corona virus btn
corona virus btn
Loading

পূর্ব বর্ধমানে আগুনের গতিতে ছড়াচ্ছে সংক্রমণ, আতঙ্কে কাটছে প্রহর

পূর্ব বর্ধমানে আগুনের গতিতে ছড়াচ্ছে সংক্রমণ, আতঙ্কে কাটছে প্রহর

পূর্ব বর্ধমান জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় আঠারোশোর কাছাকাছি পৌঁছে গিয়েছে।

  • Share this:

#পূর্ব বর্ধমান:  পূর্ব বর্ধমান জেলায় করোনা সংক্রমণ কমার কোনও লক্ষনই নেই! লাফিয়ে লাফিয়ে বেড়েই চলেছে আক্রান্তের সংখ্যা। প্রতিদিনই জেলার বিভিন্ন প্রান্তে নতুন করে বহু বাসিন্দার আক্রান্ত হওয়ার খবর আসছে। করোনার সংক্রমণে রাশ টানা না যাওয়ায়  উদ্বিগ্ন বাসিন্দারা। করোনা আক্রান্তদের চিহ্নিত করতে নিয়মিত লালারসের নমুনা সংগ্রহ ও অ্যান্টিজেন টেস্ট করা হচ্ছে বলে জানিয়েছে জেলা প্রশাসন। পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক বিজয় ভারতী জানান, করোনা মোকাবিলায় ভিড় কমানোর ওপর জোর দেওয়া হচ্ছে। সে জন্যই বর্ধমান মেমারি শহরের দোকান বাজার খোলার ক্ষেত্রে বিধি-নিষেধ জারি রয়েছে।

পূর্ব বর্ধমান জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় আঠারোশোর কাছাকাছি পৌঁছে গিয়েছে। এ দিন পর্যন্ত এই জেলায় এক হাজার সাতশো ছেষট্টি জন পুরুষ মহিলা করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। তাদের মধ্যে বারোশো আশি জন চিকিৎসার পর সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। বর্তমানে চারশো পঞ্চাশ জন অ্যাকটিভ করোনা আক্রান্ত চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এ দিন পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত হয়ে ছত্রিশ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে।

পূর্ব বর্ধমান জেলায় গত আটচল্লিশ ঘণ্টায় একশো ঊনচল্লিশ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। শুক্রবার আক্রান্ত হয়েছিলেন ছিয়াশি জন। নতুন করে গতচব্বিশ ঘন্টায় আরও তিপান্ন জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। বর্ধমান শহরে গত আটচল্লিশ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন চৌত্রিশ জন। তার মধ্যে গত চব্বিশ ঘন্টায় আক্রান্ত হয়েছেন এগারো জন। কাটোয়া পুরসভা এলাকায় নতুন করে পাঁচ জন করোনা আক্রান্তের হদিশ মিলেছে। বর্ধমান এক নম্বর ব্লকে আক্রান্ত হয়েছেন সাত জন। বর্ধমান দুই নম্বর ব্লকে আক্রান্ত হয়েছেন তিন জন। কেতুগ্রাম দুই নম্বর ব্লকে তিন জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। শুধুমাত্র মঙ্গলকোট ব্লকেই আক্রান্ত হয়েছেন দশ জন। কেতুগ্রাম দুই নম্বর ব্লকে দুই জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। এছাড়া আউশগ্রাম এক নম্বর ব্লক, জামালপুর, গলসি এক নম্বর ব্লক, মেমারি দুই নম্বর ব্লক, খণ্ডঘোষ,পূর্বস্থলী এক নম্বর ব্লক, রায়না এক নম্বর ব্লক, রায়না দুই নম্বর ব্লক, মন্তেশ্বর, গলসি দুই নম্বর ব্লক, কাটোয়া এক নম্বর ব্লক, কাটোয়ার দুই নম্বর ব্লকে একজন করে করোনা আক্রান্তের হদিশ মিলেছে।

Saradindu Ghosh

Published by: Debalina Datta
First published: August 16, 2020, 4:50 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर