Home /News /crime /
বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক আর সম্পত্তির লোভে বারাকপুরে স্ত্রীকে গুলি করে খুন

বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক আর সম্পত্তির লোভে বারাকপুরে স্ত্রীকে গুলি করে খুন

  • Share this:

    #কলকাতা: বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক আর সম্পত্তির লোভে বারাকপুরে স্ত্রীকে খুন। গতরাতে স্ত্রী রাজশ্রী চট্টোপাধ্যায়কে গুলি করে খুনের অভিযোগে স্বামী সুখদীপ সিংকে গ্রেফতার করল নোয়াপাড়া থানার পুলিশ। প্রথমে গল্প ফাঁদলেও কথায় একাধিক অসঙ্গতি ছিল সুখদীপের। পরে পুলিশি জেরায় খুনের কথা স্বীকার করে নিয়েছে সুখদীপ।

    আরও পড়ুন: কাশ্মীরে তিন অপহৃত পুলিশকর্মীকে হত্যা করল জঙ্গিগোষ্ঠী

    আষাঢ়ে গল্প ফেঁদেও শেষরক্ষা হল না। রাস্তায় হাঁটার সময় কে বা কারা পিছন থেকে গুলি করে স্ত্রী রাজশ্রী চট্টোপাধ্যায়কে। তারপরে তার হাতের টাকার ব্যাগ ছিনিয়ে পালায়। পুলিশি জিজ্ঞাসাবাদে প্রথমে এমনটাই দাবি করেছিল সুখদীপ সিং।

    আরও পড়ুন: প্রাথমিক শিক্ষকের চাকরি দেওয়ার নামে বিপুল টাকার প্রতারণা

    ৬ বছর আগে বিয়ে হয় রাজশ্রী-সুখদীপের। বারে কাজ করত সুখদীপ। সেখান থেকেই আলাপ ও বিয়ে। রাজশ্রীর বাবা পুলিশের উচ্চপদস্থ কর্তা ছিলেন। তাঁর মৃত্যুর পর সব সম্পত্তি পান ছোট মেয়ে রাজশ্রী। এ বছরের মে মাসে সম্পত্তি বিক্রির টাকা দিয়ে বারাকপুর আনন্দপুরীতে একটি ফ্ল্যাট কেনেন রাজশ্রী ও সুখদীপ। কেনেন একটি গাড়িও। সেই গাড়ি চালিয়েই সংসার চলত। কিন্তু সম্প্রতি সেই গাড়িও বিক্রি করে দেয় সুখদীপ। সংসারে তেমন আয় না থাকায় বোনকে টাকা দিেয় সাহায্য করতেন রাজশ্রীর দিদি দেবশ্রী ভট্টাচার্য। তবে ইদানিং নানা কারণে তিনিও টাকা দেওয়া বন্ধ করে দেন। দম্পতির কোনও সন্তান ছিল না। বৃহস্পতিবার রাত ৯টা নাগাদ স্কুটি কিনতে যাবে বলে স্ত্রীকে নিয়ে বেরোয় সুখদীপ। বারাকপুর থেকে ট্রেনে চেপে পলতায় নামে। নির্জন ঘোষপাড়া রোডে বন্ধ কারখানার সামনে হাঁটতে হাঁটতে স্ত্রীকে পিছন থেকে গুলি করে সুখদীপ নিজেই। মাথায় গুলি লেগে ঘটনাস্থলেই লুটিয়ে পড়েন রাজশ্রী। আগ্নেয়াস্ত্র রাস্তাতেই ছুড়ে ফেলে দিয়ে নিজেই চিৎকার করে লোক জড়ো করে সুখদীপ। পুলিশের সামনে দেহ জড়িয়ে কুমিরের কান্না শুরু করে।

    আরও পড়ুন: বিজেপির ডাকা বনধ ঘিরে উত্তেজনা রায়গঞ্জে, ভাঙচুর করা হয় সরকারি বাসে

    রাজশ্রীর দিদির অভিযোগের ভিত্তিতে প্রথমে সুখদীপকে আটক করে পুলিশ। টানা জেরার পর শুক্রবার তাকে গ্রেফতার করা হয়। খুনের কথা স্বীকার করে নিয়েছে সুখদীপ, দাবি পুলিশের। জেরায় সুখদীপ পুলিশকে জানিয়েছে, ফ্ল্যাটটি তার নামে করে দেওয়ার জন্য স্ত্রীকে চাপ দিত সে। তাতে রাজি ছিলেন না রাজশ্রী। বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কে নিয়েও স্ত্রীকে সন্দেহ করত সে। আগেও স্বামী-স্ত্রীর অশান্তি গড়িয়েছিল থানা পর্যন্ত। সব মিলিয়ে অশান্তি চরমে উঠলে স্ত্রীকে খুনের পরিকল্পনা করে সুখদীপ। আরও সিসিটিভি ফুটেজ খুঁজছে পুলিশ।

    First published:

    Tags: Barrackpore, Extra Marital Affairs

    পরবর্তী খবর