• Home
  • »
  • News
  • »
  • crime
  • »
  • প্রথম স্ত্রীকে সঙ্গে নিয়ে ২৫ লাখের দাবি-খুনের হুমকি, স্বামীর বিরুদ্ধে থানায় সমাজকর্মী

প্রথম স্ত্রীকে সঙ্গে নিয়ে ২৫ লাখের দাবি-খুনের হুমকি, স্বামীর বিরুদ্ধে থানায় সমাজকর্মী

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

যদিও এতদিন ধরে অভিযোগকারিণী অন্য বাড়িতেই রয়েছেন। সেখানেই তাঁর স্বামী মাঝে মধ্যে যান। প্রথম আট মাস বেশ ভালোই কাটছিল তাঁদের। তার পর থেকেই শুরু হয় অশান্তি, নানা ছোটখাটো বিষয় নিয়ে তাঁদের মধ্যে ঝামেলা শুরু হয়।

  • Share this:

    #আহমেদাবাদ: স্ত্রীর উপর জুলুমবাজির নজির গুজরাটে। গত বুধবার আহমেদাবাদের জুহাপুরে ৬০ বছরের এক মহিলা পুলিশের কাছে স্বামীর বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগে তাঁর দাবি, স্বামী তাঁর কাছ থেকে ২৫ লক্ষ টাকা দাবি করেছেন যাতে প্রথম স্ত্রীর সঙ্গে তিনিও সহাবস্থানে থাকতে পারেন। সমাজকর্মী হিসেবে কর্মরত ওই মহিলা ভেজালপুর পুলিশ স্টেশনে অভিযোগ দায়ের করেছেন। তাঁর অভিযোগ, স্বামী তাঁর থেকে ওই টাকা নিয়ে তাঁর প্রথম স্ত্রীকে দিতে চান।

    অভিযোগকারিণীর দাবি, তিনি প্রথম ১৫ বছর বয়সে বিয়ে করেছিলেন। বিয়ের ১১ বছর পর তাঁর প্রথম স্বামী মারা যান। তার পর ১৫ বছর আগে ফের তিনি দ্বিতীয় বিয়ে করেছিলেন। সেটি ছিল ২০১৯-এর ১ সেপ্টেম্বর। ওই ব্যক্তি সেই সময়ই বিবাহিত ছিলেন এবং তাঁর দুই সন্তানও ছিল। স্বামী সেই সময় বলেছিলেন, তাঁর প্রথম স্ত্রী রাজি হলে তবেই অভিযোগকারিণীকে বাড়িতে নিয়ে যাবেন তিনি।

    যদিও এতদিন ধরে অভিযোগকারিণী অন্য বাড়িতেই রয়েছেন। সেখানেই তাঁর স্বামী মাঝে মধ্যে যান। প্রথম আট মাস বেশ ভালোই কাটছিল তাঁদের। তার পর থেকেই শুরু হয় অশান্তি, নানা ছোটখাটো বিষয় নিয়ে তাঁদের মধ্যে ঝামেলা শুরু হয়। এমনকী শারীরিক ভাবে অসুস্থ হয়ে পড়লেও স্বামী তাঁকে ডাক্তারের কাছে নিয়ে যাননি বলে দাবি অভিযোগকারিণীর।

    গত ৫ ফেব্রুয়ারি স্বামী তাঁর কাছ থেকে একটি মোবাইল ফোন ও একটি স্কুটার দাবি করেন। জুহাপুরায় গিয়ে স্বামীকে স্কুটার ও ফোন কিনে দেওয়ার সময় স্বামী তাঁর প্রথম স্ত্রী ও সন্তানদের নিয়ে এসে হাজির হন। এর পরেই তাঁর কাছে ২৫ লক্ষ টাকা দাবি করেন স্বামী, এবং হুমকি দিতে শুরু করেন। তাঁদের সঙ্গে থাকতে হলে এই ২৫ লক্ষ টাকা দিতেই হবে বলে হুঁশিয়ারি দেওয়া হয়। টাকা না দিলে প্রথম স্ত্রী অভিযোগকারিণীকে প্রাণে মারারও হুমকি দেন বলে অভিযোগ।

    এলাকায় অভিযোগকারিণীর নামে রটাতে শুরু করেন স্বামী। বলা হয়, তিনি ১২টি বিয়ে করেছেন আগে। তিনি তাঁর ১৩তম স্বামী। প্রথমে মানহানির মামলা করে স্বামীকে নোটিস পাঠিয়েছিলেন মহিলা। তাতে কোনও কাজ না হওয়ায় শেষ পর্যন্ত পুলিশের দ্বারস্থ হয়েছেন তিনি।

    Published by:Raima Chakraborty
    First published: