corona virus btn
corona virus btn
Loading

করোনা মোকাবিলায় সবাই মিলে লড়াইয়ের ডাক সৌরভের, গৃহবন্দি থাকার আবেদন

করোনা মোকাবিলায় সবাই মিলে লড়াইয়ের ডাক সৌরভের, গৃহবন্দি থাকার আবেদন

ভিডিও বার্তা মহারাজের ৷

  • Share this:

#কলকাতা: করোনা সংক্রমণ আটকাতে দেশজুড়ে ২১ দিন লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। প্রধানমন্ত্রীর সিদ্ধান্তকে সমর্থন করে দেশবাসীকে এই নিয়ম মানার জন্য আবেদন করলেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। একটি ভিডিও বার্তা দেন সৌরভ। সঙ্গে লেখেন, সবাইকে একসঙ্গে লড়াই করতে হবে। একসঙ্গে সবাই মিলে লড়াই করলেই আমরা করোনা ভাইরাসের প্রকোপ থেকে বেরিয়ে আসতে পারবো। ভিডিও বার্তাতেও মহারাজ বলেন, "করোনা সংক্রমণ আটকাতে আইসোলেশনে থাকাটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। এই সময়টা খুব কঠিন পরীক্ষার। কিন্তু আমাদের এটা পালন করতেই হবে। কেন্দ্র, রাজ্য সরকার যা নির্দেশ দিচ্ছে সেগুলো মেনে চলুন। স্বাস্থ্য দফতর ও চিকিৎসকদের পরামর্শ শুনুন। নিজে থেকে সিদ্ধান্ত নেওয়া ঠিক নয়। তবে নিজেকে গৃহবন্দি রাখাটা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। জানি এটা করা কঠিন কিন্তু আমাদের করতেই হবে। তাহলেই হয়তো এভাবে আমরা করোনা ভাইরাসকে হারাতে পারব।"

এই ভিডিও বার্তা পোস্ট করার আগে সৌরভ সোশ্যাল মিডিয়ায় আরও একটি পোস্ট করেন। সেই পোস্টে ছিল শহরের কিছু জায়গার ছবি। চেনা শহরকে অচেনা রূপে দেখে হতবাক হয়ে যান সৌরভ। সৌরভের ছবিগুলিতে ছিল হাওড়া ব্রিজ, রেড রোড, ময়দান চত্বর, নিউটাউনের ফ্লাইওভার। প্রত্যেকটা ছবিতেই কোনও মানুষ বা গাড়ির দেখা নেই। শুনশান তিলোত্তমার ছবি পোস্ট করেন সৌরভ। প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক লেখেন, কখনও ভাবিনি আমার শহরকে এইরকম দেখব। সবাই নিরাপদে থাকুন। এই পরিস্থিতি দ্রুত বদলে যাবে, যা হচ্ছে সেটা ভালোর জন্যই। সবাইকে ভালোবাসা ।"

এর আগেও জনতা কার্ফু সমর্থন করে সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছিলেন সৌরভ। গত সপ্তাহ থেকে নিজেকে গৃহবন্দী রেখেছেন মহারাজ। জনতা কার্ফু চলার সময় বাড়ি ছোটদের সঙ্গে ক্যারাম খেলতে দেখা যায় সৌরভকে। গত সপ্তাহে গৃহবন্দি থাকা নিয়ে আরও একটি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছিলেন বোর্ড প্রেসিডেন্ট। সৌরভ ছবি পোস্ট করে লিখেছেন," করোনা আতঙ্কের ছায়া। বিকেল পাঁচটা বারান্দায় বসে আছি। শেষ এরকম কবে সময় কাটিয়েছি মনে করতে পারছিনা।" ছবিতে দেখা যাচ্ছে সৌরভ একটি চেয়ারে বসে আছেন।

অন্যদিকে আইপিএল 'র ভবিষ্যৎ নিয়ে মঙ্গলবার ভিডিও কনফারেন্স হওয়ার কথা থাকলেও সেটি বাতিল করা হয়। সংবাদ সংস্থাকে সাক্ষাৎকারে সৌরভ জানিয়েছেন, আইপিএলে নিয়ে কোনও ভবিষ্যৎ ঠিক করে উঠতে পারিনি বোর্ড। তবে বিসিসিআই সূত্রে খবর, চলতি বছর আইপিএল আয়োজন হওয়া নিয়ে ঘোর অনিশ্চয়তা রয়েছে কর্তাদের মধ্যেই। আপাতত ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত স্থগিত রয়েছে আইপিএল।

Eeron Roy Barman

First published: March 25, 2020, 8:02 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर