Home /News /coronavirus-latest-news /
দিনের শেষে স্বস্তিতে শিলিগুড়ি! সচেতনতাই অস্ত্র, বলছেন বিশেষজ্ঞরা

দিনের শেষে স্বস্তিতে শিলিগুড়ি! সচেতনতাই অস্ত্র, বলছেন বিশেষজ্ঞরা

স্বাস্থ্যবিধি না মানলে নালিশ নয়, নিজে গিয়ে সচেতন করুন। এমনই কথা বলছিলেন রাজ্যের এক বিশিষ্ট চিকিৎসক।

  • Share this:

#‌শিলিগুড়ি:‌ দিনের শেষে স্বস্তি এল শহরে! সাম্প্রতিক কালের নয়া রেকর্ড! এভাবে চললে আগামীদিনে ভালো খবরই আসবে শহরে। আর তাই স্থানীয় বাসিন্দাদের আরো বেশি সজাগ ও সচেতন হতে হবে। শুধু নিজে হলেই হবে না, অন্যকেও সচেতন করে তোলার দায়িত্ব নিতে হবে। সরকারীভাবে সচেতনতা প্রচার চলছে। বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনও প্রচার চালিয়ে আসছে। সাধারন মানুষকেও এগিয়ে আসতে হবে। নিজেকে বাঁচাতে। নিজের পরিবারকে বাঁচাতে। নিজের মহল্লাকে বাঁচাতে। বিনা মাস্ক বা ফেস কভারে কেউ বের হলে সঙ্গে সঙ্গে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিকে বোঝাতে হবে। জটলা বা আড্ডা দেখলে সরে যাওয়ার বার্তা দিতে হবে। এভাবে সকলে এগিয়ে এলেই করোনার বিরুদ্ধে যুদ্ধে জয় সম্ভব।

স্বাস্থ্যবিধি না মানলে নালিশ নয়, নিজে গিয়ে সচেতন করুন। এমনই কথা বলছিলেন রাজ্যের এক বিশিষ্ট চিকিৎসক। শিলিগুড়িতে স্বাস্থ্য কর্তাদের নিয়ে বৈঠকের পর তিনি বলছিলেন, সাধারন মানুষ এগিয়ে এলেই সচেতনতার কাজ গতি পাবে। কমবে সংক্রমণ। কেন না কোভিডের বিরুদ্ধে স্বাস্থ্য দফতরের যে নির্দেশিকা জারি করেছে, তা মেনে চলা অত্যন্ত জরুরি। তাহলেই মুখে ফুটবে হাসি। শিলিগুড়ি পুর এলাকার বাসিন্দারা কিছুটা মানতে শুরু করেছেন। আর তাই সুফলও পেতে শুরু করছে শহর। গত ২৪ ঘন্টায় শিলিগুড়ি পুরসভার ৪৭টি ওয়ার্ড এবং দার্জিলিংয়ের পাহাড় ও সমতলের গ্রামীন এলাকা মিলিয়ে নতুন করে আক্রান্ত ৩৮ জন। স্বস্তিদায়কই বটে! এর মধ্যে পুর এলাকায় আক্রান্ত ১৪ জন! শিলিগুড়ির গ্রামীন এলাকাতেও স্বস্তির হাওয়া। গত ২৪ ঘন্টায় আক্রান্ত ১৫ জন। পাহাড়ে নতুন করে আক্রান্ত ৯ জন। দার্জিলিং পুরসভা এলাকায় ২ জন, কার্শিয়ং পুর এলাকায় ৪ জন, সুকনায় ২ এবং সুখিয়াপোখরিতে ১ আক্রান্তের খোঁজ মিলেছে। এদিকে শিলিগুড়িতে নতুন করে চারটে ওয়ার্ডকে কনটেইনমেন্ট জোন করা হয়েছে। পুরসভার ২, ১৫, ১৭ এবং ২৯ নং ওয়ার্ডকে কনটেইনমেন্ট জোন হিসেবে ঘোষণা করেছে প্রশাসন। এদিন শিলিগুড়িতে ২ জন আক্রান্তের মৃত্যু হয়েছে। দু'জনই পুরসভার বাসিন্দা। অন্যদিকে আক্রান্তের গ্রাফ যেমন নেমেছে, সুস্থতার হারও ভালোই। এদিন ১৯ জন সুস্থ হয়ে উঠেছেন।

Partha Sarkar

Published by:Uddalak Bhattacharya
First published:

Tags: Coronavirus

পরবর্তী খবর