ট্রলিতে ভরা কেয়ারটেকার দম্পতির দেহ উদ্ধার

ট্রলিতে ভরা কেয়ারটেকার দম্পতির দেহ উদ্ধার
Video Grab

লুঠ নয়, পরিকল্পনা করে খুন, প্রাথমিক তদন্তে অনুমান পুলিশের।

  • Share this:

#নরেন্দ্রপুর: বাগানবাড়ি থেকে উদ্ধার কেয়ারটেকার দম্পতির দেহ। নরেন্দ্রপুরের তিউড়িয়ায় খুনের পর জোড়া দেহ ট্রলি ব্যাগে ভরে রাখে আততায়ী। লুঠ নয়, পরিকল্পনা করে খুন, প্রাথমিক তদন্তে অনুমান পুলিশের। এলাকায় সিসিটিভি না থাকায় সমস্যা। নিহতদের মোবাইলের কললিস্ট ঘেঁটে সূত্র পেতে চাইছে পুলিশ। ঘটনাস্থলে যাবে ফরেনসিক টিম।

নরেন্দ্রপুরের তিউড়িয়ায় বাগানবাড়িতে রহস্য মৃত্যু ৷ কেয়ারটেরা দম্পতির রহস্য মৃত্যু, ট্রলি থেকে উদ্ধার ২টি দেহ৷ এই বাগানবাড়িতে গত বাইশ বছর ধরে কেয়ারটেকার হিসেবে থাকতেন প্রদীপ ও আলপনা বিশ্বাস ৷ মঙ্গলবার সকালে বাথরুম থেকে উদ্ধার হল ট্রলি ভরতি তাঁদের দেহ{ ঘরের মধ্যেও ছড়িয়ে ছিটিয়ে ছিল রক্তের দাগ ৷ প্রদীপ বিশ্বাসের ভাইরা ট্যাংরায় থাকেন ৷গত রবিবার দাদার সঙ্গে শেষ বার কথা হয় প্রদীপবাবুর ভাই জয় বিশ্বাসের৷ তার পর থেকে দম্পতির সঙ্গে যোগাযোগ করা যায়নি ৷বাগানবাড়ির মালিক, কসবার রাজডাঙার বাসিন্দা দীপঙ্কর দেও যোগাযোগ করতে পারেননি ৷ মঙ্গলবার প্রদীপবাবুর ভাই বাগানবাড়িতে যান{ এরপরই উদ্ধার দাদা-বৌদির দেহ ৷

- বিবস্ত্র ছিলেন প্রদীপ বিশ্বাস
- আলপনা বিশ্বাসের গলায় গামছা জড়ানো ছিল - বাঁধা ছিল মহিলার হাত - পচন ধরা শরীরে আঘাতের চিহ্ন ঘরে ধস্তাধস্তির চিহ্ন স্পষ্ট  ৷ - আলমারি থেকে উদ্ধার আড়াই হাজার টাকা - মেঝেতে রক্ত মোছার প্রমাণ মিলেছে

পুলিশের প্রাথমিক অনুমান, লুঠ নয়, পরিকল্পনা করেই খুন কেয়ারটেকার দম্পতি{ চারপাশ ফাঁকা ৷  বাগানবাড়ির আশপাশে কোনও সিসিটিভি নেই ৷ ফলে বাড়িতে কাদের যাতায়াত ছিল, তা স্পষ্ট হচ্ছে না ৷  দম্পতির দু'টি মোবাইল ফোনের কললিস্ট খতিয়ে দেখা হচ্ছে ৷ প্রায় সাত বিঘা জমির উপর এই বাগানবাড়ি{ ফলে যেকোনও জায়গায় দেহ পুঁতে ফেলতে পারত আততায়ীরা{ খুনের পিছনে পরিচিত কেউ রয়েছে বলে অনুমান পুলিশের ৷

First published: July 31, 2019, 10:47 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर