Jagannath Temple Covid Alert : শনি-রবি বন্ধ পুরীর জগন্নাথ মন্দির, জেনে নিন ভক্তদের প্রবেশে কী কী নতুন নিয়ম...

সপ্তাহান্তে বন্ধ Photo :Fule

২৪ এপ্রিল থেকে নয়া নিয়ম কার্যকর হবে। নয়া নিয়ম অনুযায়ী, সোম থেকে শুক্রবার অবধি খোলা থাকবে জগন্নাথ মন্দির।

  • Share this:

    #ওড়িশা: : করোনা সংক্রমণ বাড়ছে গোটা দেশে। এই পরিস্থিতিতে সপ্তাহান্তে পুরীর জগন্নাথ মন্দির বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিল মন্দির কর্তৃপক্ষ। ২৪ এপ্রিল থেকে নয়া নিয়ম কার্যকর হবে। নয়া নিয়ম অনুযায়ী, সোম থেকে শুক্রবার অবধি খোলা থাকবে জগন্নাথ মন্দির। বন্ধ থাকবে শনি ও রবিবার। শুক্রবার মন্দির কর্তৃপক্ষের সঙ্গে জেলাশাসক ও অন্যান্য আধিকারিকদের ভার্চুয়াল বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

    মন্দির কর্তৃপক্ষের তরফে গৌরহরি প্রধান বলেছেন, ‘"আগামী শনিবার অর্থাৎ ২৪ এপ্রিল থেকে এই নিয়ম কার্যকর হবে। মন্দিরের ভিতরে মাস্ক ছাড়া প্রবেশ নিষেধ। কেউ মাস্ক ছাড়া থাকলে জরিমানা করা হবে।" অতিরিক্ত জমায়েতের ভয়ে মূল মন্দিরের ভিতরে একসঙ্গে বেশি ভক্তকে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না। প্রয়োজনে দূর থেকে জগন্নাথ দর্শনের ব্যবস্থা থাকবে। এমনকি সিদ্ধান্ত হয়েছে, ওডিশার বাইরের ভক্তদের মন্দিরে ঢুকতে হলে কোভিড নেগেটিভ রিপোর্ট সঙ্গে থাকতে হবে। নয়ত টিকার দুটি ডোজ নেওয়ার শংসাপত্র থাকলেই মন্দিরে ঢোকা যাবে।

    মন্দিরের বাইরে র্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্টের ব্যবস্থাও করা হবে। তবে পুরীর দর্শনার্থীদের জন্য এখনও এরকম কোনও বিধিনিষেধ চালু হয়নি। মন্দিরের ভিতরে দর্শনার্থীরা বিধিনিষেধ ঠিকঠাক মানছেন কিনা, তা দেখার জন্য সাত সদস্যের একটি কমিটিও গঠন করা হয়েছে। এমনকি হরিদ্বারের কুম্ভ মেলায় পুরীর মন্দিরের যে সেবায়েতরা গিয়েছিলেন, তাদের কোভিড টেস্টের ব্যবস্থাও করা হয়েছে। ভার্চুয়াল বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে, পরিস্থিতি খারাপ হলে প্রয়োজনে মন্দিরে ভক্তদের প্রবেশে সম্পূর্ণ নিষেধাজ্ঞাও জারি করা হতে পারে।

    প্রসঙ্গত, গত দু'দিন দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ফের একবার দু' লক্ষের গণ্ডি ছাড়িয়েছে। এই আবহে প্রতীকী কুম্ভ মেলা পালনের আবেদন জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি । এই পরিস্থিতিতে সংক্রমণ ঠেকাতে আগেভাগেই বড় পদক্ষেপ নিল পুরীর জগন্নাথ মন্দির কর্তৃপক্ষ। উল্লেখ্য, চলতি মাসেই ফের একবার করোনার ঢেউ আছড়ে পড়েছে পুরীর জগন্নাথ মন্দিরে। মন্দিরের বহু সেবায়েতের করোনা সংক্রমিত হওয়ার খবর প্রকাশ্যে আসতে থাকে। এই আবহে সংক্রমণ ঠেকাতেই সপ্তাহান্তে মন্দির বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। এদিকে শনিবার ও রবিবার যখন মন্দির বন্ধ থাকবে তখন মন্দির চত্বরটি স্যানিটাইজ করা হবে বলেও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

    Published by:Sanjukta Sarkar
    First published: