একমাস আগে খুন হয়েছিল যুবক, ঘটনায় জড়িত সন্দেহে অবশেষে গ্রেফতার ১

একমাস আগে খুন হয়েছিল যুবক, ঘটনায় জড়িত সন্দেহে অবশেষে গ্রেফতার ১

পুলিশের আশা ধৃতকে জিজ্ঞাসাবাদ করে খুনের পূর্নাঙ্গ তথ্য জানা যাবে।

পুলিশের আশা ধৃতকে জিজ্ঞাসাবাদ করে খুনের পূর্নাঙ্গ তথ্য জানা যাবে।

  • Share this:

#হেমতাবাদ:  হেমতাবাদের খুনের ঘটনায় পুলিশ রঞ্জিত বর্মন নামে এক যুবককে গ্রেফতার করল হেমতাবাদ থানার পুলিশ।১৪ দিনের পুলিশি হেফাজতের আবেদন জানিয়ে ধৃতকে আজ রায়গঞ্জ আদালতে হাজির করে হেমতাবাদ থানার পুলিশ। আদালত ১০ দিনের পুলিশি হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেয় আদালত। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে হেমতাবাদ থানার পুলিশ। গত ২৭ জানুয়ারি রাতে মোটরবাইক নিয়ে বাড়ি যাবার সময় হেমতাবাদের চৈনগর কাহালই সেতুর  কাছে রাজীব লোচন সরকার নামে এক যুবকের রক্তাক্ত মৃতদেহ উদ্ধার হয়। দেহের পাশ থেকে একটি তাজা কার্তুজ উদ্ধার হয়েছিল।রাজীবের দমরানো মোচরানো মোটরবাইকটি পুলিশ উদ্ধার করেছিল।প্রাথমিকভাবে পুলিশ যুবকের মৃতদেহ নিয়ে ধন্দে পড়েছিল।  ময়নাতদন্তে জানা যায় রাজীবকে গুলি করে  দুষ্কৃতীরা হত্যা করে। কোথায় তাঁকে খুন করা হয়েছে একমাস পরেও পুলিশ ঘটনা সম্পর্কে নিশ্চিত হতে পারেনি। খুনের কারণ নিয়ে পুলিশ ধন্দে আছে। ঘটনার তদন্তে গিয়েছিলেন  রায়গঞ্জ পুলিশ জেলার পুলিশ সুপার সুমিত কুমার। অভিযুক্তদের খুব শীঘ্রই গ্রেফতার করা হবে এই আশ্বাসের পরও একমাস পরেও যুবক খুনের ঘটনায় রহস্য উদঘাটন করতে পারেনি।  খুনের ঘটনায় রহস্য উদঘাটনের জন্য রামপুরের এক যুবককে গ্রেফতার করেছিল। তাঁকে গ্রেফতারের পরেও দুষ্কৃতীদের গ্রেফতার করতে পারেনি। ধৃতকে জিজ্ঞাসাবাদ করে জানতে পেরেছিল ওইদিন রাতে রাজীব বন্ধুদের নিয়ে আকণ্ঠ মদ্যপান করেছিল। মদ্যপান করে বাড়ি ফেরার সময় দুষ্কৃতীরা তাকে খুন করে।

শনিবার রাতে রায়গঞ্জ থানার  বড় বড়ুয়া গ্রামে রঞ্জিত বর্মন নামে এক যুবককে গ্রেফতার করে হেমতাবাদ থানার পুলিশ। তদন্তের স্বার্থে ১৪ দিনের পুলিশি হেফাজতে আবেদন জানিয়ে রায়গঞ্জ আদালতে পেশ করে।  ১০ দিন পুলিশি হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেয় আদালত। হেমতাবাদ থানার পুলিশ জানিয়েছে, খুনের কারন এখনও জানা যায় নি। তদন্ত চলছে। জিজ্ঞাসাবাদ করে ঘটনার আসল কারন জানা যাবে। পুলিশের আশা ধৃতকে জিজ্ঞাসাবাদ করে খুনের পূর্নাঙ্গ তথ্য জানা যাবে।

Uttam Paul

Published by:Debalina Datta
First published: