৮ বছর ধরে ধর্ষণ, শাস্তি দিতে ধর্ষক 'গডম্যানে'র যৌনাঙ্গ কেটে দিলেন নির্যাতিতা

৮ বছর ধরে ধর্ষণ, শাস্তি দিতে ধর্ষক 'গডম্যানে'র যৌনাঙ্গ কেটে দিলেন নির্যাতিতা

ধর্ষককে শাস্তি দিতে নিজের হাতে আইন তুলে নিলেন ২৩ বছরের তরুণী ৷ গত আট বছর ধরে একাধিকবার ধর্ষণের শিকার হতে হয়েছে ওই তরুণীকে ৷

  • Share this:

#কোচিন: আট বছর ধরে তরুণীকে লাগাতার ধর্ষণ। নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে অভিযুক্তের যৌনাঙ্গই কেটে দিলেন আইনের ছাত্রী ওই তরুণী। কেরলের তিরুঅনন্তপুরমের ঘটনা। অভিযুক্ত পানমানা আশ্রমের স্বামী গঙ্গেশানন্দ আপাতত হাসপাতালে। তাঁর বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও পকসো আইনে মামলা শুরু হয়েছে।

১৬ বছর বয়সে নিজের বাড়িতেই ধর্ষণের শিকার। এরপর টানা আট বছর লাগাতার যৌন নির্যাতন। কিন্তু আর সহ্য নয়। তাই শাস্তি দিতে অভিযুক্তের যৌনাঙ্গ কেটে দিলেন নির্যাতিতা।

বাবা দীর্ঘদিন ধরে পক্ষাঘাতে আক্রান্ত।  রোগ সারাতে কেরলের কোল্লামের পানমানা আশ্রমের স্বামী গঙ্গেশানন্দ, ওরফে হরি স্বামীর দ্বারস্থ হন মা। রোগ সারানোর নামে মাঝে মধ্যেই তাদের বাড়িতে আসত সে। সেই অছিলায় আট বছর ধরে বাড়িতেই লাগাতার ধর্ষণ করে ওই সাধু। গত শুক্রবার বাড়িতে এসে ফের ধর্ষণের চেষ্টা করে সে। বাঁধ ভাঙে ধৈর্যের। একটি ছুরি দিয়ে ধর্ষকের যৌনাঙ্গ কেটে নেন।  সহ্যের বাঁধ ভাঙাতেই এই পদক্ষেপ বলে মত মনোবিদদের।

ঘটনার পর নির্যতিতা নিজেই খবর দেন পুলিশকে। হরি স্বামীকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভরতি করা হয়। রক্তক্ষরণ বন্ধ করতে অভিযুক্তের অস্ত্রোপচারও করা হয়।  নির্যাতিতার অভিযোগের ভিত্তিতে ধর্ষণ ও পক্সো আইনে মামলা রুজু করেছে পুলিশ।  সব কিছু জানা সত্বেও, তার মা কোনও বাধাই দেননি বলে অভিযোগ। ঘটনায় প্রশ্রয় দেওয়ার অভিযোগে গ্রেফতার করা হয় তাঁকেও।

নির্যাতিতার এই পদক্ষেপের প্রশংসা করেছেন কেরলেন মুখ্যমন্ত্রীও ৷ মুখ্যমন্ত্রী  পি বিজয়ন জানিয়েছেন, ‘তরুণী খুব সাহসী পদক্ষেপ নিয়েছে ৷ তিনি যা করেছেন খুব ভালো করেছেন৷ তার পদক্ষেপের জন্য আমরা গর্বিত ৷’

First published: 03:09:13 PM May 20, 2017
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर