা ব্যাপারটা আমাদের সমাজে, পরিবারে এমন মজ্জায় ঢুকে গেছে যে, অনেকেই নির্লজ্জভাবে বলেন, কিন্তু ধরে নেন এটাই স্বাভাবিক। আমার বোন শ্যামবর্ণ বলে আমার মা ছোটবেলা থেকে ওকে বলতেন, তুমি যদি শাকসবজি খাও, তোমার গায়ের রং ফর্সা হবে। সে বেচারি মোটেই শাকসবজি খেতে ভালবাসত না। কিন্তু ব্যাজার মুখ করে খেত। যখন সে বড় হল, তখন বোঝা গেল কতটা মজ্জায় মজ্জায় হীনম্মন্যতা তৈরি হয়েছে। নিজের ত্বকের রঙের জন্য। আমি জীবনে কখনও এইসব ক্রিমের বিজ্ঞাপন করব না, যাতে একটা মেয়ের আত্মবিশ্বাস, মেরুদণ্ড এমনিই গুঁড়ো করে দেওয়া হয়।"
    একটানা বলে থামলেন তিনি। তেলুগু, তামিল ও মালয়ালি ছবির প্রথম সারির অভিনেত্রী তিনি। করেছেন একাধিক বলিউড প্রজেক্ট। পেয়েছেন একাধিক ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ড। "আমি নিজে এর ঘোরতর বিরোধী। আমি একজন মেডিক্যাল স্টুডেন্ট। ডাক্তারি পড়েছি। আমি জানি এই বিজ্ঞাপনগুলো কতটা মিসলিডিং। হয়ত আমার এই স্টেপ টা খুবই ছোট্ট। কিন্তু এইটুকু প্রতিবাদ করতে পেরেছি। যথেষ্ট। " বললেন সাই পল্লবী।
    Published by:Akash Misra
    First published: