• Home
  • »
  • News
  • »
  • coronavirus-latest-news
  • »
  • ‘ভয়কে জয় করতেই হবে, আগামী দিনে করোনাকে সঙ্গে নিয়েই বাঁচতে হবে’, মন্তব্য করোনায়. আক্রান্ত পুলিশকর্মীর

‘ভয়কে জয় করতেই হবে, আগামী দিনে করোনাকে সঙ্গে নিয়েই বাঁচতে হবে’, মন্তব্য করোনায়. আক্রান্ত পুলিশকর্মীর

‘ভয়কে জয় করতেই হবে, আগামী দিনে করোনাকে সঙ্গে নিয়েই বাঁচতে হবে’, মন্তব্য করোনায়. আক্রান্ত পুলিশকর্মীর

‘ভয়কে জয় করতেই হবে, আগামী দিনে করোনাকে সঙ্গে নিয়েই বাঁচতে হবে’, মন্তব্য করোনায়. আক্রান্ত পুলিশকর্মীর

‘ভয়কে জয় করতেই হবে, আগামী দিনে করোনাকে সঙ্গে নিয়েই বাঁচতে হবে’, মন্তব্য করোনায়. আক্রান্ত পুলিশকর্মীর

  • Share this:

#কলকাতা: বিশ্বজুড়ে প্রতিদিন নভেল করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। প্রায় ২৩ লাখ মানুষ এখন সারা বিশ্বে নভেল করোনা আক্রান্ত। করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়ার সংখ্যাও প্রতিদিন বেড়ে চলেছে গোটা বিশ্বে। গোটা বিশ্বে এখন করোনা আক্রান্ত প্রায় ৫৬ লাখ মানুষ। ৩ লাখ ৫০ হাজার এর উপরে মানুষ মারা গিয়েছে করোনা আক্রান্ত হয়ে। ভারতবর্ষও এর ব্যতিক্রম নয়। দেড় লক্ষাধিক  মানুষ গোটা দেশে করোনা আক্রান্ত। করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে এখনও পর্যন্ত ৪ হাজার ৪০০ জনের কাছাকাছি। এ রাজ্যও তার ব্যতিক্রম নয়। পশ্চিমবঙ্গে, রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তরের হিসাব অনুযায়ী  রাজ্যে সক্রিয় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত এখন ৪১৯২ জন। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য দফতরের তথ্য অনুযায়ী করোনা আক্রান্ত হয়ে এ রাজ্যে ২৮৯ জনের মৃত্যু হয়েছে।

এ রাজ্যে পুলিশকর্মীদের মধ্যে গত এক মাসের মধ্যে প্রায় ৭৫ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে কলকাতা পুলিশ ট্রেনিং স্কুল বা পিটিএস এর  ৩০ জন পুলিশ কর্মী করোনা আক্রান্ত হন। গত মঙ্গলবার করোনা আক্রান্ত হওয়ার জেরে কলকাতা পুলিশ ট্রেনিং স্কুল বা পিটি এস এ ব্যাপক বিক্ষোভ দেখান নিচুতলার পুলিশ কর্মীরা। কলকাতা পুলিশ ট্রেনিং স্কুল বা পিটি এস এর কলকাতা পুলিশ কমব্যাট ফোর্সের কর্মী পুরুলিয়ার বাসিন্দা এক তরুণ গত ১৪ মে করোনা আক্রান্ত হয়ে ই এম বাইপাসের পাশের দিশান হাসপাতালে ভর্তি হন। ১৩ দিন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকার পর বুধবার সুস্থ হয়ে হাসপাতাল থেকে ছাড়া পান এই তরুণ পুলিশ কর্মী।

বাড়ি ফেরার আগে হাসপাতালে তার চিকিৎসার জন্য তৈরি করা চিকিৎসক,নার্স,স্বাস্থ্যকর্মী সহ গোটা টীম তাকে করতালি দিয়ে সম্বর্ধনা জানান। ফুলের স্তবক দিয়ে এই তরুণ পুলিশকর্মীকে উৎসাহ যোগান হাসপাতাল কর্মীরা। এই নিয়ে রাজ্যে মোট ১৫৭৮ জন করোনা আক্রান্ত রোগী সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরলেন।

' করোনা হয়েছে শুনে প্রথমে খুব ভেঙে পড়েছিলাম। কিন্তু মন শক্ত করে নিজেকে বোঝাই যে, মরার আগে মরে যাওয়ার কোনো প্রশ্নই ওঠে না। এর সঙ্গে নিজেকে লড়াই করতে হবে। পরিবারের মুখের দিকে তাকিয়ে মন শক্ত করি। ডক্টর,নার্সরা যেমন যেমন নির্দেশ দিত, তা পালন করতাম। জানতাম,দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠবো। তবে হাসপাতালের ডাক্তার,নার্স, স্বাস্থ্য কর্মী সহ প্রত্যেকে প্রতি মুহূর্তে আমাকে মনোবল জুগিয়ে গেছে। আজ আমি সুস্থ,আবার বাড়ি ফিরব। যদিও আগামী ৭ দিন নিয়ম করে quarantine বা আলাদা করে পর্যবেক্ষণে থাকব। এর পরে যত দ্রুত সম্ভব আবার কাজে যোগ দেব। প্রত্যেককে বলব,ভয় না পেয়ে এই মারণ রোগকে সহজেই জব্দ করা যাবে। আমরা প্রত্যেকে যদি একটু সচেতন, সতর্ক থাকি, তবে এই রোগকে মোকাবিলা করা মোটেই কঠিন কাজ নয়।' সুস্থ হয়ে বাড়ি ফেরার পথে অকপট স্বীকারোক্তি তরুণ পুলিশ কর্মীর।

Abhijit Chanda
Published by:Elina Datta
First published: