তীর্থযাত্রীদের শারীরিক পরীক্ষা করতে অস্বীকার মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজে!

তীর্থযাত্রীদের শারীরিক পরীক্ষা করতে অস্বীকার মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজে!
  • Share this:

Pranab Kumar Banerjee

#মুর্শিদাবাদ: তীর্থযাত্রী বোঝাই বাস উত্তর ভারত থেকে ফিরে শারীরিক পরীক্ষা করতে এলে হেনস্থা করা হয় বলে অভিযোগ। রবিবার সকালে তীর্থযাত্রী বোঝাই বাসটি মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজে শারীরিক পরীক্ষা করতে গেলে প্রথমে মাতৃসদনে পাঠানো হয়। সেখান থেকে ফিরিয়ে দেওয়া হয়। ফের মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজে এলে সেখান থেকে ফিরিয়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ।

পরে বহরমপুর থানার সামনে গিয়ে চিকিৎসকরা শারীরিক পরীক্ষা করেন ওই তীর্থযাত্রীদের। এই মাসের প্রথম সপ্তাহে বহরমপুরের বিভিন্ন জায়গা থেকে প্রায় ৭০ জন তীর্থযাত্রীকে নিয়ে উত্তর ভারতে যায় একটি ট্রাভেল এজেন্ট। রবিবার সকালে যাত্রীবাহী বাসটি ফিরে আসে বহরমপুর। এরপরই তীর্থযাত্রীরা শারীরিক পরীক্ষার জন্য মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজে এলে সেখান থেকে মাতৃ সদন পাঠিয়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। সেখানকার চিকিৎসকরা শারীরিক পরীক্ষা সম্ভব নয় বলে তীর্থযাত্রীদেরকে জানিয়ে দেন।

এরপর আবার মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজে এলে সেখান থেকেও পাঠিয়ে দেওয়া হয় পরীক্ষা সম্ভাব নয় বলে । তীর্থযাত্রীরা বিক্ষোভে ফেটে পড়েন মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজের সামনে। পরিস্থিতি বেগতিক দেখে বরমপুর থানার পুলিশ এসে তীর্থযাত্রী বোঝাই বাস নিয়ে থানায় নিয়ে যায় ও স্বাস্থ্য দফতরের কর্মীরা প্রত্যেকের স্বাস্থ্য পরীক্ষা করেন। ট্রাভেল এজেন্টের এক কর্মী অনুপ সাহা বলেন, তীর্থযাত্রীরা প্রত্যেকেই বয়স্ক। করোনা আতঙ্কের জেরে এমনিতেই সকলে ভীতসন্ত্রস্ত। সেই কারণেই মেডিকেল কলেজে আসার পর হয়রানি হতে হয় আমাদেরকে। তবে শেষ পর্যন্ত শারীরিক পরীক্ষা হয় কিছুটা স্বস্তি মিলেছে।

First published: March 22, 2020, 4:52 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर