শ্লীলতাহানিতে অভিযুক্ত ছয় জামিনে মুক্ত, তারপর যা করলেন শিউড়ে উঠতে হয় কীর্তিকলাপ দেখে

শ্লীলতাহানিতে অভিযুক্ত ছয় জামিনে মুক্ত, তারপর যা করলেন শিউড়ে উঠতে হয় কীর্তিকলাপ দেখে
Photo- Representive

সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল ঘটনার ভিডিও ক্লিপ

  • Share this:

#লখনউ:  একদিকে দেশের অন্যতম শিরোনামে থাকা ধর্ষণকাণ্ড-  অর্থাৎ নির্ভয়া গণধর্ষণ ও হত্যার  ন্যায় বিচারের জন্য যখন ‘তারিখ পে তারিখ’ আসছে, ঠিক সেই সময়েই আরও একবার নারী নির্যাতনের এক চাঞ্চল্যকর ঘটনায় শিউড়ে উঠছে গোটা দেশ ৷ কানপুরে যে ঘটনা ঘটেছে তার তীব্রতায় শিউড়ে উঠছেন সকলে ৷

২০১৮ সালে ১৩ বছরের এক কিশোরীকে শ্লীলতাহানি করেছিল একদল পুরুষ -তারা জামিনে ছাড়া পেয়ে নিল চরম বদলা ৷ নিগৃহীতার বাড়িতে ঢুকে বেধড়ক মারধর করে নিগৃতীহাত মা ও কাকীমাকে ৷ শ্লীলতহানির শিকার হওয়া কিশোরীর মা বছর চল্লিশের ওই ভদ্রমহিলাকে এতই মারা হয়েছে যার জেরে তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে , সেখানেই সেই মহিলার মৃত্যু হয় ৷

এই গোটা ঘটনার ভিডিও ক্লিপও ভাইরাল হয়েছে বলে দাবি সংবাদমাধ্যমের এক অংশের ৷ যেখানে দেখা যাচ্ছে বাড়িতে ঢুকে মহিলার মুখে লাথি মারছে অভিযুক্তরা ৷ যে এই কাজটি করছে তার পরণে সাদা কুর্তা ও প্যান্ট !

আরও পড়ুন - উইকএন্ডে রাজ্য ভাসবে বৃষ্টিতে, কী জানাচ্ছে আবহাওয়া দফতর

বাড়ির অন্য মহিলাকেও একইভাবে প্রচন্ড মার দেওয়া হয়েছে ৷ তাঁর অবস্থাও আশঙ্কাজনক ৷ শ্লীলতাহানিক অভিযুক্তরা এক সপ্তাহ আগে জামিনে মুক্ত হয়েছিল ৷ তারপরেই তারা এইরকম নক্কারজনক হামলা চালায় ৷ নিগৃহীতার মা দু'বছর আগে মেয়ের শ্লীলতাহানির ঘটনা পুলিশের কাছে অভিযোগ করেছিলেন ৷ একটি চামড়ার কারখানার ভিতরে ১৩ বছরের নাবালিকাকে শ্লীলতাহানি করেছিল অভিযুক্তরা ৷ চাকেরি পুলিশ থানায় আইপিসি ৩৫৪ ধারা অনুযায়ি পাঁচ জন শিশুকে যৌন নিগ্রহ করার জন্য অভিযুক্ত ছিল ৷ তারপর তাদের জেলে পাঠানো হয় ৷ এক সপ্তাহ আগে জামিনে বাইরে এসে তারা প্রতিশোধ নেওয়ার প্ল্যান করে ৷ সেই মোতাবেক তারা ওই মহিলা ও তার বোনকে ভয়ানকভাবে আক্রমণ করে ৷ ঘটনাটি ঘটে জানুয়ারির ৯ তারিখ ৷

আরও দেখুন

First published: January 18, 2020, 9:31 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर