Home /News /coronavirus-latest-news /
কবে থেকে উড়ান? রাজ্যের মত নিয়েই যাত্রা শুরু, জানাল কেন্দ্র

কবে থেকে উড়ান? রাজ্যের মত নিয়েই যাত্রা শুরু, জানাল কেন্দ্র

রাজ্য কেন্দ্র কথাবার্তাতেই উঠে আসবে উড়ানের সময়সূচি।

রাজ্য কেন্দ্র কথাবার্তাতেই উঠে আসবে উড়ানের সময়সূচি।

,এ বারে শুধু বিমান পরিষেবা চালু করলেই হবে না। যাত্রীদের জন্য প্রয়োজনীয় মেডিকেল ক্যাম্প থেকে শুরু করে কোয়ারান্টিনের ব্যবস্থাও করতে হবে রাজ্যকে।

  • Share this:

#কলকাতা: এপ্রিল মাস থেকেই শুরু হয়েছে টালবাহানা। প্রতিবারই দেশের মধ্যে বিমান পরিষেবা চালু হওয়ার সম্ভাবনা তৈরি হয়েও বারেবারে ভেস্তে গিয়েছে। সৌজন্যে অবশ্যই করোনার প্রকোপে লকডাউনের মেয়াদ বেড়ে যাওয়া। শেষমেশ, চতুর্থ লকডাউনে অনেক পরিষেবাক্ষেত্রেই বিধিনিষেধ শিথিল করা এবং সড়ক পরিবহণে অনেকটাই ছাড় মেলায় ফের আশায় কোমর বাঁধতে শুরু করেছেন বিমান পরিবহণ সংস্থাগুলি। আর ঠিক সে সময়েই বিশেষ ঘোষণা কেন্দ্রীয় অসামরিক বিমান পরিবহণ মন্ত্রী হরদীপ সিংহ পুরীর। তিনি জানিয়েছেন, যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামোর কথা মাথায় রেখে অঙ্গরাজ্যগুলির মত নিয়েই এই সিদ্ধান্ত নেবে কেন্দ্রীয় সরকার।

সম্প্রতি ট্যুইট করে পুরী লিখেছেন, "দেশীয় বিমান পরিষেবা শুরুর সিদ্ধান্ত শুধুমাত্র ভারত সরকার বা অসামরিক বিমান পরিবহণ মন্ত্রকের সিদ্ধান্ত হতে পারে না। যে সব রাজ্যে ওই সব বিমান ওঠানামা করবে তাদের আগে এর জন্য প্রস্তুত হতে হবে।"

হঠাৎ করে কেন এমন ট্যুইট? কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের এক কর্তা বলেন, "গত সপ্তাহে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে বৈঠকে অনেক রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীই রাজ্যগুলির সঙ্গে কথা বলেই যাবতীয় সিদ্ধান্ত নেওয়ার দাবি জানিয়েছিল কেন্দ্রের কাছে। সেই সিদ্ধান্তকে মান্যতা দিয়েই এমন অবস্থান নিয়েছে কেন্দ্র।" তিনি জানান, অন্য তিনটি লকডাউনের থেকে এ বারের লকডাউন চরিত্রগত ভাবে আলাদা হবে জানিয়েছিলেন খোদ প্রধানমন্ত্রী। তার অন্যতম পরিবর্তনই হল, এ বারের লকডাউনের সময়সীমা আর প্রয়োজনীয় নির্দেশিকা শুধু দিয়েছে কেন্দ্র। বাকি সব কিছুই নিজেদের প্রয়োজনমতো ঠিক করে নিয়েছে রাজ্যগুলি।

সেই ভাবনা থেকেই বিমান পরিবহণ পরিষেবা চালু করার আগে রাজ্যগুলির মতামত চাইছে কেন্দ্র। কারণ, এ বারে শুধু বিমান পরিষেবা চালু করলেই হবে না। যাত্রীদের জন্য প্রয়োজনীয় মেডিকেল ক্যাম্প থেকে শুরু করে কোয়ারান্টিনের ব্যবস্থাও করতে হবে রাজ্যকে। এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট রাজ্যগুলি সবুজ সঙ্কেত দিলেই ওই সব রাজ্যে পরিষেবা চালু করা হবে।

তবে তার আগে বিমানবন্দরের প্রস্তুত করার কাজ চলছে। অসামরিক বিমান পরিবহণ মন্ত্রকের এক কর্তা বলেন, "চালু হওয়ার অনেক আগেই আমরা প্রস্তুতি সেরে রাখতে চাইছি। বিদেশে আটকে থাকা ভারতীয়দের ফেরত আনার জন্য যে 'বন্দে ভারত মিশন' শুরু হয়েছে, তাতে প্রাথমিক প্রস্তুতি হয়ে গিয়েছে। বাকি কাজও সেরে ফেলতে বলা হয়েছে।"

Published by:Arka Deb
First published:

পরবর্তী খবর