গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা জনপ্রিয় টিভি তারকার, অসহায় স্ত্রীর চিৎকার, করোনার ভয়ে দূরে সবাই

মনমীত আর নেই ৷

স্ত্রীর করুণ চিৎকার, জীবনের যেন সব থেকে বড় হারানোর যন্ত্রণা অনুভব করছিলেন সেই সময়ে

  • Share this:

    #মুম্বই: নবি মুম্বইয়ের খারঘরে বিল্ডিং থেকে এক মহিলার হঠাৎ চিৎকার কানে ভেসে আসছে ৷ এই চিৎকার যেন সব হারানোর চিৎকার, এই চিৎকার আসলে তাঁর ঝুলন্ত স্বামীকে নীচে নামানোর জন্য আশে পাশের সবার কাছে থেকে সাহায্য প্রার্থনার চিৎকার ৷ কিন্তু কেউ কি শুনছেন  তাঁর কথা ? করোনা ভাইরাসের কারণেই তাঁর ডাকে কেউ সাড়া দেননি, এমনটাই মনে করা হচ্ছে ৷ ঘরেও কেউ প্রবেশ করেননি ৷ গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলছেন স্বামী ৷ হয়ত শেষ নিঃশ্বাস বাকি আছে, ঝুলন্ত স্বামীকে একার পক্ষে নীচে নামানো সম্ভব হচ্ছেনা বলেই তিনি চিৎকার করছেন ৷

    কিন্তু সেই অভাগীকে কেউ সাহায্য করার জন্য এগিয়ে আসেনি ৷ এমনই এক ভয়াবহ পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে তখনই যখন জনপ্রিয় টিভি অভিনেতা মনমীত গ্রেওয়াল স্ত্রীকে ছেড়ে যাওয়ার কথা ভেবেই ফেলেছিলেন ৷ মনে মনে সেটিকে কার্যকর করার জন্য রাত্রিবেলা স্ত্রীর থেকে দূরে সরে গিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন ৷ জানতে পারা গিয়েছে মনমীত আতঙ্কগ্রস্ত ছিলেন ৷ ক্রমশই আর্থিক অবস্থা খারাপ হচ্ছিল, বাড়ছিল চাপও ৷ চাপে পড়েই আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছিলেন তিনি ৷

    বিগত কিছু সময় ধরে ঋণে ডুবে যাছিলেন তিনি ৷ সম্প্রতি বেশি কিছু টিভি ধারাবাহিকেরর মাধ্যমে সেই সমস্ত আতঙ্ক কম করার জন্য দ্রুততার সঙ্গে রোজগার করার চেষ্টা শুরু করেছিলেন ৷ এরই মাঝে করোনা বিপর্যয় ও লকডাউন যেন ভিতর থেকে তাঁকে ক্ষতবিক্ষত করে তুলেছিল ৷ তাঁর আর্থিক  অবস্থা অত্যন্ত খারাপ হতে থাকে, লড়াই করতে করতে ক্লান্ত হয়ে পড়েন, অবশেষে  সব লড়াই শেষ হয়ে যায় ৷

    স্ত্রীর করুণ আর্তনাদেও কেউ পৌঁছে দেহ নামানোর চেষ্টা করেননি, মনমীতের নিথর দেহ অবশেষে নীচে নামানো হয়েছে পুলিশের সৌজন্যে, এসেছিলেন একটি চিকিৎসকের দলও ৷ এক ঘণ্টা পরে ঝুলন্ত দেহ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকেরা মৃত বলে ঘোষণা করেছেন ৷ এক মুহূর্তেই যেন সমস্ত লড়াই, সমস্ত যন্ত্রণার অবসান হল ৷

    Published by:Arjun Neogi
    First published: