করোনা ভাইরাস

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

‘মনের জোর রাখলে করোনা মোকাবিলা করা কোন ব্যাপারই নয়’, সংক্রমণ থেকে সেরে উঠে চাঞ্চল্যকর যা তথ্য দিলেন রোগী

‘মনের জোর রাখলে করোনা মোকাবিলা করা কোন ব্যাপারই নয়’, সংক্রমণ থেকে সেরে উঠে চাঞ্চল্যকর যা তথ্য দিলেন রোগী
কোনও রোগীর ক্ষেত্রে পরীক্ষা রিপোর্ট নেগেটিভ হলে ছাড়া হবে৷ প্রবল লক্ষণে পুরোপুরি সুস্থ হলেই ছাড়া হবে ৷

করোনা আতঙ্কের মাঝেই স্বস্তির খবর। অনেক আক্রান্ত ব্যক্তিই সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরছেন। কলকাতার শোভাবাজার রবীন্দ্র সরণির বাসিন্দা এক প্রৌঢ় গত ৮ ই এপ্রিল জ্বর,শ্বাসকষ্ট,কাশি নিয়ে ই এম বাইপাস এর ধারের Fortis হাসপাতালে ভর্তি হন

  • Share this:

#কলকাতা: বিশ্বজুড়ে প্রতিদিন নভেল করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। প্রায় ২৩ লাখ মানুষ এখন সারা বিশ্বে নভেল করোনা আক্রান্ত। করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়ার সংখ্যাও প্রতিদিন বেড়ে চলেছে ৷ গোটা বিশ্বে  করোনা আক্রান্ত হয়ে ১ লাখ ৫৪ হাজার এর উপরে মানুষ মারা গিয়েছে। ভারতবর্ষও এর ব্যতিক্রম নয়। প্রায় ১৫ হাজার মানুষ গোটা দেশে করোনা আক্রান্ত। করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে এখনো পর্যন্ত ৪৮০ জনের। পশ্চিমবঙ্গে রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তরের হিসাব অনুযায়ী  রাজ্যে সক্রিয় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত এখন ১৬২ জন। করোনা আক্রান্ত হয়ে এ রাজ্যে ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে।

করোনা আতঙ্কের মাঝেই স্বস্তির খবর। অনেক আক্রান্ত ব্যক্তিই সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরছেন। কলকাতার শোভাবাজার রবীন্দ্র সরণির বাসিন্দা এক প্রৌঢ় গত ৮ ই এপ্রিল জ্বর,শ্বাসকষ্ট,কাশি নিয়ে ই এম বাইপাস এর ধারের Fortis হাসপাতালে ভর্তি হন। তার লালা রসের পরীক্ষা করে জানা যায় ওই ব্যক্তি করোনা আক্রান্ত। অবশেষে ১১ দিন হাসপাতালে থাকার পর সুস্থ হয়ে শনিবার তিনি বাড়ি ফেরেন।বাড়ি ফেরার আগে হাসপাতালে তার চিকিৎসার জন্য তৈরি করা চিকিৎসক,নার্স,স্বাস্থ্যকর্মী সহ গোটা টীম তাকে করতালি দিয়ে সম্বর্ধনা জানান।এই নিয়ে রাজ্যে মোট ৫৬ জন করোনা আক্রান্ত রোগী সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরলেন।

‘প্রাথমিক ভাবে খুব ভেঙে পড়েছিলাম।কিন্তু মন শক্ত করে নিজেকে বোঝাই যে, মরার আগে মরে যাওয়ার কোনো প্রশ্নই ওঠে না। এর সঙ্গে নিজেকে লড়াই করতে হবে। পরিবারের মুখের দিকে তাকিয়ে মন শক্ত করি। ডক্টর,নার্সরা যেমন যেমন নির্দেশ দিত, তা পালন করতাম। জানতাম,দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠবো। তবে হাসপাতালের ডাক্তার নার্স স্বাস্থ্য কর্মী সহ প্রত্যেকে প্রতি মুহূর্তে আমাকে মনোবল জুগিয়ে গেছে। আজ আমি সুস্থ,আবার বাড়ি ফিরবো। যদিও আগামী ১৪ দিন নিয়ম করে quarantine বা আলাদা করে পর্যবেক্ষণে থাকব।প্রত্যেককে বলব ভয় না পেয়ে এই মারণ রোগ কে সহজেই জব্দ করা যাবে আমরা প্রত্যেকে যদি একটু সচেতন সতর্ক থাকি তবে এই রোগকে মোকাবিলা করা মোটেই কঠিন কাজ নয়।’ সুস্থ হয়ে হাসপাতালের বেড থেকেই একথা বললেন শোভাবাজারের করোনা মুক্ত এই রোগী।

Avijit Chanda

Published by: Elina Datta
First published: April 18, 2020, 11:29 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर