হোম /খবর /দক্ষিণবঙ্গ /
রেকর্ড ভাঙল সংক্রমণ, ২৪ ঘণ্টায় পূর্ব বর্ধমানে করোনা আক্রান্ত চুয়ান্ন জন

রেকর্ড ভাঙল সংক্রমণ, ২৪ ঘণ্টায় পূর্ব বর্ধমানে করোনা আক্রান্ত চুয়ান্ন জন

আক্রান্তের সংখ্যা এভাবে বাড়তে থাকায় আতঙ্কে সৃষ্টি হয়েছে। পরিস্থিতি প্রায় ধরাছোঁয়ার বাইরে চলে যাওয়ায় জেলার বাসিন্দারা এলাকার বাইরে যেতে ভয় পাচ্ছেন।

  • Last Updated :
  • Share this:

#পূর্ব বর্ধমান : একদিনে করোনায় রেকর্ড সংখ্যক বাসিন্দা আক্রান্ত হলেন পূর্ব বর্ধমান জেলায়। গত চব্বিশ ঘণ্টায় এই জেলায় নতুন করে চুয়ান্ন জন আক্রান্ত হয়েছেন।  একদিনে এতজন আক্রান্ত এর আগে কোনওদিন হতে দেখা যায়নি। গত ১২ জুলাই পূর্ব বর্ধমান জেলায় একদিনে আটত্রিশ জন আক্রান্ত হয়েছিলেন।  সেটাই ছিল সেদিন পর্যন্ত একদিনে সর্বোচ্চ আক্রান্তের সংখ্যা। সেই রেকর্ড ভেঙে নতুন করে আক্রান্ত হলেন চুয়ান্ন জন।

এই নিয়ে পূর্ব বর্ধমান জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হল চারশো তেরো জন। এদের মধ্যে দুশো আটষট্টি জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। মারা গিয়েছেন দু জন। এখন করোনা হাসপাতাল ও বাড়িতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন একশো তেতাল্লিশ  জন। আক্রান্তের সংখ্যা এভাবে বাড়তে থাকায় আতঙ্কে সৃষ্টি হয়েছে। পরিস্থিতি প্রায় ধরাছোঁয়ার বাইরে চলে যাওয়ায় জেলার বাসিন্দারা এলাকার বাইরে যেতে ভয় পাচ্ছেন। লকডাউনের বাইরের এলাকাতেও দিনের বেলায় রাস্তায় ভিড় তুলনামূলকভাবে কমেছে। অনেকেই ফেস কভার বা মাস্কে মুখ ঢেকে রাস্তায় বের হচ্ছেন। আক্রান্তদের মধ্যে অনেক চিকিৎসক পুলিশ কর্মী অফিসারও রয়েছেন।

পূর্ব বর্ধমান জেলায় নতুন করে আক্রান্ত চুয়ান্ন জনের মধ্যে ন জন বর্ধমান শহর এলাকার বাসিন্দা। এই নিয়ে বর্ধমান শহরে আক্রান্তের সংখ্যা পঞ্চাশ জন ছাড়িয়ে গিয়েছে। এলাকায় এলাকায় বাঁশের ব্যারিকেড দিয়ে কন্টেইনমেন্ট জোন করা হয়েছে। সেইসব এলাকার লকডাউন কড়াকড়ি করা হয়েছে। এছাড়া মেমারি এক ও দু নম্বর ব্লকে করোনার সংক্রমণ ব্যাপক আকার নিয়েছে। মেমারির দুটি ব্লক ও পুরসভা এলাকা নিয়ে একদিনে নতুন করে ষোল জন করোনা আক্রান্ত হওয়ায় উদ্বিগ্ন এলাকার বাসিন্দারা।এছাড়া শহর লাগোয়া  বর্ধমান এক নম্বর ব্লকেও আক্রান্ত হয়েছেন চারজন। বর্ধমান দু'নম্বর ব্লকে আক্রান্ত হয়েছে দুজন। রায়না এক নম্বর ব্লকে  একজন আক্রান্ত হয়েছেন। অন্যদিকে রায়না দু'নম্বর ব্লকে আক্রান্ত হয়েছেন চারজন। এছাড়া গলসি এক নম্বর ব্লকে একজন ও গলসি দু নম্বর ব্লকে দুজন আক্রান্ত হয়েছেন। জামালপুর ব্লকের একজন আক্রান্ত হয়েছেন। কালনা দু'নম্বর ব্লকে আক্রান্ত হয়েছেন চারজন। কেতুগ্রাম এক নম্বর ব্লকে একজন, খণ্ডঘোষ ব্লকের দুজন, মেমারি এক নম্বর ব্লকের সাত জন ও মেমারি দু নম্বর ব্লকে আটজন আক্রান্ত হয়েছেন। মেমারি ও কাটোয়া পৌরসভা এলাকায় একজন করে আক্রান্ত হয়েছেন। মন্তেশ্বর ব্লকের আক্রান্ত হয়েছেন ছ জন।

Saradindu Ghosh

Published by:Debalina Datta
First published:

Tags: Corona Virus, Coronavirus, Purba bardhaman