• Home
  • »
  • News
  • »
  • coronavirus-latest-news
  • »
  • কেন হল প্রাক্তন ক্রিকেটার চেতন চৌহানের মৃত্যু? সিবিআই তদন্তের দাবি উঠল উত্তরপ্রদেশে

কেন হল প্রাক্তন ক্রিকেটার চেতন চৌহানের মৃত্যু? সিবিআই তদন্তের দাবি উঠল উত্তরপ্রদেশে

Photo- File

Photo- File

প্রাক্তন ক্রিকেটার ও রাজ্যের মন্ত্রী চেতন চৌহানের মৃত্যুর তদন্তের দাবি করল উত্তরপ্রদেশের শিবসেনা ৷

  • Share this:

    #লখনউ: প্রাক্তন ক্রিকেটার ও রাজ্যের মন্ত্রী চেতন চৌহানের মৃত্যুর তদন্তের দাবি করল  উত্তরপ্রদেশের শিবসেনা ৷ দিন কয়েক আগে করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছিল তাঁর৷ কোন পরিস্থিতিতে লখনউয়ের সরকারি হাসপাতাল থেকে তাঁকে গুরুগ্রামের একটি বেসরকারি হাসপাতালে তাঁকে স্থানান্তরিত করা হয়েছিল, তা খতিয়ে দেখার দাবি করেছে শিবসেনা৷

    শিবসেনার একটি প্রতিনিধি দল উত্তরপ্রদেশের রাজ্যপাল আনন্দিবেন প্যাটেলকে এই বিষয়ে একটি স্মারকলিপি দেয়৷ ৭৩ বছরের চেতন চৌহান অগাস্টের ১৬ তারিখে করোনা ভাইরাসের শিকার হয়ে মারা যান৷

    প্রাথমিকভাবে তাঁকে সঞ্জয় গান্ধি পোস্টগ্রাজুয়েট ইন্সটিটিউট অফ মেডিক্যাল সায়েন্সেস -লখনউতে ভর্তি করা হয়েছিল৷ তাঁর শরীরে আগে থেকেই কিডনি সংক্রান্ত সমস্যা ছিল৷ তারই জেরে শরীর অত্যধিক খারাপ হয়ে যায়৷ এরপর তাঁকে মেদান্তা হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়৷ সেখানে লাইফ সাপোর্টে ছিলেন ৩৬ ঘণ্টা৷

    শিবসেনা নিজেদের স্মারকলিপিতে জানতে চেয়েছে, ‘কোন পরিস্থিতিতে লখনউয়ের SGPGI হাসপাতাল থেকে তাঁকে গুরুগ্রামের মেদান্তা হাসপাতালে তাঁকে স্থানান্তরিত করা হল৷ ’

    সেখানে আরও বলা হয়েছে, ‘SGPGI চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের ব্যবহারে তিনি মনোক্ষুন্ন হয়েছিলেন৷ কিন্তু এখনও অবধি সেইসব চিকিৎসকদের বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ নেওয়া হয়নি৷ এই পুরো ঘটনা ঘটে যায় আর সরকার নিজের মতো ঘুমোচ্ছে৷ এই নিয়ে কোভিড ১৯ -র শিকার হয়ে ২ জন মন্ত্রীর মৃত্যু হয়েছে৷ ’

    অগাস্টের ২ তারিখ রাজ্যের প্রযুক্তি শিক্ষা মন্ত্রী কমলা রাণী বরুণ করোনা পজিটিভ হওয়ার পর মারা যান৷ তাঁর বয়স হয়েছিল ৬২ বছর৷ শিবসেনা জানিয়েছে, ‘সরকারের পক্ষ থেকে পুরো ঘটনা খতিয়ে দেখতে সিবিআই তদন্ত করা হক ৷’

    এর আগে সমাজবাদী পার্টির সুনীল সিং সাজন বলেছিলেন  SGPGI তে তাঁর চিকিৎসা নিয়ে ছেলেখেলা করা হয়েছে ৷ আর এরই জেরে মারা গেছেন তিনি৷

    শুক্রবার উত্তরপ্রদেশ বিধান সভার আপার হাউসে চেতন চৌহানের মৃত্যু নিয়ে আলোচনা করা হয়৷ সেখানে পরিষ্কার বলা হয় রাজ্য সরকারি হাসাপাতালে খারাপ চিকিৎসার কারণেই প্রাণ হারিয়েছেন প্রাক্তন ক্রিকেটার৷ সমাজবাদী পার্টির সুনীল সিং জানিয়েছেন, তিনিও চৌহানের সঙ্গে একই ওয়ার্ডে ভর্তি ছিলেন৷ তিনি বলেছেন, ‘একদিন রাউন্ডের সময় চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীরা জিজ্ঞাসা করেন কে চেতন চৌহান ? তখন চেতন হাত তোলেন যেন তিনি একজন সাধারণ মানুষ ৷ তাঁকে জিজ্ঞাসা করা হয় তিনি কখন সংক্রমিত হয়েছেন৷ তিনি তখন পুরো বিষয়টি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছে বিবরণ দেন৷ ’

    তাঁকে হাসপাতালে আরও একজন জিজ্ঞাসা করেন তিনি কী করেন৷ এতে তিনি জানিয়েছিলেন তিনি যোগী আদিত্যনাথ সরকারের একজন মন্ত্রী৷ হাসাপাতালের সব ব্যবহারে তিনি একেবারে মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছিলেন৷

    Published by:Debalina Datta
    First published: