মৃত্যুতেই থামল পথ হাঁটা, হায়দরাবাদ থেকে আর ঘরে ফেরা হল না বাংলার শ্রমিকের

প্রতীকী চিত্র।

মৃত পরিযায়ী শ্রমিক হায়দার মহম্মদ হায়দরাবাদে নির্মাণ শ্রমিকের কাজ করতেন। তাঁর সঙ্গে কাজ করতেন তাঁর ভাইপোও।

  • Share this:

    #ওড়িশা: যাঁরা ম্যারাথন দৌঁড়ন সারা বছর, তাঁরাও দু'বার ভাববেন এই সিদ্ধান্ত নিতে। কিন্তু মৃত্যুভয়ের চেয়ে সাংঘাতিক আর কিছু নেই। তাই ৬০ বছর বয়সি বাংলার এই শ্রমিক হায়দরাবাদ থেকে নিজের ভিটের দিকে রওনা দিয়েছিলেন। শুক্রবার ওড়িশার বালাসোর জেলায় তাঁর মৃত্যু হয়।

    মৃত পরিযায়ী শ্রমিক হায়দার মহম্মদ হায়দরাবাদে নির্মাণ শ্রমিকের কাজ করতেন। তাঁর সঙ্গে কাজ করতেন তাঁর ভাইপোও। লকডাউনের জেরে কাজ বন্ধ হয়ে যায় অথচ কোনও ফেরার উপায় ছিল না হায়দারের। খাবার জোগাড় করতে শেষ হয়ে যায় সমস্ত সঞ্চয়। প্রাণ বাঁচাতেই শেষমেশ ভাইপোকে নিয়ে বাড়ির দিকে রওনা হয়েছিলেন হায়দার।

    পাঁচ দিন টানা হাঁটেন হায়দার। রাতে বিশ্রাম নেন রাস্তাতেই। বৃহস্পতিবার হায়দার সিদ্ধান্ত নেন ১৬ নং জাতীয় সড়কের ধারে একটি দোকানের বারান্দায় ঘুমোবেন। সকালে তাঁর ভাইপো দেখেন হায়দার সাড়া দিচ্ছেন না। স্থানীয় থানায় খবর দেন এ মহম্মদ। হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করা হয়। ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে তাঁর দেহ।

    Published by:Arka Deb
    First published: