corona virus btn
corona virus btn
Loading

দ্বিতীয়বারেও খারাপ টেস্টিং কিট পাঠাল চিনের সংস্থা, স্পেন এখন পুরো অর্থ ফেরত চাইছে

দ্বিতীয়বারেও খারাপ টেস্টিং কিট পাঠাল চিনের সংস্থা, স্পেন এখন পুরো অর্থ ফেরত চাইছে

শেষ পর্যন্ত স্পেন মোট ৬ লক্ষ ৪০ হাজার কিটের দামই ফেরত চেয়েছে। যদিও এর অর্থমূল্য কত, তা এখনও স্পষ্ট করে বলেনি স্পেন।

  • Share this:

#‌মাদ্রিদ:‌ প্রথমবারে একগুচ্ছ করোনা ভাইরাস টেস্টিং কিট চিনের থেকে কিনেছিল স্পেন। সেবারে একটিও কাজে লাগেনি। প্রথমবারের পরিবর্ত হিসাবে দ্বিতীয়বারে যে টেস্টিং কিট চিনের সংস্থা পাঠাল তাও খারাপ বলেই দাবি করেছে স্পেন। স্পেনের স্বাস্থ্য মন্ত্রকের পক্ষ থেকে সে দেশের সংবাদমাধ্যমে দাবি করা হয়েছে, ‘‌বায়োইজি’‌ নামে এক চিনা সংস্থার তৈরি এই টেস্টিং কিটের যথেষ্ট ক্ষমতা নেই। ফলে করোনা ভাইরাস চিহ্নিতকরণ এর দ্বারা সম্ভব নয়।

গতবারে ৫৮ হাজার টেস্টিং কিট পাঠিয়েছিল চিন। কিন্তু গতমাসে পাঠান সেই কিটগুলি কোনই কাজে লাগেনি। স্পেনের স্বাস্থ্যমন্ত্রক জানায়, এগুলি করোনা পজিটিভ চিহ্নিতকরণে সঠিক ফলাফল দিতে পারছে না, তাই এগুলি ফেরানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। চিনের সংস্থা অবশ্য দাবি করেছে, এই মেশিনের সঙ্গে আরও একটি মেশিন ব্যবহার করতে হবে পজিটিভ কেস বুঝতে গেলে, সেটি বিনামূল্যে দেবে সেই সংস্থা।

কিন্তু সেটা কোনওভাবেই কাজে লাগছে না দেখে, শেষ পর্যন্ত স্পেন মোট ৬ লক্ষ ৪০ হাজার কিটের দামই ফেরত চেয়েছে। যদিও এর অর্থমূল্য কত, তা এখনও স্পষ্ট করে বলেনি স্পেন।

অন্যদিকে চিন দাবি করেছে, যে সংস্থার থেকে স্পেন এই টেস্টিং কিট আমদানি করেছে, সেই সংস্থা চিনের স্বাস্থ্যমন্ত্রকের তালিকাভূক্ত নয়। এর টেস্টিং কিটও সরকার অনুমোদিত নয়। ওই সংস্থার বিদেশে টেস্টিং কিট বিক্রির অনুমতি নেই। পাল্টা স্পেন জানিয়েছে, ইউরোপীয় ইউনিয়নে টেস্টিং কিট বিক্রি করার অনুমতি এদের আছে। আর সরসারি এই সংস্থার থেকে কেনার বদলে স্পেনেরই একটি সংস্থার মাধ্যমে এটি কেনা হয়েছিল। ‌

Published by: Uddalak Bhattacharya
First published: April 23, 2020, 7:39 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर