করোনা রোগীদের জন্য এলাহি আয়োজন! ভেটকি থেকে পাঁঠার মাংস, মেডিক্যাল কলেজে পুজোর ছোঁয়া

করোনা রোগীদের জন্য এলাহি আয়োজন! ভেটকি থেকে পাঁঠার মাংস, মেডিক্যাল কলেজে পুজোর ছোঁয়া
প্রতীকী চিত্র।

কলকাতা মেডিক্যাল কলেজের রোগী কল্যাণ সমিতির চেয়ারম্যান তথা রাজ্যের মন্ত্রী নির্মল মাজি জানান, আক্রান্ত রোগীদের মনে একটু খুশি যোগাতেই এই সিদ্ধান্ত।

  • Share this:

কলকাতা: কাতলা মাছ, ভেটকি মাছ, কচি পাঁঠার মাংস,মুরগির মাংস, চিকেন স্যুপ, লুচি,বোঁদে, দই,মিষ্টি,চাটনি,পাঁপড়,নবরত্ন,পনির এবং পায়েস!

না, এটা কোনো নামজাদা রেস্টুরেন্ট বা হোটেলের মেনু নয়,এটাই দুর্গাপুজোর পাঁচদিনের খাবারের মেনু করোনা আক্রান্ত রোগীদের জন্য। করোনারোগীদের এভাবেই খাওয়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে মেডিক্যাল কলেজ রোগী কল্যাণ সমিতি।গত ৭ মে করোনা আক্রান্ত রোগীদের জন্য চিহ্নিত হওয়ার পর থেকেই কলকাতা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বিতর্ক পিছু ছাড়েনি। কখনো করোনা আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসায় গাফিলতির, কখনও বা করোনা আক্রান্ত রোগীদের ভর্তি করাতে গিয়ে চূড়ান্ত হয়রানির শিকার হতে হয় রোগীর পরিবারকে।

সেইসব পেরিয়ে পুজোর আবহে করোনারোগীদের মানসিক ভাবে শক্তি জোগাতে এবং তাঁরা যাতে কোনও ভাবেই নিজেদেরকে ব্রাত্য না ভাবেন তা নিশ্চিত করতে চায় মেডিক্যাল কলেজ কর্তৃপক্ষ। তাঁদের মনে উৎসবের রঙের ছোঁয়া দিতেই এই অভিনব সিদ্ধান্ত। কলকাতা মেডিক্যাল কলেজের রোগী কল্যাণ সমিতির চেয়ারম্যান তথা রাজ্যের মন্ত্রী নির্মল মাজি জানান, আক্রান্ত রোগীদের মনে একটু খুশি যোগাতেই এই সিদ্ধান্ত।


প্রসঙ্গত, নির্মল মাজি নিজেও করোনা আক্রান্ত হয়ে গুরুতর অসুস্থ এবং তিনি কলকাতা মেডিক্যালেরই সুপার স্পেশালিটি বিল্ডিংয়ে (এসএসবি) চিকিৎসাধীন। এখনও তাঁর মাঝে মধ্যেই শ্বাসকষ্ট রয়েছে, অক্সিজেন নিতে হচ্ছে। মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণজনিত সমস্যাও রয়েছে। তাঁর ছেলেও কলকাতা মেডিক্যালেই কর্মরত চিকিৎসক। তিনিও করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালের বেডে।

কবে কী পড়ছে পাতে একবার দেখে নেওয়া যাক-

ষষ্ঠীর দুপুরে ভাতের সঙ্গে রুই মাছ। রাতে চিকেন স্যুপ অথবা মুরগির মাংস।সপ্তমীর দুপুরেও ভাতের সঙ্গে কাতলা মাছ; রাতে চিকেন স্যুপ বা মুরগির মাংস। অষ্টমীতে নিরামিষ। সেদিন দুপুরে ভাত, নবরত্ন ও পনিরের তরকারি; রাতে লুচি, মিষ্টি, বোঁদে। নবমীতে দুপুরের পাতে কচিপাঁঠার ঝোল, আর রাতে কাতলা মাছ বা চিকেন স্যুপ। দশমীতে দুপুরে ভাতের সঙ্গে থাকবে ভেটকি পাতুরি, সঙ্গে পাঁচমিশেলি সবজি; রাতে মাংস বা মাছ। আর এ সবের সঙ্গে প্রতিদিনই পাতে থাকছে দই মিষ্টি চাটনি পাঁপড়। থাকছে এমনকি পায়েসও!

Published by:Arka Deb
First published: