corona virus btn
corona virus btn
Loading

বাড়ছে উদ্বেগ, পূর্ব বর্ধমানে কন্টেইনমেন্ট জোন বেড়েই চলেছে !

বাড়ছে উদ্বেগ, পূর্ব বর্ধমানে কন্টেইনমেন্ট জোন বেড়েই চলেছে !

করোনার সংক্রমণ দিন দিন বাড়তে থাকায় আতঙ্কিত বিভিন্ন সরকারি অফিসের কর্মীরাও।

  • Share this:

#বর্ধমান: পূর্ব বর্ধমান জেলায় কন্টেইনমেন্ট জোনের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। এদিন পর্যন্ত জেলার ৬৭টি জায়গায়কে কন্টেইনমেন্ট জোন ঘোষণা করে সেখানে লকডাউন পালন করা হচ্ছে। জেলায় প্রতিদিনই করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তে থাকায় উদ্বিগ্ন বাসিন্দারা। অনেকেই এখন করোনার উপসর্গ নিয়ে বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল এবং কালনা ও কাটোয়া মহকুমা হাসপাতালে নমুনা পরীক্ষার জন্য ভিড় করছেন। করোনার সংক্রমণ দিন দিন বাড়তে থাকায় আতঙ্কিত বিভিন্ন সরকারি অফিসের কর্মীরাও।

পূর্ব বর্ধমান জেলায় গত চব্বিশ ঘণ্টায় নতুন করে পাঁচ জন করে আক্রান্ত হয়েছেন। তাদের মধ্যে বর্ধমান পৌরসভা এলাকায় রয়েছেন একজন। কালনা পৌরসভা এলাকাতেও একজন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। এছাড়া কালনা এক নম্বর ব্লকে একজন, পূর্বস্থলী এক নম্বর ব্লকে এক জন, মঙ্গলকোট ব্লকেও একজন আক্রান্ত হয়েছেন। জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, জেলার ৬৭টি এলাকায় এখন কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে। তার মধ্যে বর্ধমান পৌরসভা এলাকাতেই রয়েছে সাতটি কন্টেইনমেন্ট জোন। কাটোয়া পৌরসভা এলাকাতেও  সাতটি কন্টেইনমেন্ট জোনে লকডাউন চলছে। কালনা পৌরসভা এলাকায় রয়েছে দুটি কন্টেইনমেন্ট জোন। এছাড়া দাঁইহাট পৌরসভা এলাকা ও মেমারি পৌরসভা এলাকা একটি করে কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে।

সবচেয়ে বেশি কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে কেতুগ্রাম এক নম্বর ব্লকে। সেখানে আটটি জায়গায় কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে। এছাড়া মেমারি এক নম্বর ব্লকে সাতটি কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে। মেমারি দু'নম্বর ব্লকে রয়েছে চারটি কন্টেইনমেন্ট জোন। কালনা এক নম্বর ব্লকে রয়েছে পাঁচটি কন্টেইনমেন্ট জোন। কালনা দু'নম্বর ব্লক রয়েছে চারটি কন্টেইনমেন্ট জোন। পূর্বস্থলী এক নম্বর ব্লকে পাঁচটি কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে। পূর্বস্থলী দু'নম্বর ব্লকে রয়েছে পাঁচটি কন্টেইনমেন্ট জোন। কাটোয়া এক নম্বর ব্লকের রয়েছে দুটি কন্টেইনমেন্ট জোন। কাটোয়া দু'নম্বর ব্লক রয়েছে তিনটি কন্টেইনমেন্ট জোন। মঙ্গলকোট ব্লকে দুটি, বর্ধমান দু'নম্বর ব্লক,গলসি এক নম্বর ব্লক ও খণ্ডঘোষ ব্লকে একটি করে কন্টেইনমেন্ট জোন রয়েছে।

শরদিন্দু ঘোষ

Published by: Siddhartha Sarkar
First published: July 15, 2020, 7:28 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर